বুদ্ধিজীবিতা-বিরুদ্ধবাদ

বুদ্ধিজীবিতা-বিরুদ্ধবাদ (ইংরেজি: Anti-intellectualism) হল বুদ্ধিবৃত্তি, বুদ্ধিজীবী ও বুদ্ধিজীবিতার প্রতি বিরোধিতা ও অনাস্থা পোষণ, যা সাধারণত শিক্ষা ও দর্শনের প্রতি অসমর্থন করা এবং শিল্প, সাহিত্য ও বিজ্ঞানকে অব্যবহারিক ও নিচুস্তরের মানব পেশা হিসেবে বাতিল করার মাধ্যমে ব্যক্ত হয় বা প্রকাশ পায়।[১] বুদ্ধিজীবিতা-বিরুদ্ধবাদীগণ নিজেদেরকে সাধারণ মানুষের মধ্যে সেরা এবং রাজনৈতিক ও একাডেমিক অভিজাত্যবাদের বিপরীতে নিজেদেরকে জনপ্রিয় বলে মনে করে এবং সেভাবে নিজেদেরকে উপস্থাপন করে, এবং শিক্ষিত জনগোষ্ঠীকে সিংহভাগ মানুষের সংস্পর্শ হতে বিচ্ছিন্ন একটি মর্যাদারক্ষাকারী শ্রেণী হিসেবে দেখে থাকে, এবং তারা অনুভব করে যে, বুদ্ধিজীবীরা রাজনীতিতে কর্তৃত্ব করে এবং উচ্চশিক্ষা নিয়ন্ত্রণ করে।[১]

Nast-intellect.png

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. A Handbook to Literature (1980), Fourth Edition, C. Hugh Holman, Ed. p. 27