হেজাজ রেলওয়ে (তুর্কী: Hicaz Demiryolu) ছিল দামেস্ক থেকে মদিনা পর্যন্ত বিস্তৃত একটি ন্যারো গজ রেলপথ। এটি হেজাজ অঞ্চলের মধ্য দিয়ে অগ্রসর হয়। এছাড়াও হাইফার দিকে এর একটি শাখা ছিল। হেজাজ রেলওয়ে ছিল উসমানীয় রেলওয়ে নেটওয়ার্কের একটি অংশ। ইস্তানবুল থেকে দামেস্ক হয়ে মক্কা পর্যন্ত পৌছানোর জন্য এর নির্মাণ করা হয়। প্রথম বিশ্বযুদ্ধ শুরু হওয়ার কারণে মদিনার বেশি এর নির্মাণ সম্ভব হয়নি।

হেজাজ রেলওয়ে
Damascus-Hejaz station.jpg
দামেস্কে হেজাজ ট্রেন স্টেশন,
রেলপথের সূচনাস্থল
সংক্ষিপ্ত বিবরণ
অন্য নামহেজাজ রেলওয়ে
সেবাগ্রহণকারী অঞ্চলদক্ষিণ সিরিয়া, জর্ডান, উত্তর সৌদি আরব
বিরতিস্থলদামেস্ক
মদিনা
ক্রিয়াকলাপ
উদ্বোধনের তারিখ১৯০৮ (1908)
বন্ধ হয়১৯২০ (১৯২০)
পরিচালনাকারী
প্রযুক্তিগত
ট্র্যাকের দৈর্ঘ্য১,৩২০ কিলোমিটার (৮২০ মাইল)
ট্র্যাক গেজ১,০৫০ মিলিমিটার (৩ ফুট  ১১৩২ ইঞ্চি)
সর্বনিম্ন ব্যাসার্ধ১০০ মি (৩২৮ ফু)
সর্বোচ্চ ঢালু১,৮ (০.১৮ %)
১৯০৮ খ্রিষ্টাব্দে হেজাজ রেলওয়ে
Ferrocarril del hiyaz EN.PNG

এই রেলপথ নির্মাণের মূল উদ্দেশ্য ছিল উসমানীয় খিলাফতের রাজধানী কনস্টান্টিনোপল থেকে ইসলামের পবিত্রতম শহর মক্কা পর্যন্ত যোগাযোগ সহজ করা।[১] এছাড়াও উসমানীয় সাম্রাজ্যের দূরবর্তী আরব প্রদেশের অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক অবস্থার উন্নয়ন ঘটানো এবং সামরিক বাহিনীর যোগাযোগ সহজ করা এর উদ্দেশ্য হিসেবে কাজ করে।[২] তারপর প্রথম বিশ্বযুদ্ধ শুরু হলে আরব বিদ্রোহরা ব্রিটিশদের পক্ষ অবলম্বন করে উসমানীয় খেলাফতের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ করে।যুদ্ধে ব্রিটিশ অফিসার টি ই লরেন্স ও তাদের দালাল প্রথম ফয়সাল রেলপথটি ধ্বংস করে।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. Yurtoğlu, Nadir (২০১৮-১০-১৫)। "Standardization Policies in Turkey Within the Context of the Foundation of Turkish Standards Institution (TSE) (1923-1960)" (PDF)History Studies International Journal of History (তুর্কী ভাষায়)। 10 (7): 241–264। doi:10.9737/hist.2018.658আইএসএসএন 1309-4688 
  2. Fisher, J.N. (২০১৭-০৩-০৪)। "The Hejaz Railway and the Ottoman Empire: Modernity, Industrialisation and Ottoman Decline"Middle Eastern Studies (ইংরেজি ভাষায়)। 53 (2): 316–317। doi:10.1080/00263206.2016.1209491আইএসএসএন 0026-3206আইএসবিএন 978-1-78076-364-4 

আরও দেখুনসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা