আবু হুজাইফা ইবনে উতবা

আবু হুজাইফা ইবনে উতবা (মৃত্যুঃ ৬৩৩ সাল) মুহাম্মদের বিখ্যাত সাহচর বা সাহাবী ছিলেন। যিনি বনু আবদে শামস গোত্রের সন্তান। তিনি ৩৪ তম ব্যক্তি হিসাবে ইসলাম গ্রহণ করেন।[১]

আবু হুজাইফা ইবনে উতবা
মুহাম্মাদের সাহাবা
জন্মআনু. ৫৮০ খ্রিষ্টাব্দ
কুরাইশ বংশ, মক্কা, সৌদি আরব
মৃত্যু৬৩৩ খ্রিষ্টাব্দ
ইয়ামামার যুদ্ধে
যার দ্বারা প্রভাবিতমুহাম্মাদ
ব্যক্তিগত
পিতামাতা
যে জন্য পরিচিতপ্রাথমিক মুসলিম, যুদ্ধে অংশগ্রহণ

নাম ও বংশ পরিচয়সম্পাদনা

আবু হুজাইফার পিতার নাম উতবা ইবনে রাবিয়াহ এবং মাতার নাম ফাতিমা বিনতে সাফওয়ান। তিনি ছিলেন কুরাইশ বংশের।

হিজরতসম্পাদনা

আবু হুজাইফা প্রথমে মুসলিম কাফেলার সাথে হাবশায় হিজরত করেন আবার মক্কায় ফিরে আসেন এরপর তার স্ত্রী সাহলা বিনতু সুহাইল ও তার পুত্র মোহাম্মদ ইবনে আবী হুজাইফা কে নিয়ে হাবশায় হিজরত করেন।[২] এরপর সালেম কে (রা.) সঙ্গে করে তিনিও মদীনায় হিজরত করে আব্বাত ইবনে বিশর আল আনসারীর অতিথি হলেন। রসুল (সা.) তাদের দু’জনের মধ্যে ভ্রাতৃত্ব প্রতিষ্ঠা করে দেন।[২]

মৃত্যুসম্পাদনা

আবু হুজাইফা ইবন উতবা ৬৩৩ সালে মৃত্যু বরণ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫৩ অথবা ৫৪ বছর। নবীর ওফাতের পর আবু বকরের আমলে ইয়ামামা অঞ্চলে মুসাইলামাতুল কাজ্জাব নামের একজন ভণ্ড নবীর আবির্ভাব ঘটে। এর বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে গিয়ে হুজাইফা মারা (শাহাদাত) যান। [৩]

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. আল- ইসাবা – (৪/৪২) 
  2. উসুদুল গাবা - (৫/১৭০) 
  3. হায়াতুস সাহাবা - (২/৩৬৪-৬৫) 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা