"ফজলে হাসান আবেদ" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সম্পাদনা সারাংশ নেই
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল অ্যাপ সম্পাদনা অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ সম্পাদনা
| জন্ম_তারিখ = {{জন্ম তারিখ|1936|4|27|df=y}}
| মৃত্যু_তারিখ = {{মৃত্যু তারিখ ও বয়স|2019|12|20|1936|04|27|df=y}}
|মৃত্যু_স্থান=[[অ্যাপোলো হাসপাতাল,]] ঢাকা| পেশা = সংগঠক, সমাজকর্মী
| বাসস্থান =
| জাতীয়তা = বাংলাদেশী
}}
 
স্যার '''ফজলে হাসান আবেদ''', কেসিএমজি (জন্ম : ২৭ এপ্রিল ১৯৩৬ - মৃত্যু :২০ ডিসেম্বর ২০১৯) ছিলেন একজন [[বাংলাদেশ|বাংলাদেশী]] সমাজকর্মী এবং বিশ্বের বৃহত্তম{{তথ্যসূত্র প্রয়োজন}} বেসরকারী সংগঠন [[ব্র্যাক|ব্র্যাকের]] প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান। সামাজিক উন্নয়নে তার অসামান্য ভূমিকার জন্য তিনি [[র‌্যামন ম্যাগসেসে পুরস্কার]], [[জাতিসংঘ উন্নয়ন সংস্থা|জাতিসংঘ উন্নয়ন সংস্থার]] [[মাহবুবুল হক পুরস্কার]] এবং [[গেটস ফাউন্ডেশন|গেটস ফাউন্ডেশনের]] বিশ্ব স্বাস্থ্য পুরস্কার এবং শিক্ষাক্ষেত্রের নোবেল বলে খ্যাত [[ইয়াইদান পুরস্কার]] লাভ করেছেন। <ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.prothomalo.com/opinion/article/1617393|শিরোনাম=ফজলে হাসান আবেদ এক আলোকবর্তিকা|ওয়েবসাইট=প্রথম আলো|ভাষা=bn|সংগ্রহের-তারিখ=2019-12-20}}</ref> দারিদ্র বিমোচন এবং দরিদ্রের ক্ষমতায়নে বিশেষ ভূমিকার স্বীকৃতিস্বরূপ ব্রিটিশ সরকার তাকে নাইটহুডে<ref>"Knight Commander of the Most Distinguished Order of St Michael and St George" (KCMG)</ref> ভূষিত করে।
 
== জন্ম ও প্রাথমিক জীবন ==
 
== মৃত্যু ==
শ্বাসকষ্ট ও শারীরিক দূর্বলতা জনিত কারণে ২০১৯ সালের নভেম্বরের শেষের দিকে হাসপাতালে ভর্তি হন। ২০১৯ওই সালেরবছরের ২০ ডিসেম্বর শুক্রবার রাত ৮ টা ২৮ মিনিটে রাজধানীরঢাকার বসুন্ধরায়[[অ্যাপোলো হাসপাতাল ঢাকা|অ্যাপোলো হাসপাতালে]] তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগমৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৩ বছর। তিনি স্ত্রী, এক মেয়ে, এক ছেলে এবং তিন নাতি-নাতনি রেখে গেছেন।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.jugantor.com/national/257719/স্যার-ফজলে-হাসান-আবেদ-আর-নেই|শিরোনাম=ব্র্যাকের প্রতিষ্ঠাতা ফজলে হাসান আবেদ আর নেই|ওয়েবসাইট=Jugantor|সংগ্রহের-তারিখ=2019-12-20}}</ref>
 
== তথ্যসূত্র ==