"গভঃ মডেল গার্লস হাই স্কুল" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

বট নিবন্ধ পরিষ্কার করেছে। কোন সমস্যায় এর পরিচালককে জানান।
(1টি উৎস উদ্ধার করা হল ও 0টি অকার্যকর হিসেবে চিহ্নিত করা হল। #IABot (v2.0beta14))
(বট নিবন্ধ পরিষ্কার করেছে। কোন সমস্যায় এর পরিচালককে জানান।)
শিক্ষা জাতীর মেরূদন্ড। শিক্ষা ছাড়া কোন জাতির সর্বাঙ্গীন উন্নতি অসম্ভব। আর এ জাতির অর্ধেক হচ্ছে নারী। সুতরাং নারী শিক্ষার প্রসার না ঘটলে অর্ধেক জাতিরই উন্নতি ব্যাহত হওয়ার সম্ভাবনা সুনিশ্চিত; একথা উপলব্ধি করেছিলেন তৎকালীন কয়েকজন শিক্ষানুরাগী ব্যক্তি।
 
যাঁদের উৎসাহ ও আনুপ্রেরণায় ১৯৩৬ খ্রিস্টাব্দেখ্রিষ্টাব্দে তদানীন্তন সরাইল এস্টেটের স্বনামধন্য জমিদার বাবু কমলারঞ্জন রায় তাঁরতার মাতা সরোজনী দেবীর নামানুসারে “রাণী সরোজনী বালিকা বিদ্যালয়” নামে একটি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠিত করেন।
 
বর্তমান ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালের দক্ষিণাংশে যেখানে পুরুষ রোগীদের ওয়ার্ড আছে, সেখানে প্রথম এই বিদ্যালয়টি স্থাপিত হয়। প্রথমে এই বিদ্যালয়টি মাত্র কয়েকজন ছাত্রী নিয়ে প্রাথমিক বিদ্যালয়রূপে আত্মপ্রকাশ করে।
 
পরবর্তীকালে ছাত্রী সংখ্যা দ্রুতগতিতে বাড়তে থাকায় এবং শহরের নারী শিক্ষা উৎসাহী ব্যক্তিগণের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় ১৯৪২ খ্রিস্টাব্দেখ্রিষ্টাব্দে বিদ্যালয়টি “রাণী সরোজনী উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ে” পরিণত করা হয়।
 
দক্ষ শিক্ষক/ শিক্ষিকাগণের পরিচালনায় বিদ্যালয়টি একটি আদর্শ বিদ্যালয়ে পরিণত হয়। দ্রুতগতিতে ছাত্রীবৃদ্ধির দরুন স্থানাভাব দেখা দেয়। ইহাতে ছাত্রীদের ভীষণ অসুবিধা হওয়ায় তদানীন্তন মহকুমা প্রশাসক জনাব মুনীর হোসেন সি, এস, পি, সাহেব এই বালিকা বিদ্যালয় স্থানান্তরের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করেন করেন এবং বিদ্যালয়টিকে একটি আধুনিক আদর্শ বিদ্যালয়ে রূপান্তরিত করেন।
গভঃ মডেল গার্লস হাইস্কুল ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের মধ্যস্থলে হালদার পাড়ায় এক মনোরম প্রাকৃতিক পরিবেশে প্রতিষ্ঠিত হয়। ১৯৫৪ সালের ১০ ই অক্টোবরতিনি এই বিদ্যালয়ের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন। ১৯৫৫ সালের ১৬ ই ফেব্রুয়ারী মহকুমা প্রশাসক জনাব এন, এম, খাঁন সি, এস, পি, সাহেব বিদ্যালয়টি উদ্বোধন করেন ও “আদর্শ উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়” নাম পরিবর্তন করে “মডেল গার্লস হাই স্কুল” নামকরণ করেন।
 
অতঃপর ১৯৮৪ খ্রিস্টাব্দেখ্রিষ্টাব্দে বিদ্যালয়ের কৃতিছাত্রী বেগম রওশন এরশাদ বর্তমান বিরোধী দলীয় নেত্রী এর বিশেষ সহযোগিতায় বিদ্যালয়টি সরকারিকরণকরা হয় এবং নাম রাখা হয় “গভঃ মডেল গার্লস হাই স্কুল”।<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি |শিরোনাম=সংরক্ষণাগারভুক্ত অনুলিপি |ইউআরএল=http://gmghschool.edu.bd/home/school_history.php |সংগ্রহের-তারিখ=১০ অক্টোবর ২০১৮ |আর্কাইভের-ইউআরএল=https://web.archive.org/web/20180802203655/http://www.gmghschool.edu.bd/home/school_history.php |আর্কাইভের-তারিখ=২ আগস্ট ২০১৮ |অকার্যকর-ইউআরএল=হ্যাঁ }}</ref>
 
==অবকাঠামো==
১,৭৬,৪২২টি

সম্পাদনা