"নদীর নাম মধুমতী" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

বানান (By FindAndReplace)
(বিষয়শ্রেণী যোগ)
(বানান (By FindAndReplace))
 
| রচয়িতা = তানভীর মোকাম্মেল
| চিত্রনাট্যকার =
| কাহিনীকারকাহিনিকার =
| শ্রেষ্ঠাংশে = {{plainlist|
* [[তৌকীর আহমেদ]]
'''''নদীর নাম মধুমতী''''' ১৯৯৫ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত [[বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধ]]ভিত্তিক চলচ্চিত্র। ছবিটির রচনা ও পরিচালনা করেছেন [[তানভীর মোকাম্মেল]]।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি |প্রথমাংশ=নাইস |শেষাংশ=নূর |ইউআরএল=http://www.ntvbd.com/arts-and-literature/31754//print |শিরোনাম=সাক্ষাৎকার : আমার কাজ হচ্ছে সত্যকে তুলে ধরা : তানভীর মোকাম্মেল |কর্ম=এনটিভি অনলাইন |তারিখ=১৬ ডিসেম্বর ২০১৫ |সংগ্রহের-তারিখ=২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ |আর্কাইভের-ইউআরএল=https://web.archive.org/web/20170805055655/http://www.ntvbd.com/arts-and-literature/31754/print |আর্কাইভের-তারিখ=৫ আগস্ট ২০১৭ |অকার্যকর-ইউআরএল=হ্যাঁ }}</ref> নূর আলী নিবেদিত চলচ্চিত্রটি প্রযোজনা ও পরিবেশনা করেছে কিনো-আই ফিল্মস। এতে প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন [[তৌকীর আহমেদ]], [[আলী যাকের]], [[রাইসুল ইসলাম আসাদ]], [[সারা জাকের]], [[আফসানা মিমি]] প্রমুখ।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি |ইউআরএল=http://saatdin.com/Details/4023 |শিরোনাম=মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচ্চিত্র নদীর নাম মধুমতি |কর্ম=সাতদিন |সংগ্রহের-তারিখ=২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৭}}</ref><ref>{{সংবাদ উদ্ধৃতি |ইউআরএল=http://www.ittefaq.com.bd/print-edition/entertainment/2015/08/15/66323.html |শিরোনাম=নদীর নাম মধুমতি |কর্ম=[[দৈনিক ইত্তেফাক]] |তারিখ=১৫ আগস্ট ২০১৫ |সংগ্রহের-তারিখ=২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৭}}</ref>
 
চলচ্চিত্রটি কাহিনীকাহিনি ও সংলাপ রচনার জন্য [[তানভীর মোকাম্মেল]] [[বাংলাদেশ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ কাহিনীকারকাহিনিকার|শ্রেষ্ঠ কাহিনীকারকাহিনিকার]] ও [[বাংলাদেশ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ সংলাপ রচয়িতা|শ্রেষ্ঠ সংলাপ রচয়িতা]] বিভাগে এবং [[সাইদুর রহমান বয়াতি]] [[বাংলাদেশ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ পুরুষ কণ্ঠশিল্পী|শ্রেষ্ঠ পুরুষ কণ্ঠশিল্পী]] বিভাগে [[জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার (বাংলাদেশ)|জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার]] অর্জন করেন।
 
==কাহিনীকাহিনি সংক্ষেপ==
মধুমতী নদীর পাড়ের এক গ্রামে মোতালেব মোল্লা নামের এক জমিদার ও স্থানীয় মুসলিম নেতা। মোতালেব তার বড় ভাইয়ের মৃত্যুর পর তার ভাইয়ের স্ত্রীকে বিয়ে করে। সেই স্ত্রীর এক সন্তান ছিল, নাম বাচ্চু। গ্রামের শিক্ষক অমূল্য চক্রবর্তীর প্রভাব তার মধ্যে ছিল। সে গ্রামে স্কুল স্থাপনের লক্ষ্যে কাজ করে। তার কাজে সহয়তা করত তার থেকে বয়সে বড় কিন্তু বন্ধুভাবাপন্ন আখতার। তার দুজন মিলে অমূল্যের বাড়িতে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করত। অমূল্য চক্রবর্তীর মেয়ে শান্তি বিধবা হওয়ার পর বাবার বাড়িতেই থাকে।
 
'''[[জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার (বাংলাদেশ)|জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার]]'''
{{মূল নিবন্ধ|২০তম জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার (বাংলাদেশ)}}
* '''বিজয়ী:''' [[বাংলাদেশ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ কাহিনীকারকাহিনিকার|শ্রেষ্ঠ কাহিনীকারকাহিনিকার]] - [[তানভীর মোকাম্মেল]]
* '''বিজয়ী:''' [[বাংলাদেশ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ সংলাপ রচয়িতা|শ্রেষ্ঠ সংলাপ রচয়িতা]] - [[তানভীর মোকাম্মেল]]
* '''বিজয়ী:''' [[বাংলাদেশ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার শ্রেষ্ঠ পুরুষ কণ্ঠশিল্পী|শ্রেষ্ঠ পুরুষ কণ্ঠশিল্পী]] - [[সাইদুর রহমান বয়াতি]]