প্রধান মেনু খুলুন

প্রতিবিষ হচ্ছে এক প্রকার বিষাক্ত পদার্থ জীব বা জীবকোষের অভ্যন্তরে যা উৎপন্ন হয়।[১][২] বিষক্রিয়াকারক (Toxicant) কৃত্রিমভাবে জীবকোষের বাইরেও প্রস্তুত করা যায়। এই কাজটি প্রথম করেন জৈব রসায়নবিদ লুডউইক ব্রেইজের (১৮৪৯-১৯১৯)[৩] প্রতিবিষের ইংরেজি পরিভাষা হল টক্সিন; শব্দটি গ্রিক শব্দ τοξικόν (তোক্সিকন) থেকে এসেছে।

প্রতিবিষ ক্ষুদ্র অণু (small molecule), পেপটাইড অথবা প্রোটিন হতে পারে। এগুলি রোগ সৃষ্টি করতে এমনকি জৈব দেহকলা (Biological tissue) ধ্বংস করে দিতে সক্ষম। জৈব বৃহদাকৃতি অণু (macromolecule ম্যাক্রোমলিকিউল: অপেক্ষাকৃত বড় অণু) যেমন উৎসেচক (এনজাইম) অথবা কোষীয় গ্রাহক (cellular receptors) এর উপর নানান ধরণের বিক্রিয়া ঘটাতে সক্ষম। বিষাক্ততার (toxicity) উপর নির্ভর করে প্রতিবিষ বিভিন্ন ধরনের হতে পারে, যেমন সচরাচর দেখা যায় এরকম ক্ষুদ্র প্রতিবিষ (যেমন মৌমাছির হুলের দংশন) যেমন আছে, তেমনি তাৎক্ষণিক মৃত্যু ঘটাতে সক্ষম (বটুলিনাম প্রতিবিষ botulinum toxin যা খাদ্যে বিষক্রিয়ার মাধ্যমে হয়) এই ধরনের প্রতিবিষও দেখা যায়।

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা