লুৎফুজ্জামান বাবর: সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

নেত্রকোণা বানান
সম্পাদনা সারাংশ নেই
(নেত্রকোণা বানান)
| image = Babar 2012.jpg
| caption = লুৎফুজ্জামান বাবর
| office = [[নেত্রকোনানেত্রকোণা-৪]] আসনের [[সংসদ সদস্য]]
| term_start = ফেব্রুয়ারি ১৯৯৬
| term_end = ফেব্রুয়ারি ১৯৯৬
| birth_date = ১০ অক্টোবর ১৯৫৮
| birth_place = [[নেত্রকোনানেত্রকোণা]], [[বাংলাদেশ]]
| spouse = তাহমিনা জামান শ্রাবণী
| children =
 
== জন্ম ও প্রাথমিক জীবন ==
লুৎফুজ্জামান বাবর ১০ অক্টোবর ১৯৫৮ সালে জন্মগ্রহণ করেন।<ref name=":1">{{সংবাদ উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.bbc.com/bengali/news-45808190|শিরোনাম=জন্মদিনে মৃত্যুদণ্ডে দণ্ডিত হলেন লুৎফুজ্জামান বাবর|শেষাংশ=|প্রথমাংশ=|তারিখ=2018-10-10|কর্ম=BBC News বাংলা|সংগ্রহের-তারিখ=2020-02-20|আর্কাইভের-ইউআরএল=|আর্কাইভের-তারিখ=|ইউআরএল-অবস্থা=কার্যকর|ভাষা=bn}}</ref> তিনি [[নেত্রকোনানেত্রকোণা জেলা|নেত্রকোনানেত্রকোণা]] থেকে উঠে আসেন। তিনি বিত্তশালী একটি পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা এইচএসসি পর্যন্ত।<ref>{{বই উদ্ধৃতি|শিরোনাম=প্রামান্য সংসদ|শেষাংশ=আমিনুর রশিদ এবং মোস্তফা ফিরোজ সম্পাদিত|প্রথমাংশ=|বছর=|প্রকাশক=|অবস্থান=|পাতাসমূহ=|আইএসবিএন=|ইউআরএল-অবস্থা=কার্যকর}}</ref>
 
== রাজনৈতিক ও কর্মজীবন ==
লুৎফুজ্জামান বাবর [[নেত্রকোনানেত্রকোণা-৪]] ([[মোহনগঞ্জ উপজেলা|মোহনগঞ্জ]], [[খালিয়াজুড়ি উপজেলা|খালিয়াজুড়ি]] ও [[মদন উপজেলা|মদন]]) ১৯৯১ সালে প্রথমবারের মতো সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.parliament.gov.bd/images/pdf/formermp/5th.pdf|শিরোনাম=৫ম জাতীয় সংসদে নির্বাচিত মাননীয় সংসদ-সদস্যদের নামের তালিকা|ওয়েবসাইট=[[জাতীয় সংসদ]]|প্রকাশক=[[বাংলাদেশ সরকার]]|আর্কাইভের-ইউআরএল=https://web.archive.org/web/20180917232851/http://www.parliament.gov.bd/images/pdf/formermp/5th.pdf|আর্কাইভের-তারিখ=১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৮}}</ref> এরপর ১৫ ফেব্রুয়ারি ১৯৯৬ সালের নির্বাচনেও তিনি সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.parliament.gov.bd/images/pdf/formermp-bangla/6th%20Parliament%20.pdf|শিরোনাম=৬ষ্ঠ জাতীয় সংসদে নির্বাচিত মাননীয় সংসদ-সদস্যদের নামের তালিকা|ওয়েবসাইট=[[জাতীয় সংসদ]]|প্রকাশক=[[বাংলাদেশ সরকার]]|আর্কাইভের-ইউআরএল=https://web.archive.org/web/20180915084544/http://www.parliament.gov.bd/images/pdf/formermp-bangla/6th%20Parliament%20.pdf|আর্কাইভের-তারিখ=১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮}}</ref> সর্বশেষ ২০০১ সালের নির্বাচনে একই আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন তিনি।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.parliament.gov.bd/images/pdf/formermp-bangla/8th%20Parliament%20.pdf|শিরোনাম=৮ম জাতীয় সংসদে নির্বাচিত মাননীয় সংসদ-সদস্যদের নামের তালিকা|ওয়েবসাইট=[[জাতীয় সংসদ]]|প্রকাশক=[[বাংলাদেশ সরকার]]|আর্কাইভের-ইউআরএল=https://web.archive.org/web/20180918161135/http://www.parliament.gov.bd/images/pdf/formermp-bangla/8th%20Parliament%20.pdf|আর্কাইভের-তারিখ=১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮}}</ref> অষ্টম সংসদে তিনি [[স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় (বাংলাদেশ)|স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের]] [[প্রতিমন্ত্রী]] হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।<ref name=":1" />
 
== বিতর্ক ==
লুৎফুজ্জামান বাবর ১৯৮০'র দশকে ঢাকা বিমানবন্দর-কেন্দ্রীক ব্যবসা শুরু করেন বলে অভিযোগ রয়েছে। তিনি ১৯৮০ সালে প্রেসিডেন্ট [[হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ|হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের]] মেয়াদ চলাকালীন সময়ে ক্যাসিও ব্র্যান্ডের ঘড়ি পাচার করতেন বলে অভিযোগ রয়েছে। তার ঘনিষ্ঠদের দাবী-তিনি কখনোই বিমানবন্দর কেন্দ্রীক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত ছিলেন না।<ref name=":1" /><ref name=":0">{{সংবাদ উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.thedailystar.net/from-casio-to-arms-9079|শিরোনাম=From Casio to arms|তারিখ=2014-01-30|কর্ম=The Daily Star|সংগ্রহের-তারিখ=2017-12-14|ভাষা=en}}</ref><ref name=":1" />
 
২১ আগস্ট ২০০৪ সালে গ্রেনেড হামলা মামলায় ১৮ মার্চ ২০১২ সালে তারেক রহমান ও লুৎফুজ্জামান বাবর সহ নতুন তালিকাভুক্ত ৩০ আসামিরনাম যুক্ত হয়। ১অ অক্টোবর ২০১৮ সালে এই মামলায় তাকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়।<ref name=":1" /><ref name=":2">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://bangla.bdnews24.com/bangladesh/article1548914.bdnews|শিরোনাম=রায়ে বিমর্ষ বাবর বললেন, ‘ফাঁসিয়ে দিল’|শেষাংশ=|প্রথমাংশ=|তারিখ=|ওয়েবসাইট=bangla.bdnews24.com|আর্কাইভের-ইউআরএল=|আর্কাইভের-তারিখ=|ইউআরএল-অবস্থা=কার্যকর|সংগ্রহের-তারিখ=2020-02-20}}</ref><ref name=":3">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.prothomalo.com/bangladesh/article/136291|শিরোনাম=সেই বাবর আর এই বাবর|ওয়েবসাইট=প্রথম আলো|ভাষা=bn|সংগ্রহের-তারিখ=2020-02-20}}</ref><ref name=":1" /> ২০০৪ সালে ধরা পড়ে ১০ ট্রাক অস্ত্রের চালান মামলায় ৩ অক্টোবর ২০১০ সালে তদন্তকারী কর্মকর্তার আবেদনের প্রেক্ষিতে আদালতের নির্দেশে ১০ ট্রাক অস্ত্র মামলায় শ্যেন অ্যরেস্ট দেখানো হয় বাবরকে। এই মামলায়ও তাকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়।<ref name=":20" /><ref name=":02" /><ref name=":3" />
 
== আরও দেখুন ==
== তথ্যসূত্র ==
{{সূত্র তালিকা|২}}
 
[[বিষয়শ্রেণী:জীবিত ব্যক্তি]]
[[বিষয়শ্রেণী:১৯৫৮-এ জন্ম]]
[[বিষয়শ্রেণী:নেত্রকোনানেত্রকোণা জেলার রাজনীতিবিদ]]
[[বিষয়শ্রেণী:বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের রাজনীতিবিদ]]
[[বিষয়শ্রেণী:পঞ্চম জাতীয় সংসদ সদস্য]]
৩,৯১,২৬৭টি

সম্পাদনা