প্রাগৈতিহাসিক ধর্ম: সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

[[File:UA001.17(1).jpg|thumb|alt=refer to caption|upright=1.1|ইউক্রেনীয় ডাকটিকিটে মধ্য পুরাপ্রস্তরযুগের শিকারের চিত্র]]
মধ্য পুরাপ্রস্তরযুগটি ছিল একই সীমানার মধ্যে নিয়ান্ডারথাল ও ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স''-দের ([[শারীরবৃত্তীয়ভাবে আধুনিক মানুষ]]) জনবসতির যুগ। ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স''-দের উৎপত্তি আফ্রিকায় এবং নিয়ান্ডারথালদের উৎপত্তি ঘটেছিল ইউরেশিয়া অঞ্চলে। ধীরে ধীরে ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স''-রা ইতিপূর্বে নিয়ান্ডারথাল অধ্যুষিত অঞ্চলগুলিতে বিস্তার লাভ করে এবং কালক্রমে তাদের অপসারিত করে এবং অন্তিম পুরাপ্রস্তরযুগের সূচনা ঘটায়।<ref name="nea">{{cite journal|title=দ্য মিডল প্যালিওলিথিক: আর্লি মডার্ন হিউম্যানস অ্যান্ড নিয়ান্ডারথালস ইন দ্য লেভান্ট |journal=নিয়ার ইস্টার্ন আর্কিওলজি |volume=৬৪ |issue=১/২|pages=৩৮–৬৪ |date=2001|vauthors=শেয়া জে. জে. |doi=10.2307/3210819|jstor=3210819|s2cid=163861726}}</ref> নিয়ান্ডারথালদের অবধারণ ক্ষমতা সম্পর্কে অনেক কিছুই জানা যায় না, বিশেষত সে ক্ষমতাগুলি পরবর্তীকালে ধর্মের উৎপত্তি ঘটিয়েছিল সেগুলি বহুলাংশে অজানাই থেকে গিয়েছে।<ref name="rgp" /> নিয়ান্ডারথালদের ধর্ম-সংক্রান্ত ব্যাখ্যায় তাদের গুহার ব্যবহার-কেন্দ্রিক সম্ভাব্য আচার<ref name="hayden10">{{cite book|title=শ্যামানস, সোরসারারস, অ্যান্ড সেন্টস: আ প্রিহিস্ট্রি অফ রিলিজিয়ন |last=হেইডেন |first=ব্রায়ান |date=17 December 2003|publisher=স্মিথসোনিয়ান বুকস |location=ওয়াশিংটন, ডিসি |chapter=দ্য প্রাইমাল প্যালিওলিথিক |page=১০০ |isbn=9781588341686}}</ref> ও তাদের সমাধিদানের প্রথাটির কথা আলোচনা করা হয়।<ref name="pettitt4">{{cite book|title=দি অক্সফোর্ড হ্যান্ডবুক অফ দি আর্কিওলজি অফ রিচুয়াল অ্যান্ড রিলিজিয়ন |last=পেটিট |first=পল |editor-last=ইনসোল |editor-first=টিমোথি |date=October 2011|publisher=অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি প্রেস |location=অক্সফোর্ড, যুক্তরাজ্য |chapter=রিলিজিয়ন অ্যান্ড রিচুয়াল ইন দ্য লোয়ার অ্যান্ড মিডল প্যালিওলিথিক |page=৩৩৯ |isbn=9780199232444}}</ref> সেই সঙ্গে আলোচনা করা হয় লিখিত ইতিহাসে প্রাপ্ত ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স'' শিকারী-সংগ্রাহক উপজাতিগুলির ধর্মানুশীলনের কথা। নিয়ান্ডারথালদের জীবনযাত্রা প্রণালী এদেরই অনুরূপ ছিল বলে মনে করা হয়।<ref name="hayden1" /><ref name="hayden5" /> নৃতত্ত্ববিদদের একাংশ নিয়ান্ডারথালদের প্রাক্-ধর্মীয় জনগোষ্ঠী মনে করেন। এই নৃতত্ত্ববিদদের মতে, নিয়ান্ডারথালদের প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন থেকে তাদের সৃজনশীলতা বা অতিলৌকিকতার বোধের অভাবেরই ইঙ্গিত পাওয়া যায়<ref name="rgp" /> এবং যথেষ্ট অনুসন্ধান ব্যতিরেকেই নিয়ান্ডারথাল-সম্পর্কিত প্রত্নতাত্ত্বিক আবিষ্কারগুলির উপর ধর্মীয় উদ্দেশ্যের কথা অনুমান করা হয়।<ref name="numen" /> শুধু তাই নয়, এই নৃতত্ত্ববিদরা দেখান যে, নিয়ান্ডারথাল নরকঙ্কালের যে অবশেষগুলি পাওয়া গিয়েছে সেগুলির বংশাণু ও স্নায়ুবিজ্ঞান-সম্বন্ধীয় বিশ্লেষণের মাধ্যমেও বোঝা যায় যে এই জনগোষ্ঠীর মধ্যে ধর্ম বিষয়টিকে বোঝার মতো জ্ঞানসম্বন্ধীয় জটিলতার উদ্ভব ঘটেনি।<ref name="zygon" />
 
নিয়ান্ডারথালরা ইউরোপে প্রাধান্য বিস্তার করলেও মধ্য পুরাপ্রস্তরযুগীয় ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স''-রা রাজত্ব করত আফ্রিকায়। সমসাময়িককালের নিয়ান্ডারথালদের মতো মধ্য পুরাপ্রস্তরযুগীয় ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স''-দের মধ্যেও ধর্মের নিশ্চিত চিহ্ন কমই পাওয়া যায়। সেই যুগের ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স''-দের শিল্পকলা, যন্ত্রপাতি ও শৈলীগত অভ্যাসগুলির মধ্যে আধ্যাত্মিক বিশ্বাস ও ধর্মানুশীলনের জন্য যে জটিলতার প্রয়োজন হয় তার কোনও ইঙ্গিত পাওয়া যায় না।<ref name="wesler2">{{cite book|title=অ্যান আর্লিওলজি অফ রিলিজিয়ন |last=ওয়েসলার |first=কিট ডব্লিউ. |date=2012|publisher=ইউনিভার্সিটি প্রেস অফ আমেরিকা |location=ল্যানহ্যাম, মেরিল্যান্ড |chapter=গ্রেভ ইস্যুজ |page=৩৯ |isbn=9780761858454}}</ref> যদিও মধ্য পুরাপ্রস্তরযুগ একটি দীর্ঘ সময় এবং এই যুগের ''হোমো সেপিয়েন্স সেপিয়েন্স''-রা ছিল পৃথগ্বিধ। মানবজাতি কীভাবে আচরণগতভাবে ও অবধারণশক্তির দিক থেকে পরিশীলিত হয়ে উঠেছিল তা নিয়ে [[আচরণগত আধুনিকতা|আচরণগত আধুনিকতার]] মডেলগুলির মধ্যে মতভেদ রয়েছে, তা সে অন্তিম পুরাপ্রস্তরযুগের সহসা উত্থানের দিক থেকেই হোক বা মধ্য পুরাপ্রস্তরযুগের শেষ লক্ষ বছরের ধীর প্রক্রিয়ার দিক থেকেই হোক। দ্বিতীয় তত্ত্বটির সমর্থকেরা ১৫০,০০০{{endash}}৫০,০০০ বছর আগের ক্রমবর্ধমান সাংস্কৃতিক, আচারগত ও আধ্যাত্মিক পরিশীলনের প্রমাণগুলির দিকে দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।<ref name="wightman4">{{cite book|title=দি অরিজিনস অফ রিলিজিয়ন ইন দ্য প্যালিওলিথিক |last=হুইটম্যান |first=গ্রেগরি জে. |date=18 December 2014|publisher=রোওম্যান অ্যান্ড লিটলফিল্ড পাবলিশার্স |location=ল্যানহ্যাম, মেরিল্যান্ড |chapter=আফ্রিকান সেপিয়েন্টস, ২০০–৫০ কেওয়াইএ |pages=১৯৯–২০০|isbn=9781442242890}}</ref>
 
==নব্য প্রস্তরযুগীয় ধর্ম==