"হামিদুজ্জামান ভাস্কর্য পার্ক" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

 
বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের গণহত্যার স্মরণে উদ্যানটির রয়েছে একটি ভাস্কর্য। এতে একটি রিকশায় একজন রিকশাচালক ও যাত্রীর প্রাণ বিসর্জনের দৃশ্য ধারণ করা হয়েছে ধাতব আকৃতিতে। একটি ভাস্কর্যে প্রস্ফূটিত হয়েছে ল্যাম্পপোস্টের আলোয় পাঠরত মানব প্রতিকৃতি। পৃথিবীর গতিময়তা নির্দেশ করে তিনটি চাকার সম্মিলনে নির্মিত হয়েছে একটি ভাস্কর্য। কিছু ভাস্কর্য পাথর দিয়ে তৈরি করা হয়েছে বসার বেঞ্জ হিসেবে। ''লাইফ এন্ড লাইফলেস'' নামের একটি ভাস্কর্যে চাকা ও পাখির বিমূর্ত অবয়ব প্রকাশ পেয়েছে।
ভাস্কর্য উদ্যানটিতে ভাস্কর্য ছাড়াও ইনস্টলেশন বা স্থাপনা-শিল্প ও চিত্রশিল্প রয়েছে। একটি স্থাপনা-শিল্প পাখির বিমূর্ত অবয়বে তৈরি এবং তা বিদ্যুতের খুটিতে স্থাপিত। অন্যান্য স্থাপনা-শিল্পের মধ্যে রয়েছে ''দ্য সিড'' এবং ''হুইল অফ সিভিলাইজেশন''। উদ্যানের ভেতরে অবস্থিত একটি একতলা দালানে রয়েছে হামিদুজ্জামান খানের আঁকা চিত্রকর্ম। দালানটির একটি দেয়ালে ''সিগনাগ'' নামে একটি ধাতব ভাস্কর্য স্থাপিত হয়েছে। এটির বিষয়বস্ত প্রাচীন ভাষা ও ভাষাগত বৈচিত্র্য। এছাড়া উদ্যানের অভ্যন্তরে পুকুরেও ভাস্কর্য স্থাপনের জন্য হামিদুজ্জামান কাজ করছেন।<ref name=DS>{{Cite news |date=2020-02-20 |title=Summit’s ‘Hamiduzzaman Sculpture Park’ in the making |url=https://www.thedailystar.net/arts-entertainment/news/summits-hamiduzzaman-sculpture-park-the-making-1862194 |work=[[দ্য ডেইলি স্টার]] |access-date=2020-04-11}}</ref>
 
==গ্যালারি==
<gallery>
Sculpture Life & The Lifeless 2019.jpg|''লাইফ এন্ড লাইফলেস'' শীর্ষক ভাস্কর্য
Longest Mural in Bangladesh 2019.jpg| ''শ্রম ও সৃষ্টি'' শীর্ষক ম্যুরাল
</gallery>
 
==References==