শ্রীলেখা মিত্র

ভারতীয় অভিনেত্রী

শ্রীলেখা মিত্র (ইংরেজি: Sreelekha Mitra) (জন্ম ৩০ আগস্ট ১৯৭১) একজন ভারতীয় বাঙালি চলচ্চিত্র অভিনেত্রী। অভিনয় প্রতিভার স্বীকৃতি স্বরূপ তিনি পেয়েছেন বিএফজেএ সম্মান[৩]

শ্রীলেখা মিত্র
শ্রীলেখা মিত্র
জন্ম
শ্রীলেখা মিত্র

(1971-08-30) ৩০ আগস্ট ১৯৭১ (বয়স ৪৯)[১]
জাতীয়তাভারতীয়
অন্যান্য নামশ্রী
পেশাচলচ্চিত্র অভিনেত্রী
উল্লেখযোগ্য কর্ম
কাঁটাতাঁর
আশ্চর্য প্রদীপ
চৌকাঠ
স্বাদে আহ্লাদে
রেনবো জেলি
দাম্পত্য সঙ্গীশিলাদিত্য স্যান্যল (২০০৪-১৩)[২]
সন্তান

বাংলা ধারাবাহিক তৃষ্ণা (১৯৯৫) দিয়ে শ্রীলেখা মিত্রর উত্থান।[৪] এরপর বাসু চ্যাটার্জীর হঠাৎ বৃষ্টি (১৯৯৮) ছবিতে অভিনয় করার পরে তিনি জনপ্রিয়তার তুঙ্গে পৌঁছে যান।[৫] অভিনেত্রীর বক্তব্য অনুযায়ী প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের প্রেমপ্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ায় একের পর এক বাংলা ছবিতে প্রধান চরিত্র থেকে বাদ পড়তে থাকেন তিনি।[৬][৭] একসময় বড়পর্দায় উল্লেখযোগ্য কাজ না পাওয়ায় ছোটপর্দায় অভিনয় চালিয়ে যান এই অভিনেত্রী। সৌন্দর্য ও অভিনয় প্রতিভার মিশেল তার পেশাগত সাফল্যকে অটুট রাখতে সাহায্য করে।[৮] বাপ্পাদিত্য বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাঁটাতার (২০০৬) ছবিতে অভিনয় করে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর বিএফজেএ ও আনন্দলোক পুরস্কার অর্জন করেন তিনি।[৯] কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায় পরিচালিত উড়ো চিঠি (২০১১) ছবির জন্য শ্রেষ্ঠ সহ-অভিনেত্রী বিভাগে পেয়েছেন জি বাংলা গৌরব সম্মান। অণীক দত্ত পরিচালিত আশ্চর্য প্রদীপ (২০১৩) ছবির জন্য ফিল্মফেয়ার পুরস্কার ও জি বাংলা গৌরব সম্মানের মনোনয়ন লাভ করেন।[১০][১১] রীমা মুখোপাধ্যায়ের অর্ধাঙ্গিনী এক অর্ধসত্য (২০১৬) ছবির মাধ্যমে বলিউডে পা রাখেন তিনি।[১২]

কর্মজীবনসম্পাদনা

তাজ হোটেলে তিনি তখন কর্মরত। এক পরিচালক তখন একটি বাংলা ধারাবাহিকে একটি চরিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব দেন তাকে।[৬] এরপর বেশ কয়েকটি ধারাবাহিকে মুখ দেখানোর পরে আসে তৃষ্ণা (১৯৯৫) ধারাবাহিকে মানসী চরিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব। এই ধারাবাহিকে অভিনয় করে ধীরে ধীরে জনপ্রিয় হতে শুরু করেন তিনি।[৪] বাংলা ও ওড়িয়া চলচ্চিত্রে অভিনয়ের সুযোগ আসতে শুরু করে সেই সময়। ১৯৯৮ সালে বাসু চ্যাটার্জীর হঠাৎ বৃষ্টি ছবিতে অভিনয় করেন তিনি। এই ছবির দারুন সাফল্য বাংলা ছবির দর্শকের কাছে তার গ্রহনযোগ্যতাকে প্রসারিত করে। অভিনেত্রীর দাবি এই ছবির সাফল্যের পরেও বড়পর্দায় কোন উল্লেখযোগ্য কাজের প্রস্তাব তার কাছে আসেনি। তার দাবি প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের প্রেমপ্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ায় তিনি বাংলা ছবিতে নায়িকা চরিত্রে বঞ্চিত হন।[৬] ২০০৪ সালে প্রদীপ সরকারের পরিচালনায় আমির খানের বিপরীতে কোকা-কোলার একটি বিজ্ঞাপনে অভিনয় করেন শ্রীলেখা মিত্র।[১৩] প্রদীপ সরকার শ্রীলেখাকে তার পরিণীতা (২০০৫) ছবিতে একটি চরিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব দেন। সেই সময় অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার কারণে এই প্রস্তাব ফিরিয়ে দেন তিনি।[১৪] সৌকর্য ঘোষালের রেনবো জেলি (২০১৮) ছবিতে পরীপিসির চরিত্রে অভিনয় করেন তিনি।[১৫] ছবিতে তার অভিনয় প্রসংশিত হয়।[১৬][১৭]

পুরস্কার ও সম্মাননাসম্পাদনা

  • বিএফজেএ (২০০৭) পুরস্কার
  • কালাকার (২০০৬) পুরস্কার[১৮]

চলচ্চিত্রসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "ইন্ডাস্ট্রিকে তেল দিতে জন্মদিনে পার্টি করে পয়সা ওড়াতে পারব না: শ্রীলেখা"anandabazar.com। ২০২০-০৮-৩০। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৯-০১ 
  2. "Sreelekha Mitra shares how she battled depression"The Times of India (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২৯ আগস্ট ২০২০ 
  3. "এখনও তিনি বাঙালির ক্রাশ! আলগা শাড়িতে মোহময়ী অভিনেত্রী, দেখুন ছবি – dailyindia" (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  4. "শ্রীলেখা কারোর কাজ নিয়ে নেয় নি তো? স্বজনপোষণ বিতর্ক উস্কে দিলেন প্রিয়া কার্ফা"Zee24Ghanta.com। ২০২০-০৬-২১। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৮ 
  5. "Sreelekha Mitra's explosive video, actor alleges superstars control casting in Bengali industry"The Times of India (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৮ 
  6. বিশ্বাস, বিহঙ্গী। "'গডফাদার নেই, ন্যাকামোও করিনি, যাইনি বিছানাতেও, তাই প্রাপ্যও পাইনি কোনও দিন'"anandabazar.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৮ 
  7. Desk, Bengali (২০২০-০৬-২১)। "'প্রসেনজিৎ-ঋতুর প্রেমের জন্যই কাজ পাইনি, শ্রীলেখার এই মন্তব্যে মুখ খুললেন অশোক ধানুকা"Kolkata24x7 (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  8. Singh, Shalu (২০২০-০৬-২০)। "Actor Sreelekha Mitra claims superstars govern casting in Bengali film industry"www.indiatvnews.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৮ 
  9. "BFJA"www.bfjaawards.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  10. "Nominations for the 1st Vivel Filmfare Awards 2013 (East)"Filmfare (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  11. "I felt insulted and humiliated"www.telegraphindia.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  12. "Every actor's dream remains to be in a Tagore period flick once: Subrat Dutta"Indiablooms.com (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  13. "ইউটিউবে কোকা-কোলার বিজ্ঞাপনের ভিডিও" 
  14. "আমার চারপাশে সবসময় পুরুষ দরকার"anandabazar.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  15. ভট্টাচার্য, স্বরলিপি। "'রেনবো জেলি দেখে হয়তো ভাববেন আমি আবার জিততে পারি'"anandabazar.com। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  16. "'Rainbow Jelly' movie review: Worth watching, Sreelekha Mitra fulfils expectations"Sangbad Pratidin (ইংরেজি ভাষায়)। ২০১৮-০৫-২৫। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  17. বন্দ্যোপাধ্যায়, শুভদীপ (২০২০-০৬-২৭)। "রেনবো জেলি: ফুড ফ্যান্টাসি ও নস্টালজিয়ায় কাতর হওয়া"অলি গলি (ইংরেজি ভাষায়)। সংগ্রহের তারিখ ২০২০-০৮-২৯ 
  18. "Kalakar award winners" (PDF)। Kalakar website। ২৫ এপ্রিল ২০১২ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৬ অক্টোবর ২০১২ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা