গাঙশালিক

পাখির প্রজাতি

গাঙশালিক (Acridotheres ginginianus) হল এক ধরনের ময়না যা দক্ষিণ এশিয়ার উত্তর অংশে পাওয়া যায়। এটি ভাত শালিকের চেয়ে ছোট তবে রঙে একই রকমের কিন্তু একে পৃথক করেছে এর চোখের পিছনে হলুদ রঙের জায়গায় ইটের মত লাল নগ্ন ত্বক। এটি নিচের ধূসর অংশ এবং এর মধ্যের পালকগুলির উপস্থিতির কারণে এর সাথে ঝুঁটি শালিকের কিছুটা সাদৃশ্য রয়েছে। এগুলি উত্তর এবং মধ্য ভারতের সমভূমিতে ঝাঁকে ঝাঁকে পাওয়া যায়, প্রায়শই শহর ও নগরেও দেখা যায়। নামটি কেবলমাত্র নদীর তীরের মাটিতে গর্ত খনন করে এবং বৃহত উপনিবেশে বাসা বেঁধে বসবাস ও প্রজনন করার অভ্যাস থেকে উদ্ভূত হয়েছে।

গাঙশালিক
Bank myna (Acridotheres ginginianus).jpg
গাছের ডালে বসা গাঙশালিক
বৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ: Animalia
পর্ব: Chordata
শ্রেণী: Aves
বর্গ: Passeriformes
পরিবার: Sturnidae
গণ: Acridotheres
প্রজাতি:
A. ginginianus
দ্বিপদী নাম
Acridotheres ginginianus
(ল্যাথাম, ১৭৯০)

বিবরণসম্পাদনা

মাথার মুকুট এবং পাশের অংশের পালকসমূহ কালো এবং উপরের পালকগুলি শ্লেটি ধূসর এবং নিচের অংশটি হালকা ধূসর বর্ণের সাথে পেটের দিকটা ফ্যাকাশে গোলাপী রঙের হয়। ডানা কালো তবে গোড়ায় একটি ডানা প্যাচ রয়েছে এবং লেজের পালক ফ্যাকাশে গোলাপী রঙের। চোখের পিছনের নগ্ন ত্বকটি ইট লাল, পা হলুদ এবং আইরিস গভীর লাল। স্ত্রী-পুরুষ একই রকম, আলাদা করা যায় না। [২] অল্প বয়স্ক পাখির মাথায় এবং ঘাড়ে একটি বাদামী রঙ থাকে। [৩][৪]

প্রজাতিগুলি বিবর্তনীয়ভাবে ভাত শালিকের নিকটতম। [৫]

গ্যালারীসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Papenfuss, T.; Shafiei Bafti, S.; Sharifi, M.; Bennett, D. & Sweet, S.S. (২০১০)। "Varanus bengalensis"আইইউসিএন লাল তালিকাআইইউসিএন2010: e.T164579A5909661। ডিওআই:10.2305/IUCN.UK.2010-4.RLTS.T164579A5909661.en। সংগ্রহের তারিখ ১০ জানুয়ারি ২০১৮ 
  2. Whistler, Hugh (১৯৪৯)। The Bank Myna। Gurney and Jackson, London। পৃষ্ঠা 205–206। সংগ্রহের তারিখ ৮ জুলাই ২০১৩ 
  3. Baker, E C S (১৯২৬)। The Fauna of British India, Including Ceylon and Burma. Birds. Volume 3 (2nd সংস্করণ)। Taylor and Francis, London। পৃষ্ঠা 55–56। 
  4. Oates, EW (১৮৮৯)। The Fauna of British India, Including Ceylon and Burma. Birds. Volume 1। Taylor and Francis, London। পৃষ্ঠা 538–539। 
  5. Zuccon, D. & Pasquet, E. (২০০৮)। "Phylogenetic relationships among Palearctic–Oriental starlings and mynas (genera Sturnus and Acridotheres: Sturnidae)" (PDF): 469–481। ডিওআই:10.1111/j.1463-6409.2008.00339.x 

অন্যান্য উত্সসম্পাদনা

  • Dhindsa, MS (১৯৮০)। "Bank Myna Acridotheres ginginianus (Latham): A good predator of House-Flies, Musca domestica L.": 294। 
  • Fawcus, LR (১৯৪৩)। "Note on the distribution of the Bank Myna in Eastern Bengal": 119। 
  • Jior, RS; Dhindsa, Manjit S (১৯৯৫)। "Nests and nest contents of the Bank Myna Acridotheres ginginianus": 25–28। 
  • Khera, S; Kalsi,RS (১৯৮৬)। "Diurnal time budgets of the Bank Myna, Acridotheres ginginianus (Sturnidae) during prelaying, laying and incubation periods": 25–32। 
  • S Khera; R S Kalsi (১৯৮৬)। "Waking and roosting behaviour of the Bank Myna, Acridotheres ginginianus, in Chandigarh and surrounding areas": 55–68। 
  • Parasara, UA; Parasharya, BM (১৯৯১)। "Studies on the nestling food of the Bank Myna Acridotheres ginginianus (Latham)": 37–42। 
  • Parasharya, BM; Dodia, JF (১৯৯৬)। "The role of birds in the natural regulation of Helicoverpa armigera Hubner in wheat": 33–38।