কাবুলিওয়ালা (১৯৬১-এর চলচ্চিত্র)

চলচ্চিত্র

কাবুলিওয়ালা (হিন্দি: काबुलीवाला) হল ১৯৬১ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত একটি হিন্দি চলচ্চিত্র। এই ছবিটি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের কাবুলিওয়ালা শীর্ষক ছোটোগল্প অবলম্বনে নির্মিত। ছবিটি পরিচালনা করেন হেমেন গুপ্ত। ছবিতে মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করেন বলরাজ সাহানি, ঊষা কিরণ, সজ্জন, সোনু ও বেবি ফরিদা।[১][২]

কাবুলিওয়ালা
কাবুলিওয়ালা চলচ্চিত্রের পোস্টার.jpg
কাবুলিওয়ালা ছবির পোস্টার
পরিচালকহেমেন গুপ্ত
প্রযোজকবিমল রায়
লীলা দেশাই (সহ-পরিচালক)
রচয়িতাবিশ্রাম বেড়েকর
এস. খালিল
উৎসরবীন্দ্রনাথ ঠাকুর কর্তৃক 
কাবুলিওয়ালা
শ্রেষ্ঠাংশে
সুরকারসলিল চৌধুরী
চিত্রগ্রাহককমল বসু
সম্পাদকমধু প্রভাবলকর
মুক্তি১৪ ডিসেম্বর, ১৯৬১
দৈর্ঘ্য১৩৪ মিনিট
দেশভারত
ভাষাহিন্দি

কাহিনিসম্পাদনা

কাবুলিওয়ালা ছবির গল্পটি খুব সরল। এটি আব্দুল রহমত খান নামে এক আফগান (বলরাজ সাহানি) মেওয়াওয়ালা ও মিনি (সোনু) নামে একটি বালিকার গল্প। রহমত তার মেয়ে আমিনাকে (বেবি ফরিদা) কাবুলে রেখে কলকাতায় এসেছিল ফল বিক্রি করতে। সেখানে মিনি'র মধ্যে সে নিজের মেয়েকে খুঁজে পায় এবং তাকে স্নেহ করতে শুরু করে।

অভিনেতা-অভিনেত্রীসম্পাদনা

প্রেক্ষাপটসম্পাদনা

হেমেন গুপ্ত ছিলেন সুভাষচন্দ্র বসু'র ব্যক্তিগত সচিব। তিনি একাধিক ছবি পরিচালনা করেছিলেন। এগুলোর মধ্যে বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য বলরাজ সাহানি অভিনীত টকসাল (১৯৫৬) এবং নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসু (১৯৬৬)। বাংলার বাইরে রবীন্দ্রনাথের কাহিনি অবলম্বনে সবচেয়ে সফল ছবিটি ছিল হেমেন গুপ্তের কাবুলিওয়ালা। এই ছবিটি প্রযোজনা করেছিলেন বিমল রায় এবং এতে অভিনয় করেন বিশিষ্ট অভিনেতা বলরাজ সাহানি। অন্যান্য রবীন্দ্ররচনা-ভিত্তিক চলচ্চিত্রে বিষয় ও সময়কালের উপর অধিক গুরুত্ব আরোপ করা হলেও এই ছবিতে মানবতাবাদ, পরিচয় ও বৈচিত্রের ধ্রুপদি দৃষ্টিভঙ্গিটি প্রদর্শিত হয়েছে। মূল গল্পটি ১৮৯০-এর দশকে সাধনা নামে এক বাংলা সাহিত্য পত্রিকায় প্রকাশিত হয়েছিল। গল্পটি বাংলা থেকে ইংরেজিতে অনুবাদ করেন ভগিনী নিবেদিতা। অনুবাদটি মডার্ন রিভিউ পত্রিকায় প্রকাশিত হয়েছিল।[৩]

সাউন্ডট্র্যাকসম্পাদনা

ছবিটির সংগীত পরিচালনা করেন সলিল চৌধুরী এবং গীত রচনা করেন প্রেম ধবন ও গুলজার

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Of Kabuliwala and Unconditional Love" ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ১৫ জুলাই ২০১১ তারিখে, by Dinesh Raheja, Rediff.com.
  2. Kabuliwala New York Times.
  3. "From Kolkata to Dublin via Kabul: Tagore's Internationalism And Cinema"। Silhouette Magazine & Learning and Creativity। ২০১৪-০৫-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০১৪-০৫-২৭ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা