"রাজশাহী রেশম" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

"Rajshahi silk" পাতাটির "History" অনুচ্ছেদ অনুবাদ করে যোগ করা হয়েছে
(±)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা উচ্চতর মোবাইল সম্পাদনা
("Rajshahi silk" পাতাটির "History" অনুচ্ছেদ অনুবাদ করে যোগ করা হয়েছে)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা বিষয়বস্তুঅনুবাদ উচ্চতর মোবাইল সম্পাদনা অনুচ্ছেদঅনুবাদ
চিত্র:Rajshahi silk fabric, Sopura Silk Mills Ltd (01).jpg|রাজশাহী সিল্ক কাপড়
</Gallery>
 
== ইতিহাস ==
রেকর্ড অনুযায়ী ত্রয়োদশ শতাব্দীতে এই অঞ্চলে রেশম উৎপাদনের সূচনা হয়। এটি তখন বেঙ্গল সিল্ক বা গঙ্গার রেশম নামে পরিচিত ছিল। ১৯৫২ সালে পাকিস্তান সরকার রাজশাহীতে রেশম উৎপাদন শুরু করে। রাজশাহী সিল্ক কারখানা একটি রাষ্ট্রায়ত্ত কারখানা যা ১৯৬১ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল।১৯৭৮ সালে এটি [[বাংলাদেশ রেশম উন্নয়ন বোর্ড|বাংলাদেশ সেরিকালচার ডেভলপমেন্ট বোর্ডের]] হাতে হস্তান্তরিত হয়।তার পর থেকে এটি ক্ষতির বোঝা বয়ে চলেছিলো।এটি ৩০ নভেম্বর ২০০২ এ বন্ধ করে দেওয়া হয়। এই কারখানাটি দ্বারা ২০০২৩০০ টন রেশম উৎপাদিত হয়েছিল।২০১১ সালে এটি ছিল মাত্র ৫০ টন। ২০১১ সালে বাংলাদেশের [[আবুল মাল আবদুল মুহিত|অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত]], রাজশাহী রেশম কারখানাটি আবার চালু করার বিষয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন কিন্তু বেসরকারীকরণ কমিশন এই কাজটিকে উদ্বেগজনক বলে অস্বীকার করেছিল।
 
২০২১ সালে, এটি বাংলাদেশের [[ভৌগোলিক নির্দেশক]] পণ্য হিসেবে সীক সীক
 
== তথ্যসূত্র ==
 
{{সূত্র তালিকা}}