"মোদিবো কেইতা" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

 
== মালির রাষ্ট্রপতিরূপে জীবন ==
১৯৬০ সালে ফেডারেশন ভেঙে যাওয়ার পরে ইউএস-আরডিএ মালি প্রজাতন্ত্র হিসাবে সম্পূর্ণ স্বাধীনতার ঘোষণা দেয়। কেইতা মালি প্রজাতন্ত্রের প্রথম রাষ্ট্রপতি হন এবং এরপরেই ইউএস-আরডিএকে দেশের একমাত্র আইনী দল হিসাবে ঘোষণা করেন।
সমাজতান্ত্রিক হিসাবে তিনি তার দেশকে অর্থনীতির প্রগতিশীল সামাজিকীকরণের দিকে নিয়ে গিয়েছিলেন। প্রথমে কৃষি ও বাণিজ্য দিয়ে শুরু করে ১৯৬০ সালের অক্টোবরে সোমিরেক্স (মালিয়ান আমদানি ও রফতানি সংস্থা) তৈরি করা হয়েছিল, যাদের মালির পণ্য আমদানি ও রফতানির উপর একচেটিয়া অধিকার ছিল। এমনকি খাদ্যপণ্য আমদানিতে (যেমন চিনি, চা, গুঁড়ো) দুধ) এবং দেশের মধ্যে তাদের বিতরণেও তাদের মুখ্য ভূমিকা ছিল। ১৯৬২ সালে ম্যালিয়ান ফ্র্যাঙ্ক প্রতিষ্ঠা হয়, রেশনিং এবং গণবন্টন ব্যাবস্থার অব্যবস্থার ফলে দেশে মারাত্মক মুদ্রাস্ফীতি হয় এবং জনগণের বিশেষত কৃষক এবং ব্যবসায়ীদের মধ্যে অসন্তুষ্টি ঘটে।
===অন্যান্য দেশের স্বীকৃতি===
১৯৭১ সালের জুনে তিনি যুক্তরাজ্যে একটি রাষ্ট্রীয় সফর করেছিলেন, যেখানে রানী [[দ্বিতীয় এলিজাবেথ]] তাকে নাইট গ্র্যান্ড ক্রস অফ দ্য অর্ডার অফ সেন্ট মাইকেল এবং সেন্ট জর্জ উপাধিতে ভূষিত করেন। তার সমাজতান্ত্রিক দৃষ্টিভঙ্গির কারণে আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র কিছুটা সতর্কতার সাথে দেখেছিল, তবে তিনি স্পষ্ট করে দিয়েছিলেন যে তিনি ওয়াশিংটনের সাথে সুসম্পর্ক চেয়েছিলেন। ১৯৬১ সালের সেপ্টেম্বরে তিনি [[সুকর্ণ]]র সাথে আমেরিকা যান এবং রাষ্ট্রপতি [[জন এফ কেনেডি]]র সাথে সাক্ষাত করেন।
 
== Notes ==