সৌরেন বসু

ভারতীয় রাজনীতিবিদ

সৌরেন বসু (২৫ জুন, ১৯২৪) একজন বাঙালি কমিউনিস্ট বিপ্লবী এবং ভারতের নকশাল আন্দোলনের একজন নেতৃত্বদানকারী ব্যক্তিত্ব। ১৯৬৭ সালে ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্কসবাদী)- এর কংগ্রেস সম্মেলনে তিনি সম্মেলন কেন্দ্রে মাও সেতুংয়ের একটি প্রতিকৃতির অনুপস্থিতি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। যখন ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্কসবাদী-লেনিনবাদী) গঠিত হয়, তখন তিনি নতুন দলে যোগ দেন। পার্টি অভ্যন্তরে তিনি ভাদু দা নামে পরিচিত ছিলেন।[১]

সৌরেন বসু
জন্ম২৫ জুন, ১৯২৪
জাতীয়তাব্রিটিশ ভারতীয়, ভারতীয়
নাগরিকত্ব ব্রিটিশ ভারত (১৯৪৭ সাল পর্যন্ত)
 ভারত
পেশালেখক, বিপ্লবী, রাজনীতিবিদ
রাজনৈতিক দলভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্কসবাদী), ভারতের কমিউনিস্ট পার্টি (মার্কসবাদী-লেনিনবাদী)
আন্দোলননকশাল আন্দোলন

সৌরেন বসু চীনে ভ্রমণ করেন এবং তিনি ছিলেন সেইসব খুব কম সংখ্যক ভারতীয় মাওবাদীদের মধ্যে অন্যতম যারা চীনা নেতৃত্বের সাথে সরাসরি বৈঠক করেন। তিনি যখন ভারত ফিরে আসেন, তখন তিনি সিপিআই (এমএল) এর লাইনের প্রতি চীনা নেতাদের দ্বারা উত্থাপিত সমালোচনা উপস্থাপন করেন, কিন্তু তার মতামত সিপিআই (এমএল) নেতা চারু মজুমদার কৃত রণকৌশল দ্বারা কোণঠাসা হয়েছিল। চৌ এন-লাইয়ের সাথে তার কথোপকথনটি একটি পুস্তিকা আকারে প্রকাশিত হয়েছিলো। ১৯৭৯ সালে দীর্ঘদিন কারাবাসের পর তিনি মুক্তি পান।[২]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "নকশালবাড়ির ৫০ বছর"bartamanpatrika.com। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০১৭ 
  2. অসীম চট্টোপাধ্যায় (১৯ জুলাই ২০১১)। "নিঃশর্ত বন্দিমুক্তি কেন চাই"। আনন্দবাজার পত্রিকা। সংগ্রহের তারিখ ১৩ জুলাই ২০১৭