গাউন

নারীদের পোশাক

স্যাক্সন শব্দ গান্না[১] থেকে আসা গাউন হলো সাধারণত মধ্যযুগ থেকে ১৭ শতকের ইউরোপের পুরুষ এবং মহিলাদের দ্বারা পরিহিত পূর্ণ দৈর্ঘ্যের একটি ঢিলেঢালা পোশাক এবং নির্দিষ্ট পেশায় তা আজও অব্যাহত রয়েছে; পরবর্তীতে গাউনটি পোশাকের ওপরদিককার অংশ এবং সংযুক্ত স্কার্ট সমন্বিত যে কোনও পূর্ণ দৈর্ঘ্যের মহিলার পোশাক হিসাবে প্রয়োগ করা হয়েছিল।

লাকমে ফ্যাশন উইক ২০২০-এর অনুষ্ঠানে গাউনে সোনালী রাউত

বিবরণসম্পাদনা

একটি আধুনিক গাউন বলতে বিভিন্ন ধরনের পোশাককে বোঝায়। এটি কোনও নারীর পোশাক, বিশেষ কোনো আনুষ্ঠানিক পোশাক, বা আলঙ্কারিক কোনো পোশাককেও উল্লেখ করা যেতে পারে।[২][১] এটি নাইটগাউন বা ড্রেসিং গাউনকেও বোঝায়।[২]

ইতিহাসসম্পাদনা

গুন্না অ্যাংলো-স্যাক্সন মহিলারা পরিধান করতেন এবং এটি দীর্ঘ এবং ঢিলেঢালা পোশাক ছিল।[১]

১২ এবং ১৩ শতাব্দীর প্রথমদিকে ইউরোপীয় বিশ্ববিদ্যালয়গুলিতে পড়া শিক্ষার্থীরা গাউনগুলি পড়তেন।[৩] এই গাউন এবং হুডগুলি তাদের পদমর্যাদা নির্দেশ করতো। ১৪ থেকে ১৭ তম শতাব্দী পর্যন্ত গাউন শব্দটি পুরুষ এবং মহিলা উভয় দ্বারা পরিহিত কোনও দীর্ঘ, ঢিলেঢালা কোনো পোশাকের বর্ণনা করতে ব্যবহৃত হতো।[১]

১৫০০ এর দশকে ইতালিতে গাউনগুলি বিভিন্ন জায়গায় ক্যামোরা বা অন্যান্য আঞ্চলিক নামে পরিচিত ছিল।[৪] ইতালীয় নারীরা ভেস্তিতো বা রোবা নামক এক প্রকার ওভার গাউন-ও পড়তেন।[৪]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Wilcox, Ruth Turner (১৯৬৯)। The Dictionary of Costume (ইংরেজি ভাষায়)। Batsford। পৃষ্ঠা 152। আইএসবিএন 9780713462777 
  2. Picken 1957
  3. Waxman, Olivia B. (১০ মে ২০১৭)। "The Real Reason Grads Wear a Cap and Gown"Time (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০১৮-০১-২৬ 
  4. Fabretti 2008
গ্রন্থ-পঞ্জী

বহিঃসংযোগসম্পাদনা