"হিন্দু" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

বানান, linking
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা উচ্চতর মোবাইল সম্পাদনা
(বানান, linking)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
{{Hinduism}}
'''হিন্দু''' ({{Audio|hi-Hindu.ogg|pronunciation}}) দিয়ে একটি ধর্মীয় অথবা একটি সংস্কৃতির পরিচয় <ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|শিরোনাম=Answer by Ram Madhav to Sr. Owaisi|ইউআরএল=https://www.youtube.com/watch?v=a8lsU1_tkXk|ওয়েবসাইট=www.youtube.com|প্রকাশক=You Tube|সংগ্রহের-তারিখ=21 February 2015}}</ref> বোঝানো হয় যা [[ভারতীয় উপমহাদেশ|ভারতীয় উপমহাদেশের]] নিজস্ব দর্শনগত, ধর্মীয় এবং সংস্কৃতির সাথে জড়িত<ref>http://www.freedictionary.com/Hinduism</ref>। বর্তমানে সাধারণভাবে হিন্দু শব্দ দিয়ে [[হিন্দুধর্ম|হিন্দুধর্মকে]] বোঝানো হয়। যদিও ভুৎপত্তিগতভাবে হিন্দু শব্দটি দ্বারা সিন্ধু নদের অববাহিকায় বসবাসরত সকলকে বোঝানো হয়। [[ভারতীয় সংবিধান|ভারতের সংবিধানে]] "হিন্দু" শব্দটি ব্যবহার করে যে কোন ভারতীয় ধর্ম বিশ্বাসীকে ([[হিন্দুধর্ম]], [[জৈনধর্ম]], [[বৌদ্ধধর্ম]] বা [[শিখধর্ম]]) নির্দেশ করা হয়েছে।<ref>[http://www.unesco.org/most/rr3indi.htm India-Constitution:Religious rights] Article 25:''"Explanation II: In sub-Clause (b) of clause (2), the reference to Hindus shall be construed as including a reference to persons professing the Sikh, Jaina or Buddhist religion"''</ref> হিন্দু এবং হিন্দি শব্দ দুটিকে সংস্কৃতির পরিচায়ক হিসেবে নির্দেশ করা হয়েছে সেই সকল লোকের জন্য যারা সিন্ধু নদের পাশে বসবাস করছেন। এইভাবে কবি যেমনঃ [[মুহাম্মদ ইকবাল|ইকবাল]], মন্ত্রী যেমনঃ এম.সি.চাগলা এবং আরএসএসের মত প্রতিষ্ঠান হিন্দু এবং হিন্দি শব্দ দুটিকে ব্যবহার করেছেন সিন্ধু নদের পাড়ে বসবাসরত মানুষদেরকে বোঝাতে তা সেই যে কোন ধর্মের হোক না কেন।<ref>{{বই উদ্ধৃতি|শেষাংশ১=Chagla|প্রথমাংশ১=Mahommedali Currim|শিরোনাম=Roses in December|তারিখ=2012|প্রকাশক=Bharatiya Vidya Bhavan|অবস্থান=Mumbai|আইএসবিএন=8172764472|সংস্করণ=1st|ইউআরএল=http://www.amazon.co.uk/Roses-December-Autobiography-M-Chagla/dp/8172764472|সংগ্রহের-তারিখ=21 February 2015}}</ref>
বুৎপত্তিগতভাবে হিন্দু শব্দটি দ্বারা সিন্ধু নদের অববাহিকায় বসবাসরত সকলকে বোঝানো হয়। [[ভারতীয় সংবিধান|ভারতের সংবিধানে]] "হিন্দু" শব্দটি ব্যবহার করে যে কোন ভারতীয় ধর্মবিশ্বাসীকে ([[হিন্দুধর্ম]], [[জৈনধর্ম]], [[বৌদ্ধধর্ম]] বা [[শিখধর্ম]]) নির্দেশ করা হয়েছে।<ref>[http://www.unesco.org/most/rr3indi.htm India-Constitution:Religious rights] Article 25:''"Explanation II: In sub-Clause (b) of clause (2), the reference to Hindus shall be construed as including a reference to persons professing the Sikh, Jaina or Buddhist religion"''</ref> হিন্দু এবং হিন্দি শব্দ দুটিকে সংস্কৃতির পরিচায়ক হিসেবে নির্দেশ করা হয়েছে সেই সকল লোকের জন্য যারা সিন্ধু নদের পাশে বসবাস করছেন। এইভাবে কবি যেমনঃ [[মুহাম্মদ ইকবাল|ইকবাল]], মন্ত্রী যেমনঃ এম.সি.চাগলা এবং আরএসএসের মত প্রতিষ্ঠান হিন্দু এবং হিন্দি শব্দ দুটিকে ব্যবহার করেছেন সিন্ধু নদের পাড়ে বসবাসরত মানুষদেরকে বোঝাতে তা সেই যে কোন ধর্মের হোক না কেন।<ref>{{বই উদ্ধৃতি|শেষাংশ১=Chagla|প্রথমাংশ১=Mahommedali Currim|শিরোনাম=Roses in December|তারিখ=2012|প্রকাশক=Bharatiya Vidya Bhavan|অবস্থান=Mumbai|আইএসবিএন=8172764472|সংস্করণ=1st|ইউআরএল=http://www.amazon.co.uk/Roses-December-Autobiography-M-Chagla/dp/8172764472|সংগ্রহের-তারিখ=21 February 2015}}</ref>
 
হিন্দু শব্দটি এসেছে (পার্সিয়ান হয়ে) সংস্কৃত শব্দ সিন্ধু (ঐতিহাসিক স্থানীয় সিন্ধু নদী বা ইন্ডাস্ রিভার) থেকে। এর অবস্থান ছিল ভারতীয় উপমহাদেশের উত্তরপশ্চিম অংশে (বর্তমানে [[পাকিস্তান]] এবং উত্তর ভারতের অংশে)।<ref name="Flood 1996">{{বই উদ্ধৃতি |শেষাংশ=Flood |প্রথমাংশ=Gavin D. |শিরোনাম=An Introduction to Hinduism |প্রকাশক=Cambridge University Press |বছর=1996 |আইএসবিএন=0521438780 |পাতা=6}}</ref>{{Efn|The word ''Sindhu'' is first mentioned in the [[Rigveda]].<ref>"India", ''Oxford English Dictionary'', second edition, 2100a.d. Oxford University Press.</ref><ref>[http://www.sacred-texts.com/hin/rigveda/rv10075.htm Rig Veda]</ref><ref>{{বই উদ্ধৃতি|শেষাংশ=Subramuniyaswami|প্রথমাংশ=Satguru Sivaya|শিরোনাম=Dancing With Siva: Hinduism's Contemporary Catechism|বছর=2003|প্রকাশক=Himalayan Academy Publications|আইএসবিএন=9780945497967|পাতা=1008|ইউআরএল=http://books.google.com/?id=EWlHPAkjBKUC&pg=PA782&dq=from+the+Sanskrit+word+Sindhu+radhakrishnan#v=onepage&q=from%20the%20Sanskrit%20word%20Sindhu%20radhakrishnan&f=false}}</ref>{{Relevance-inline|date=January 2014}}}} গেবিন ফ্লাডের মতে, "আসল পরিভাষা হিন্দু প্রথম দেওয়া হয় পার্সিয়ান ভৌগোলিক পরিভাষা থেকে যা দ্বারা সিন্ধু নদীর পাশে বসবাসকারী লোকেদের বোঝানো হত<ref name="Flood 1996"/>। শব্দটি দিয়ে তখন ভৌগোলিক অবস্থান বোঝানো হত এবং এর দ্বারা কোন ধর্মকে বোঝানো হত না।{{Efn|Gavin Flood adds: "In Arabic texts, Al-Hind is a term used for the people of modern-day India and 'Hindu', or 'Hindoo', was used towards the end of the eighteenth century by the British to refer to the people of 'Hindustan', the people of northwest India. Eventually 'Hindu' became virtually equivalent to an 'Indian' who was not a Muslim, Sikh, Jain or Christian, thereby encompassing a range of religious beliefs and practices. The '-ism' was added to Hindu in around 1830 to denote the culture and religion of the high-caste Brahmans in contrast to other religions, and the term was soon appropriated by Indians themselves in the context of building a national identity opposed to colonialism, though the term 'Hindu' was used in Sanskrit and Bengali hagiographic texts in contrast to 'Yavana' or Muslim as early as the sixteenth century".<ref name="Flood 1996"/>}}
হিন্দু শব্দটি পরবর্তীতে মাঝে মাঝে ব্যবহার করা হয়েছিল কিছু সংস্কৃত লেখায় যেমন কাশ্মীরের [[রাজাতরঙ্গিনিসে]] (হিন্দুকা সি. ১৪৫০)। বিভিন্ন কবিরা হিন্দু ধর্মকে আলাদা করে ইসলাম ধর্ম (turaka dharma) থেকে ব্যাখ্যা করেছেন যেমন বিদ্যাপতি, কবির এব একনাথ<ref name=Lorenzen>
{{সাময়িকী উদ্ধৃতি |প্রথমাংশ=David N. |শেষাংশ=Lorenzen |শিরোনাম=Who Invented Hinduism? |সাময়িকী=Comparative Studies in Society and History |খণ্ড=41 |নম্বর=4 |তারিখ=October 1999 |পাতাসমূহ=630–659 |jstor=179424}}
</ref>। ১৬শ থেকে ১৮শ শতাব্দিতেশতাব্দীতে বাংলা গৌড়িয়গৌড়ীয় বৈষ্ণব লেখায় যাতে চৈতন্য চরণামৃতচৈতন্যচরিতামৃত এবং চৈতন্য ভগবতেওচৈতন্যভাগবতেও একই ধরনের তুলনা করা হয়।<ref>{{সংবাদ উদ্ধৃতি|শিরোনাম=The Word 'Hindu' in Gauḍīya Vaiṣṇava Texts| লেখক = O'Conell, Joseph T.| সাময়িকী= Journal of the American Oriental Society| খণ্ড= 93| নম্বর =3 | বছর =1973| পাতাসমূহ=340–344}}</ref> ১৮শ শতাব্দিরশতাব্দীর শেষের দিকে, ইউরোপীয় ব্যবসায়ী ও ঔপনিবেশিকরা ভারতীয় ধর্মের অনুসারীদেরকে একত্রে (একক কোন ধর্মকে নয়) হিন্দাস হিসেবে নির্দেশ করে। ঊনবিংশ শতাব্দিতেশতাব্দীতে Hinduism বা হিন্দুধর্ম শব্দটি ইংরেজি ভাষায় সূচিত হয় ভারতীয়দের ধর্ম বিশ্বাস, দর্শন এবং সংস্কৃতিকে বোঝানোর জন্য।
২০১০ সালের হিসাব অনুযায়ী অনুসারীর দিক থেকে খ্রিষ্টধর্ম ও ইসলামের পর হিন্দুধর্ম পৃথিবীর তৃতীয় বৃহত্তম ধর্ম।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি |ইউআরএল=http://www.pewforum.org/global-religious-landscape-exec.aspx |শিরোনাম=The Global Religious Landscape |তারিখ=18 December 2012 |কর্ম=[[পিউ রিসার্চ সেন্টার]] |ভাষা=en }}</ref> সবচেয়ে বেশি পরিমাণ হিন্দু ধর্ম অনুসারী বাস করে ভারতে যা প্রায় ১.০৩ বিলিয়ন<ref>[https://www.cia.gov/library/publications/the-world-factbook/geos/in.html CIA World Factbook - India Demographics] 85.5% of 1.166 billion Indians are Hindus</ref>। অন্যান্য দেশেও হিন্দু ধর্ম অনুসারীহিন্দুধর্মানুসারী রয়েছে যেমন [[নেপাল]], [[বাংলাদেশ]],[[চীন]],[[মালয়েশিয়া]],[[আর্জেন্টিনা]],[[ব্রাজিল]], [[পর্তুগাল]], [[কানাডা]],[[ওমান]], [[সংযুক্ত আরবআমিরাতআরব আমিরাত]], [[অস্ট্রেলিয়া]],[[নিউজিল্যান্ড]],[[জার্মানি]], [[কোরিয়া]], [[নেদারল্যান্ড]],[[পাকিস্তান]], [[আফগানিস্তান]],[[মালদ্বীপ]], [[শ্রীলঙ্কা]], [[যুক্তরাষ্ট্র]], [[সিঙ্গাপুর]], [[কানাডা]], ইন্দোনেশিয়ার বালি দ্বীপেদ্বীপ, [[ফিজি]], [[ত্রিনিদাদ এবং টোবাগো]], [[যুক্তরাজ্য]] সহ প্রায় পৃথিবীর অনেক দেশে হিন্দুধর্মাবলম্বীরা বসবাস করেন।
 
==আরো দেখুন==