স্কলাস্টিকা (বিদ্যালয়)

(স্কলাস্টিকা স্কুল থেকে পুনর্নির্দেশিত)

স্কলাসটিকা হলো বাংলাদেশের ঢাকা শহরের একটি বেসরকারি ইংরেজি মাধ্যমের বিদ্যালয় প্রি-স্কুল থেকে এ-লেভেল পর্যন্ত শিক্ষা প্রদান করে।

স্কলাস্টিকা
অবস্থান

তথ্য
বিদ্যালয়ের ধরনকেমব্রিজ অ্যাসেসমেন্ট ইন্টারন্যাশনাল এডুকেশন বেসরকারি
প্রতিষ্ঠিত১৯৭৭; ৪৭ বছর আগে (1977)
প্রতিষ্ঠাতাইয়াসমিন মোর্শেদ
চেয়ারপারসনসৈয়দ মাদিহা মোর্শেদ
লিঙ্গসহ-শিক্ষামূলক
শ্রেণীপ্লে গ্রুপ থেকে এ-লেভেল
ভাষাইংরেজি ও বাংলা
বিদ্যালয়ের কার্যসময়শিক্ষার্থীদের জন্য সকাল ৮টা থেকে দুপুর ২:৪০টা
ক্যাম্পাসউত্তরা, গুলশান, ধানমন্ডিমিরপুর
ক্যাম্পাসের ধরনশহুরে
রং     সাদা ও      নীল
ক্রীড়াবিভিন্ন[১]
দলের নামস্ট্যালিয়নস
ওয়েবসাইটscholasticabd.com

এটি বাংলাদেশের অভিজাত স্কুলগুলোর মধ্যে অন্যতম হিসেবে স্বীকৃত যা একটি শক্তিশালী প্রাক্তন শিক্ষার্থী নেটওয়ার্ক নিয়ে গর্বিত।[২]

ইতিহাস

সম্পাদনা

স্কলাস্টিকা ১৯৭৭ সালে শিক্ষার মাধ্যম হিসাবে ইংরেজি থাকলেও বাংলা ভাষায় সমান দক্ষতার উপর জোর দেওয়ার জন্য স্কুলগুলোর চাহিদা মেটাতে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল।[৩]

২০০১ সালের জানুয়ারিতে সিনিয়র শ্রেনীগুলো নতুন ক্যাম্পাসে চলে যায়।

ক্যাম্পাস

সম্পাদনা
 
স্কলাস্টিকার স্থায়ী ক্যাম্পাস

স্কলাস্টিকার জুনিয়র, মিডল ও সিনিয়র বিভাগগুলো ঢাকার ধানমন্ডি, গুলশান, উত্তরামিরপুরের আশেপাশে অবস্থিত।

উত্তরায় অবস্থিত ক্যাম্পাসটি ২০০০ সালে নির্মিত হয়েছিল। এখানে ভবনের সাততলা ভবন জুড়ে শ্রেণীকক্ষে ৩ থেকে ১২ শ্রেণী পর্যন্ত পড়ানোর ব্যবস্থা রয়েছে। এসটিএম হল হচ্ছে একটি অডিটোরিয়াম যা ব্যায়ামাগার হিসেবে ব্যবহৃত হয়[৪] যা ইয়াসমিন মুর্শেদের স্বামী সৈয়দ তানভীর মুর্শেদের নামে নামকরণ করা হয়।

মিরপুরে স্কলাস্টিকার ক্যাম্পাস রয়েছে।

পাঠ্যক্রম

সম্পাদনা

স্কলাসটিকা একটি সম্পূর্ণ প্রাথমিক, প্রাথমিক, মাধ্যমিক এবং উচ্চ বিদ্যালয় শিক্ষা প্রদান করে যা ঢাকায় ব্রিটিশ কাউন্সিল দ্বারা পরিচালিত জিসিই পরীক্ষার জন্য নেতৃত্ব দেয়।

২০০৮-০৯ শিক্ষা মেয়াদ থেকে স্কুলের ও-লেভেল ও এ-লেভেলের পরীক্ষাগুলো কেমব্রিজ অ্যাসেসমেন্ট ইন্টারন্যাশনাল এডুকেশন দ্বারা পরিচালিত হচ্ছে যা স্কুলিং এর এডেক্সেল ব্যবস্থাকে প্রতিস্থাপিত করেছে।

কার্যক্রম

সম্পাদনা

ল্যাবরেটরি

সম্পাদনা

সমস্ত বিজ্ঞান ক্লাসের জন্য ল্যাবরেটরি সুবিধা প্রদান করা হয়। 'ও' এবং 'এ' লেভেল পরীক্ষার ব্যবহারিক প্রয়োজনীয়তা পূরণের জন্য লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধিদের দ্বারা সিনিয়র ল্যাবরেটরিগুলো পরিদর্শন ও অনুমোদন করা হয়।

পাঠক্রম বহির্ভূত কার্যক্রম

সম্পাদনা

স্কলাস্টিকা অতিরিক্ত পাঠ্যক্রমিক কার্যক্রমের মধ্যে রয়েছে নাটক, বিতর্ক ও জনসাধারণ বক্তব্য।[৫] বিদ্যালয় দল আন্তঃস্কুল ও জাতীয় প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে।[৬] নাট্য উপস্থাপনা ইংরেজি ও বাংলায় সঞ্চালিত হয়ে থাকে। মিডল স্কুল থেকে শুরু করে বেশ কিছু স্কুল-পরবর্তী প্রোগ্রাম দেওয়া হয়।

উল্লেখযোগ্য প্রাক্তন শিক্ষার্থী

সম্পাদনা

তথ্যসূত্র

সম্পাদনা
  1. "Scholastica, Narinda retain title in School Handball"The Financial Express। Dhaka। ৭ জুলাই ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুলাই ২০১৫ 
  2. Sreenivasan Jain (৪ জুলাই ২০১৬)। "From Elite Schools To ISIS? Mystery of Dhaka Attackers"NDTV। সংগ্রহের তারিখ ২৪ অক্টোবর ২০১৬ 
  3. "Profile of Some Schools of Dhaka"The Daily Star। Bangladesh। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুলাই ২০১৫ 
  4. Hoque, Shishir। "Big guns start strong in 8th Ascent Corporate Cup"Dhaka Tribune। ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুলাই ২০১৫ 
  5. "Hasina, but not Rehana, wants Tulip in Bangladesh politics"Prothom Alo। BSS। ৪ মার্চ ২০১৬ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ জানুয়ারি ২০১৬ 
  6. Angela, Nusrat Jahin (৪ সেপ্টেম্বর ২০১৩)। "Flying High at Harvard Model United Nations Conference"The Daily Star। Bangladesh। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুলাই ২০১৫ 
  7. Salam, Upashana (২১ নভেম্বর ২০১৪)। "Wasfia's Everest"The Daily Star। Bangladesh। সংগ্রহের তারিখ ১ জানুয়ারি ২০১৬ 
  8. Kasturi, Charu Sudan (৫ জুলাই ২০১৬)। "Missing from class photo, youth surfaces in café"The Telegraph। Kolkata। 
  9. "Have faith in you"The Daily Star। Bangladesh। ৭ এপ্রিল ২০২১। সংগ্রহের তারিখ ১ জানুয়ারি ২০১৬ 
  10. Sultana, Fauzia (২৫ সেপ্টেম্বর ২০১১)। "Master of Many Trades"Star Campus। The Daily Star। ২৩ এপ্রিল ২০২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২ মে ২০২২ 

বহিঃসংযোগ

সম্পাদনা