"জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সঠিক ইতিহাস, আমার হৃদয়ের ভালোবাসা পূর্ন এবং আমি হৃনি তোমার কাছে,,,প্রিয় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যাল।
(সঠিক ইতিহাস, আমার হৃদয়ের ভালোবাসা পূর্ন এবং আমি হৃনি তোমার কাছে,,,প্রিয় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যাল।)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা দৃশ্যমান সম্পাদনা
== আবাসিক হল ==
== আবাসিক হল ==
ছাত্রদের থাকার সুবিধার্থে ডিসেম্বর, ২০১১ইং তারিখ পর্যন্ত সর্বমোট ১০টি হল বা [[ছাত্রাবাস]] রয়েছে; তন্মধ্যে ১টি ছাত্রীদের হল। উল্লেখ্যএবং এইসৈয়দ সবগুলোনজরুল হলইইসলাম বেদখলহল হয়েউদ্ধার রয়েছেকরে ২০১৪ সালে। শৈরাচার এরশাদের ব্যাক্তিগত ক্যামেরা ম্যানের দখলে ছিলো। তৎকালীন ছাত্র এবং ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মোঃ মাইনুুুল হাসান সজীবের নেতৃত্বে এবং সরকারের সহযোগিতায় দখলদারদের উচ্ছেদ করে মাইনুল হাসান সজীব সহ ১৫ জন ছাত্র হলে থেকে পরাশুনা করেন। বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠারকতৃৃপহ্ম পূর্বহলটির থেকেই।<ref>দৈনিককোন প্রথমউন্নয়ন আলোনা করায়, বিশেষমাইনুুল প্রতিবেদন,হাসান মুদ্রিতসজীবের সংস্করণ,ব্যাক্তিগত ২১অর্থায়নে ডিসেম্বর,হলটির ২০১১ইং</ref>কিছুটা হলগুলোউন্নয়ন হলোঃহয়।
 
 
 
অন্যান্ন হলগুলো হলো -
 
 
উন্নয়ন সাংবাদিকদের মাধ্যমে জানাযায়, মাইনুল হাসান সজীব তার টিউশনের টাকা দিয়ে বিদ্যুৎ বিলও হয়।
 
 
<ref>দৈনিক প্রথম আলো, বিশেষ প্রতিবেদন, মুদ্রিত সংস্করণ, ২১ ডিসেম্বর, ২০১১ইং</ref> হলগুলো হলোঃ
 
* বেগম ফজিলাতুন্নেসা মুজিব হল (নতুন ছাত্রী হল)
* বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল (প্রস্তাবিত)
* বজলুর রহমান হল,
* নজরুল ইসলাম খাঁন হল,
*
* শহীদ শাহাবুদ্দিন হল।