"আল হুরুব" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

(স)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
(স)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
}}
 
'''আল হুরুব''' ({{lang-ar|الهروب|lit=পলায়ন}}) [[আতেফ আল-তাইয়েব]] (২৬ ডিসেম্বর ১৯৪৭ – ২৩ জুন ১৯৯৫) পরিচালিত একটি [[মিশর|মিশরীয়]] [[চলচ্চিত্র]]। কারাগার থেকে মুক্তি প্রাপ্ত মানসুরেরমুনতাসিরের প্রতিশোধ নেওয়া এবং পুলিশের হাতে ধরা পড়ার কাহিনী নিয়ে চলচ্চিত্রটি রচিত।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি |শেষাংশ=আল-তাইয়েব |প্রথমাংশ=আতেফ |শিরোনাম=El heroob |তারিখ=১৬ এপ্রিল ১৯৯১ |ইউআরএল=https://www.imdb.com/title/tt0095111/?ref_=fn_al_tt_1|ওয়েবসাইট=আইএমডিবি|সংগ্রহের-তারিখ=২৭ নভেম্বর ২০২১ |ভাষা=ইংরেজি}}</ref> আল হুরুব নব্বইয়ের দশকের মিশরীয় সিনেমার একটি আইকন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি |শিরোনাম=موسيقي الهروب Escape music |ইউআরএল=https://www.youtube.com/watch?v=qDgfASgayc4 |ভাষা=en |সংগ্রহের-তারিখ=২৭ নভেম্বর ২০২১}}</ref>
 
== প্রেক্ষাপট ==
মুনতাসির আবদেল গাফফার আল-বদরি (আহমেদ জাকি) আল-হাজের গ্রামের একজন যুবক। সে সোহাগের সাকিলাত সেন্টারের কাজ করে। মুনতাসিরের বাবা বাজপাখির সাহায্যে শিকার করতেন এবং এ জন্য তিনি মাসের পর মাস মরুভূমিতে কাটাতেন। মুনতাসের তার বাবার কাজের প্রতি অনুরাগী ছিলেন এবং এই সত্যের দ্বারা প্রভাবিত হয়েছিলেন যে বাজপাখি সবার উপরে উড়ে যায় এবং কেবল শিকারের জন্য নিচে আসে। তাই মুনতাসের তার বাবার পেশা গ্রহণ করেনি। তার মা তার স্বামীর মৃত্যুর পরে সমস্ত শিকারের সরঞ্জাম পুড়িয়ে দিয়েছিল, যাতে মুনতাসির এগুলো না পায়। তার মা তার বড় ছেলে আবদুল্লাহর জন্য বেশি গর্বিত ছিলেন, যে তার আদেশ মতো তাকে জমি চাষ করতে সাহায্য করত।
 
== কুশীলব ==