সোয়েব আহমেদ (জন্ম: ১ মার্চ ১৯৪৮) বাংলাদেশের উচ্চ পদস্থ সরকারি কর্মকর্তা ছিলেন। তিনি নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সময় ২০০৬ সালের ১৩ ডিসেম্বর হতে ২০০৭ সালের ১১ জানুয়ারি পর্যন্ত অর্থ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করেন।[১]

সোয়েব আহমেদ
বাংলাদেশের অর্থ উপদেষ্টা
কাজের মেয়াদ
১৩ ডিসেম্বর ২০০৬ – ১১ জানুয়ারি ২০০৭
পূর্বসূরীড. আকবর আলি খান
উত্তরসূরীড. এ. বি. মির্জ্জা মোঃ আজিজুল ইসলাম
ব্যক্তিগত বিবরণ
জন্ম১ মার্চ ১৯৪৮
জাতীয়তাবাংলাদেশী

প্রাথমিক জীবন সম্পাদনা

সোয়েব আহমেদ ১ মার্চ ১৯৪৮ জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৬২ সালে মতলবগঞ্জ জে,বি, উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ম্যাট্রিকুলেশন পাশ করেন। ১৯৬৪ সালে ঢাকা কলেজ থেকে আইএ পাশ করেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতিতে বিএ ও এমএ ডিগ্রী অর্জন করেন।

হার্ভার্ড ইউনিভার্সিটি থেকে পোষ্ট-গ্র্যাজুয়েট ও ওয়াশিংটন ইন্টার ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি থেকে পিএইচডি ডিগ্রী অর্জন করেন।

কর্মজীবন সম্পাদনা

সোয়েব আহমেদ ১৯৭০ সালে তৎকালীন সেন্ট্রাল সুপিরিয়র সার্ভিস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ  হয়ে বিভিন্ন দায়িত্ব পালন শেষে বাংলাদেশ সরকারের সচিব হিসেবে কৃষি মন্ত্রণালয়, অর্থ মন্ত্রণালয়ের আই,আর,ডি, বন ও পরিবেশ মন্ত্রণালয় ও শিল্প মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করেন।

তিনি জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান ছিলেন।

বাংলাদেশের তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা হিসেবে অর্থ, পরিকল্পনা, বাণিজ্য, ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করেন।

তিনি আইইউবির অধ্যাপক ও কোষাধ্যক্ষ।

তিনি দায়িত্ব পালন করেছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিচালনা পরিষদের সদস্য, বেসিক ব্যাংকের চেয়ারম্যান, আইপিডিসি, কাফকোর চেয়ারম্যান।

বিদেশী প্রতিষ্ঠানের মধ্যে বিশ্ব ব্যাংকের বোর্ড অব গভর্নসের গভর্নর,  আইএমএফের বোর্ড অব গভর্নসের গভর্নর এবং এডিবি বোর্ড অব গভর্নসের গভর্নর,  এশিয়ান প্রডাক্টিভিটি অর্গানাইজেশন, জাপানের চেয়ারম্যান।

তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় অর্থনীতি বিভাগের এলামনাই সমিতির দু’বার সভাপতি ও বাংলাদেশ স্কাউটস্ এন্ড গাইডস্ এসোসিয়েশনের সভাপতি হিসেবে দীর্ঘদিন দায়িত্ব পালন করেন।

তথ্যসূত্র সম্পাদনা

  1. "বাংলাদেশ অর্থ মন্ত্রণালয়"। ১২ জুন ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৩ জুন ২০১৫