"শাহ আহমদ শফী" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

→‎মৃত্যু: রচনাশৈলী
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা উচ্চতর মোবাইল সম্পাদনা
(→‎মৃত্যু: রচনাশৈলী)
১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ সালে ১০৩ বছর বয়সে শাহ আহমদ শফী বার্ধক্যজনিত কারণে ঢাকার আজগর আলী হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। তিনি দীর্ঘদিন যাবৎ বার্ধক্যজনিত দুর্বলতার পাশাপাশি ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ ও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.kalerkantho.com/online/national/2020/09/18/956765|শিরোনাম=আল্লামা শফী আর নেই |ওয়েবসাইট=কালের কণ্ঠ|সংগ্রহের-তারিখ=2020-09-18}}</ref>
[[চিত্র:আল্লামা আহমদ শফি হুজুরের জানাজার নামাজ.jpg|থাম্ব|শাহ আহমদ শফীর জানাযার একাংশ, মাদ্রাসার দক্ষিণ পাশের চট্টগ্রাম-খাগড়াছড়ি রোডের ক্ষুদ্রাংশ]]
পরদিন হাটহাজারী মাদ্রাসায় তার জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। জানাযায় ইমামতি করেন তার বড় ছেলে ইউছুফ মাদানি। স্থান সংকুলান না হওয়ায় তার লাশ ডাকবাংলোতে নিয়ে আসা হয়। পুরো হাটহাজারীর সব প্রবেশ পথে সব ধরনের যান চলাচল বন্ধ করে দিতে প্রশাসন বাধ্য হয়। ৪ উপজেলায় ১০ প্লাটুন বিজিবি,র‌্যাব ও পুলিশ এবং ৭ জন ম্যাজিস্ট্রেট মোতায়েন করা হয়। জানাযা শেষে তাকে হাটহাজারী মাদ্রাসা ক্যাম্পাসের অভ্যন্তরে বায়তুল আতিক জামে মসজিদের সামনের কবরস্থানে দাফন করা হয়। মিডিয়াগণমাধ্যম এটিকে বাংলাদেশের স্মরণকালের সর্ববৃহৎ জানাযা বলে অবহিত করে।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.jugantor.com/national/346399/আল্লামা-আহমদ-শফীর-জানাজা-সম্পন্ন-লাখো-মানুষের-ঢল|শিরোনাম=আল্লামা আহমদ শফীর জানাজা সম্পন্ন, লাখো মানুষের ঢল|ওয়েবসাইট=Jugantor|সংগ্রহের-তারিখ=2020-09-19}}</ref><ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.banglanews24.com/daily-chittagong/news/bd/812679.details|শিরোনাম=হাটহাজারী মাদ্রাসায় চিরনিদ্রায় শায়িত আল্লামা আহমদ শফী|ওয়েবসাইট=banglanews24.com|ভাষা=bn|সংগ্রহের-তারিখ=2020-09-19}}</ref>
 
২০২০ সালের ৮ নভেম্বর [[জাতীয় সংসদ|জাতীয় সংসদের]] বিশেষ অধিবেশনে তার একটি শোক প্রস্তাব গৃহীত হয়।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.jugantor.com/national/362707/আল্লামা-শফীর-মৃত্যুতে-সংসদের-বিশেষ-অধিবেশনে-শোক-প্রস্তাব|শিরোনাম=আল্লামা শফীর মৃত্যুতে সংসদের বিশেষ অধিবেশনে শোক প্রস্তাব|শেষাংশ=|প্রথমাংশ=|তারিখ=|ওয়েবসাইট=যুগান্তর|ভাষা=bn|সংগ্রহের-তারিখ=2020-11-09}}</ref>