"বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের কালপঞ্জি" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

ট্রাইব্যুনালের কার্যক্রম বহিঃর্ভূত অংশ অপসারন
(ট্রাইব্যুনালের কার্যক্রম বহিঃর্ভূত অংশ অপসারন)
}}</ref>
 
==২৭ জুলাই ২০১০==
{{importance-sect}}
;আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান বিচারপতি নিজামুল হক ও সদস্য এ টি এম ফজলে কবীরের নিয়োগ এবং দায়িত্ব পালনের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে দায়ের করা রিট আবেদন খারিজ
 
এর আগে ৪ জুলাই অ্যাডভোকেট নওয়াব আলী ও সাবেক সচিব এ এফ এম সোলাইমান চৌধুরী বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে এই রিট পিটিশনটি দায়ের করেন।<ref>{{cite news
|url=http://www.thaindian.com/newsportal/politics/dhaka-court-rejects-jamaat-challenge-to-war-tribunal-judges_100402530.html
|title=Dhaka court rejects Jamaat challenge to war tribunal judges)
|newspaper=The Indian
|date=July 27th, 2010}}</ref><ref>{{cite news
|url=http://www.indiavision.com/news/article/international/83808/
|newspaper=India Vision
|title=Dhaka court rejects Jamaat challenge to war tribunal judges
|date=Jul 27, 2010}}</ref> তারা ট্রাইব্যুনালের বেশ কিছু বিষয় চ্যালেঞ্জ করেন।<ref>{{cite news
|url=http://www.bdnews24.com/bangla/details.php?cid=2&id=132421&hb=2
|title= যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনাল সম্পর্কিত রিট খারিজ
|date=Jul 27th, 2010
|newspaper=bdnews24.com}}</ref><ref>{{cite news
|url=http://www.bdnews24.com/details.php?cid=2&id=169098&hb=1
|title=HC upholds tribunal chairman appointment
|date=Jul 27th, 2010
|newspaper=bdnews24.com}}</ref>সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগ যথাযথ কারন প্রদর্শন করে ঐ পিটিশনটি প্রাথমিক বিবেচনায় খারিজ করে দেয়।<ref>{{cite web
|url=http://icsforum.org/library/files/277_2010.pdf
|title=the source link of aforementioned Judgment delivered by Mr Justice Mamnoon Rahman and Lady Justice Syeda Afsar Jahan}}</ref>
<br />
 
==২৯ জুলাই ২০১০==
৩১৯টি

সম্পাদনা