খাজা হায়দার জান শায়েক

ফারসি ও উর্দু কবি

খাজা হায়দার জান শায়েক (১৯শ শতক) ছিলেন ১৯ শতকে ঢাকার একজন ফারসি ও উর্দু কবি। উর্দু ভাষায় তার দিওয়ান সঙ্কলন রয়েছে।[১]

খাজা হায়দার জান শায়েক
জন্মফয়েজউদ্দিন
১৯ শতক
ছদ্মনামশায়েক
ভাষাউর্দু
নাগরিকত্ব ব্রিটিশ ভারত
সময়কাল১৯ শতক
ধরনকাব্য
আত্মীয়খাজা খলিলউল্লাহ (বাবা)

প্রারম্ভিক জীবনসম্পাদনা

খাজা হায়দার জান শায়েক ঢাকার নবাব পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার প্রকৃত নাম ফয়েজউদ্দিন। লেখালেখির ক্ষেত্রে তিনি শায়েক নাম ব্যবহার করতেন। তার পিতা খাজা খলিলউল্লাহ নবাব পরিবারের প্রভাবশালী সদস্য ছিলেন।[১]

কর্মজীবনসম্পাদনা

তিনি ফারসি ও উর্দু ভাষায় লেখালেখি করেছেন। তিনি দিল্লির কবি মীর্জা গালিবের শিষ্য ছিলেন। হাকিম হাবিবুর রহমান তার ও গালিবের মধ্যে আদানপ্রদান করা চিঠি নিয়ে ইনসায়ে শায়েক নামের সঙ্কলন প্রকাশ করেছিলেন। গালিব তাকে তুতিয়ে বাঙ্গাল বা বাংলার তোতা বলে সম্বোধন করেন।[১]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা