শাহ আলম সরকার

বাউল শিল্পী

শাহ আলম সরকার গ্রাম-গঞ্জ শহর নির্বিশেষে বাউল শিল্পী হিসেবে একজন জীবন্ত কিংবদন্তী।

শাহ আলম সরকার
স্থানীয় নামশাহ আলম সরকার
জন্ম নামশাহ আলম
জন্ম১ ফেব্রুয়ারি, ১৯৬৫
ধরনবাউল গান
পেশাগীতিকার
সঙ্গীত শিল্পী
সুরকার
কার্যকাল১৯৬৫ - বর্তমান

প্রাথমিক জীবন ও শিক্ষাজীবনসম্পাদনা

শাহ আলম সরকারের জন্ম ১লা ফেব্রুয়ারি ১৯৬৫ ইং, বিক্রমপুরের লৌহজং উপজেলার কুড়িগাঁও গ্রামের এক সম্ভান্ত ও ঐতিহ্যবাহী সঙ্গীত পরিবারে। নানাবাড়ী হলদিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেন। প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীর পূর্বে জীবন যুদ্ধে জড়িয়ে পড়েন পারিবারিক প্রয়োজনে। ঢাকার সদরঘাটে ফুটপাতে গার্মেন্টস এক্সসরিজের ব্যবসা শুরু করেন।ইষ্টবেঙ্গল স্কুলে নাইট শিফটে ভর্তি হওয়ার পরে ও জীবন যুদ্ধের অনিবার্য কারণে লেখাপড়া আর হয়ে উঠেনি।

সঙ্গীত জীবনসম্পাদনা

তার দাদা গোলাম আলী বেপারী দরবারি সংগীতের সাথে খ্যাতিমান হিসেবে সম্পৃক্ত ছিলেন, বড় কাকা গোলাম মহিউদ্দিন বেপারী যিনি অসংখ্য গানের গীতিকার ও সুরকার হিসেবে প্রশংসিত। আরেক কাকা "আমিতো মরেই যাব"খ্যাত সাধক মরমী বাউলকবি আব্দুস সাত্তার মোহন্ত যার কাছে তার সংগীত জীবনের হাতে খড়ি। ফুফাজান আব্দুল করিম মুন্সী তিনি ও দরবারী সংগীতের শিল্পী হিসেবে সুপরিচিত। শাহ্ আলম সরকার আনুষ্ঠানিক ভাবে গানের দীক্ষা নেন বিখ্যাত পালাগান শিল্পী আবুল সরকারের কাছে। তিনি প্রায় আড়াই হাজার গানের রচয়িতা ও সুরকার।তাঁর প্রকাশিত গানের ক্যাসেট ও সিডির সংখ্যা সাড়ে ছয়শত এর অধিক। তিনি বাংলাদেশ বেতার ও টেলিভিশনের নিয়মিত শিল্পী।প্রায় শতাধিক চলচিত্রে তিনি গীতিকার হিসেবে কাজ করেছেন।তার কিছু উল্লেখযোগ্য গান হচ্ছেঃ

  • ফাইট্টা যায় বুকটা ফাইট্টা যায়-মমতাজ
  • মায়ের কান্দন যাবত জীবন-মমতাজ
  • আকাশটা কাঁপছিল ক্যান-মমতাজ
  • বান্ধিলাম পিরিতের ঘর-মমতাজ
  • খরকুটার এক বাসা বাঁধলাম-মনির খান
  • পাংচার হইয়া গেলে চলবেনা গাড়ী-মমতাজ
  • খায়রুন লো তোর লম্বা-মমতাজ
  • পাপী উম্মত কে কটিবে পার-আশিক

ইত্যাদি। তাঁর"আকাশটা কাঁপছিল ক্যান"গানটি ভারত বাংলাদেশ যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত গৌতম ঘোষের ‘মনের মানুষ’ ছবিতে অন্তর্ভুক্ত হয়ে ব্যাপক প্রশংসা অর্জন করে।

সংসারসম্পাদনা

ব্যক্তিগত জীবনে শাহ আলম সরকার বিবাহিত ও তিন সন্তানের জনক। শাহ মোহাম্মদ তিতুমীর আলম

সম্মাননাসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "13th Universal Sufi Fest held"Staff Correspondent (Engllish ভাষায়)। Dhaka। The Daily Observer। পৃষ্ঠা 11। 
  2. "রাহে ভান্ডারের ১৩ তম মহাত্মা সম্মেলনে বক্তারা"। Daily Azadi। ২০১৭-০৫-১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১৬-০৩-২৭ 
  3. "সম্মাননা"। Daily Prothom Alo। ২০১৭-০৫-১০ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২২ মার্চ ২০১৬ 

https://www.prothomalo.com/entertainment/article/1590879/%E0%A6%95%E0%A7%87%E0%A6%89-%E0%A6%A8%E0%A6%BF%E0%A6%B2%E0%A7%87%E0%A6%A8-%E0%A6%B0%E0%A7%81%E0%A6%A6%E0%A7%8D%E0%A6%A7%E0%A6%B6%E0%A7%8D%E0%A6%AC%E0%A6%BE%E0%A6%B8%E0%A7%87-%E0%A6%95%E0%A7%87%E0%A6%89-%E0%A6%AD%E0%A7%87%E0%A6%9C%E0%A6%BE-%E0%A6%9A%E0%A7%8B%E0%A6%96%E0%A7%87