"আরাশ" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

বানান সংশোধন (By FindAndReplace)
(আফগানিস্থান > আফগানিস্তান (By FindAndReplace))
(বানান সংশোধন (By FindAndReplace))
আরাশ শৈশবে ইয়ারন হতে সুইডেনে স্থানান্তরিত হলেও সে তার মাতৃভাষা [[ফার্সি ভাষা|ফার্সি ভাষায়]] গান করেন। এর কারণ ব্যাখ্যা করতে গিয়ে তিনি বলেছেন যে, ইরান ও ফার্সি সংস্কৃতির প্রতি তার গভীর ভালবাসা ও শ্রদ্ধার কারণেই তিনি এখনো ফার্সিতে গান করেন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.rferl.org/Content/Article/1058593.html|প্রকাশক=RFE/RL|শিরোনাম= Iran: Arash Tops European Pop Charts With Persian-Language Hits|সংগ্রহের-তারিখ=2009-02-07|তারিখ=2005-04-21}}</ref>
 
তার প্রথম অ্যালবাম আরাশ ২০০৫ এর জুনে [[ওয়ার্নার মিউজিক সুইডেন]] কর্তৃক প্রকাশিত হয়। তখন তিনি মাত্র কলেজ পাশ করেছেন। তার একক সঙ্গীত “বোরো বোরো” এবং “টেম্পটেশন” [[ইউরোপ|ইউরোপব্যাপী]] দারুণ অনপ্রিয় হয়। এছাড়া গান দুইটির মিউজিক ভিডিও ইউরোপের বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে এবং এমটিভির ২০টিরও অধিক পৃথিবীব্যাপী আউটলেটে প্রচারিত হয়। তার নিজের দেশ, ইরান ও সুইডেন ছাড়াও আরাশের সঙ্গীত পূর্ব ইউরোপ ও দক্ষিণ-পূর্ব ইউরোপের বিভিন্ন দেশ যেমন- রাশিয়া, ইউক্রেইন, গ্রিস, বুলগেরিয়া, পোল্যান্ড, হাঙ্গেরী, জর্জিয়া, আজারবাইজান, সার্বিয়া, স্লোভাকিয়া, রোমানিয়া, তুরস্ক এবং এশিয়ার তাজিকিস্তান, কাজাখস্থানকাজাখস্তান, আফগানিস্তান, উজবেকিস্তানসহ মধ্যপ্রাচ্যের আরব দেশসমূহে ব্যাপক সাফল্য অর্জন করেন।
 
পোল্যান্ডে আরাশ অত্যধিক জনপ্রিয়।তার আরেকটি গান হলো "broken angel" যা অধিক জনপ্রিয় একটি গান।এছাড়াও তার “বোরো বোরো” ভারতের [[বলিউড]] চলচ্চিত্রে ব্যবহৃত হয়েছে। ঐ মাসে এমটিভি ইন্ডিয়া আরাশকে মাসের সেরা শিল্পী পদক দেয়। পাঁচটি দেশের মিউজিক চার্ট তার আরাশ অ্যালবামকে গোল্ড সনদপত্রে ভূষিত করেছে: রাশিয়া, স্লোভেনিয়া, জার্মানি, গ্রিস এবং সুইডেন।<ref>http://www.eurovision.tv/event/artistdetail?song=24728&event=1482</ref> প্রায় ৩৫টি দেশের এমটিভি চ্যানেলে আরাশের মিউজিক ভিডিও প্রচারিত হয়েছে।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.youtube.com/watch?v=W8utdGOsK_k |প্রকাশক=YouTube |শিরোনাম=The Persian Prince of Pop ARASH |সংগ্রহের-তারিখ=2010-04-10 |তারিখ=2009-11-30}}</ref>