সুরেশ রায়না

ভারতীয় ক্রিকেটার

সুরেশ রায়না (মারাঠি: सुरेश रैना; জন্ম: ২৭ নভেম্বর, ১৯৮৬) উত্তর প্রদেশের মুরাদনগর এলাকায় জন্মগ্রহণকারী ভারতীয় ক্রিকেটার। বর্তমানে তিনি ভারত জাতীয় ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য হিসেবে টেস্ট, ওডিআই এবং টুযেন্টি২০ আন্তর্জাতিকে খেলছেন। বামহাতি মাঝারি সারির ব্যাটসম্যান হিসেবে আক্রমণাত্মক ভঙ্গীমায় খেলে থাকেন। এছাড়াও, দলের প্রয়োজনে মাঝে-মধ্যে অফ-স্পিন বোলিং করেন। ঘরোয়া ক্রিকেটে উত্তর প্রদেশ দলে খেলেন। ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগে চেন্নাই সুপার কিংসের সহ-অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করছেন। আইপিএলে সর্বাধিক খেলার অধিকারী রায়না চেন্নাই সুপার কিংসের সবগুলো খেলাতেই অংশ নিয়েছেন।[১]

সুরেশ কুমার রায়না
Suresh Raina grace the 'Salaam Sachin' conclave.jpg
'সালাম সচিন' অনুষ্ঠানে সুরেশ রায়না
ব্যক্তিগত তথ্য
জন্ম (1986-11-27) ২৭ নভেম্বর ১৯৮৬ (বয়স ৩৪)
মুরাদনগর, উত্তর প্রদেশ, ভারত
ডাকনামসনু
উচ্চতা৫ ফুট ৯ ইঞ্চি (১.৭৫ মিটার)
ব্যাটিংয়ের ধরনবামহাতি
বোলিংয়ের ধরনডানহাতি অফ ব্রেক
ভূমিকাব্যাটসম্যান
ওয়েবসাইটwww.sureshraina.co.in
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ২৬৫)
২৬-৩০ জুলাই ২০১০ বনাম শ্রীলঙ্কা
শেষ টেস্ট১০ জানুয়ারি ২০১৫ বনাম অস্ট্রেলিয়া
ওডিআই অভিষেক
(ক্যাপ ১৫৯)
৩০ জুন ২০০৫ বনাম শ্রীলঙ্কা
শেষ ওডিআই১৭ জুলাই ২০১৮ বনাম ইংল্যান্ড
টি২০আই অভিষেক
(ক্যাপ )
১ ডিসেম্বর ২০০৬ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা
শেষ টি২০আই৮ জুলাই ২০১৮ বনাম ইংল্যান্ড
ঘরোয়া দলের তথ্য
বছরদল
২০০২/০৩-বর্তমানউত্তর প্রদেশ
২০০৮-বর্তমানচেন্নাই সুপার কিংস
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট ওডিআই টি২০আই এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ১৮ ২২৬ ৭৮ ১০৯
রানের সংখ্যা ৭৬৮ ৫৬১৫ ১৬০৫ ৬৮৭১
ব্যাটিং গড় ২৬.৪৮ ৩৫.৩১ ২৯.১৮ ৪২.১৫
১০০/৫০ ১/৭ ৫/৩৬ ১/৫ ১৪/৪৫
সর্বোচ্চ রান ১২০ ১১৬* ১০১ ২০৪*
বল করেছে ১০৪১ ২১২৬ ৩৪৯ ৩৪৫৭
উইকেট ১৩ ৩৬ ১৩ ৪১
বোলিং গড় ৪০.৩৮ ৫০.৩০ ৩৪.০০ ৪১.৯৭
ইনিংসে ৫ উইকেট
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ২/১ ৩/৩৪ ২/৬ ৩/৩১
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ২৩/– ১০২/– ৪২/– ১১৮/–
উৎস: ESPNCricinfo, ১৫ আগস্ট ২০২০

প্রারম্ভিক জীবনসম্পাদনা

সুরেশ রায়না’র বাবা ত্রিলোকি চাঁদ একজন অবসরপ্রাপ্ত সামরিক কর্মকর্তা।[২] শ্রীনগরের রায়নাওয়ারি এলাকা থেকে সুরেশের পরিবার উত্তর প্রদেশের গাজিয়াবাদ এলাকায় স্থানান্তরিত হন।[৩] তার ৩জন জ্যেষ্ঠ ভ্রাতা - দীনেশ রায়না, নরেশ রায়না, মুকেশ রায়না ও ১জন জ্যেষ্ঠা ভগিনী - রেনু রয়েছে।[২][৪] ২০১৪ সালের ১১ নভেম্বর তিনি প্রিয়াঙ্কার সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। [৫]

খেলোয়াড়ী জীবনসম্পাদনা

লিস্ট এসম্পাদনা

২০০৫ সালে রঞ্জি ওয়ান ডে ট্রফিতে মোহাম্মদ কাইফ এর নেতৃত্বে উত্তর প্রদেশ দলের হয়ে অভিষেক ঘটে। ২৫৪ রান ও ৯ টি উইকেট নিয়ে টুর্নামেন্টে অলরাউন্ড অবদান রাখেন। উত্তর প্রদেশ সে বার যুগ্মভাবে বিজয়ী হয়।

একদিনের আন্তর্জাতিকসম্পাদনা

১৮ বছর বয়সে ২০০৫ সালে ইন্ডিয়ান অয়েল কাপ-এ শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের বিপক্ষে একদিনের আন্তর্জাতিকের মাধ্যমে রায়না’র অভিষেক ঘটে।

কিন্তু টেস্ট ক্রিকেটে তার অভিষেক ঘটে পাঁচ বছর পর ২০১০ সালে একই দলের বিপক্ষে। তবে, ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের অভিমত যে তিনি ফাস্ট বল এবং শর্ট বলে তেমন ক্রীড়ানৈপুণ্য প্রদর্শন করতে পারছেন না। বিদেশ সফরে তার ব্যাটিং গড়ই এর উৎকৃষ্ট প্রমাণ। এরফলে তিনি টেস্ট দলে তিনি তার স্থান পাকাপোক্ত করতে পারেননি। কিন্তু গুরুত্বের দিক থেকে কম বিবেচনায় টুয়েন্টি২০ ক্রিকেটসহ চেন্নাই সুপার কিংসের হয়ে আইপিএলে তিনি দূর্দান্ত সফলতা দেখাচ্ছেন।

২০১১ ক্রিকেট বিশ্বকাপসম্পাদনা

২০১১ সালের ক্রিকেট বিশ্বকাপ বিজয়ী ভারতীয় দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। গ্রুপ পর্বে অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি তাকে মাঠের বাইরে রেখে ইউসুফ পাঠানকে সুযোগ দেন। পরবর্তীতে বিরেন্দর শেওয়াগের আঘাতপ্রাপ্তিতে তিনি কোয়ার্টার ফাইনালে খেলেন। যুবরাজ সিংয়ের সাথে জুটি গড়ে দলকে জয় এনে দেন। সেমি-ফাইনালে অপরাজিত ৩৬ রান করে পাকিস্তানের বিপক্ষে জয়ে অবদান রাখেন। যুবরাজের বোলিংয়ে ইউনুস খানের ক্যাচ ধরেন।[৬]

চেন্নাই সুপার কিংসসম্পাদনা

মরশুম রান
২০০৮ ৪৫৬
২০০৯ ৪৩৪
২০১০ ৫২০
২০১১ ৪৩৮
২০১২ ৪৪১
২০১৩ ৫৪৮
২০১৪ ৫২৩
২০১৫ ৩৭৪
২০১৮ ৪৪৫
২০১৯ ১৯৪*

অবসরসম্পাদনা

১৫ আগস্ট, ২০২০এ ভারতের ৭৪তম স্বাধীনতা দিবসের দিনে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানান বিধ্বংসী এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান।[৭] একই দিনে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দেন তার ভারত ও চেন্নাই সুপার কিংস দলের সতীর্থ এবং বিশ্ব ক্রিকেটের অন্যতম কিংবদন্তী মহেন্দ্র সিং ধোনি। ধোনির দেখানো পথ অনুসরণ করে সুরেশ রায়নাও মাত্র ৩৩ বছর বয়সেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দেন। ২০১৮ সালের পরে জাতীয় দলে সুযোগ না পাওয়া সুরেশ সাম্প্রতিক ফর্ম বিবেচনায় এবং তরুণ ক্রিকেটারদের সুযোগ দিতে এই সিদ্ধান্ত নেন। ২০১৮ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে খেলা একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচই তার আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের শেষ ম্যাচ হয়ে রইলো।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Suresh Raina"। Cricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২৪ জানু ২০১৩ 
  2. "Suresh Raina excited to play in his mother-land"। Lahore times। ২৬ জানু ২০১৩। ২৯ জানুয়ারি ২০১৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  3. "Omar wants Raina to play for J&K, offers him plot"। India express.com। ৫ এপ্রিল ২০১১। ১ জানুয়ারি ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ 
  4. Anushka, Suresh Raina: The latest link-up - Times Of India. Articles.timesofindia.indiatimes.com (2012-03-21). Retrieved on 2013-12-23.
  5. Rakesh (২০২০-০৬-১৮)। "Suresh Raina Wife- Priyanka Raina Love Affair,Marriage story"Sportslibro.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-১৯ 
  6. "2nd Semi FInal India v Pakistan world cup 2011"। Cricinfo। 
  7. "Suresh Raina Announces Retirement From International Cricket | Cricket News"NDTVSports.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-১৫ 

আরও দেখুনসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা