"শিগেরু মিয়ামোতো" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

→‎প্রভাব: সংশোধন
(সংশোধন)
(→‎প্রভাব: সংশোধন)
মিয়ামোতোর সর্বাধিক জনপ্রিয় সৃষ্টি ''সুপার মারিও ব্রাদার্স'' গেমটি ''দ্য নিউ ইয়ার্কার''-এর ভাষায়, "পাঠকের দৃষ্টিকোণ অনুযায়ী, হয় একটি নতুন শিল্পক্ষেত্র গড়ে তুলেছে, নয়তো একটি মৃতপ্রায় শিল্পক্ষেত্রকে বাঁচিয়ে তুলেছে।"<ref name="New Yorker" /> ''দ্য ডেইলি টেলিগ্রাফ'' বলেছে "গেমটি পরবর্তী সব গেমের জন্য গুণগত আদর্শ স্থাপন করে দিয়েছে।"<ref name="Daily Telegraph 1999" /> ''জি৪'' টিভি চ্যানেল গেমটির অতুলনীয় গেমিং অভিজ্ঞতার প্রশংসা করেছে, এবং [[১৯৮৩ সালের ভিডিও গেম বিপর্যয়|১৯৮৩ সালের বিপর্যয়ের]] পর ভিডিও গেম শিল্পের পুনরুজ্জীবনে গেমটির প্রায় একক ভূমিকার কথা তুলে ধরেছে।<ref>{{cite web| url=http://www.g4tv.com/top-100/478/super-mario-bros/|title=G4TV's Top 100 Games – 1 Super Mario Bros|year=2012|publisher=[[G4 (U.S. TV channel)|G4TV]]| accessdate=June 27, 2012}}</ref> তদুপরি, গেমটি [[সাইড-স্ক্রলিং (ভিডিও গেম ঘরানা)|সাইড-স্ক্রলিং]] ঘরানাকে জনপ্রিয় করে তুলেছিল। ''দ্য নিউ ইয়র্কার'' ''মারিও'' চরিত্রটির সুগভীর ভূমিকাকে [[মিকি মাউস]]ের সাথে তুলনীয় বলে মত দিয়েছে।<ref name="New Yorker" />
 
''[[গেমস্পট]]'' সর্বোচ্চ গুরুত্বপূর্ণ ১৫টি গেমের তালিকায় ''দ্য লেজেন্ড অফ জেল্ডা'' গেমটিকে স্থান দিয়েছে, কারণ এটি ছিল [[মুক্ত বিশ্ব (গেমিং)|মুক্ত বিশ্ব]] [[অরৈখিক গেম|অরৈখিক গেমখেলার]] প্রারম্ভিক নিদর্শন, এবং ব্যাটারি-ভিত্তিক গেম সেভের প্রচলন ঘটিয়েছিল, যা পরবর্তীতে ''[[মেট্রয়েড]]'' এবং ''[[ফাইনাল ফ্যান্টাসি]]'' এর মত দীর্ঘকালীন [[অ্যাকশন-অ্যাডভেঞ্চার গেম|অ্যাকশন-অ্যাডভেঞ্চার]] এবং [[রোল-প্লেয়িং ভিডিও গেম|রোল-প্লেয়িং]] গেমে সহায়তা করে এবং আধুনিক ভিডিও গেমের একটি সাধারণ বৈশিষ্ট্যে পরিণত হয়েছে।<ref name="gspot_zelda">{{cite web|title=15 Most Influential Games of All Time: The Legend of Zelda |website=[[GameSpot]] |url=http://www.gamespot.com/gamespot/features/video/15influential/p9_01.html |accessdate=January 24, 2010 |deadurl=yes |archiveurl=https://web.archive.org/web/20060130212907/http://www.gamespot.com/gamespot/features/video/15influential/p9_01.html |archivedate=January 30, 2006 }}</ref> ২০০৯ সালে ''[[গেম ইনফর্মার]]'' তাদের "সর্বকালের শ্রেষ্টশ্রেষ্ঠ ২০০ গেম" তালিকায় ''দ্য লেজেন্ড অফ জেল্ডা'' সম্পর্কে বলে "সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ গেমের চেয়ে কোন অংশে কম নয়" এবং "তার যুগের থেকে থেকে কয়েক দশক না হলে অনেক বছর অগ্রবর্তী ছিল"।<ref name="gi_best">{{cite journal|author=The ''Game Informer'' staff|title=The Top 200 Games of All Time|pages=44–79|issue=200|date=December 2009|journal=[[Game Informer]]|issn=1067-6392|oclc=27315596}}</ref>
 
<!-- SNES era -->
 
<!-- Zelda reception -->
মিয়ামোতোর ''দ্য লেজেন্ড অফ জেল্ডা'' সিরিজের গেমগুলো অসামান্য প্রশংসা পেয়েছে। ''[[দ্য লেজেন্ড অফ জেল্ডা: এ লিংক টু দ্য পাস্ট|এ লিংক টু দ্য পাস্ট]]'' নিনটেনডোর একটি যুগান্তকারী পণ্য এবং বিভিন্ন সময় সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ গেম হিসেবে পরিচিত হয়েছে। ''[[দ্য লেজেন্ড অফ জেল্ডা: ওকারিনা অফ টাইম|ওকারিনাঅকারিনা অফ টাইম]]'' বর্তমানকাল পর্যন্তও ভক্ত-সমালোচক উভয়ের মতে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ গেম হিসেবে স্বীকার্য হয়ে আসছে।<ref name="1up_ocarina">{{cite web| title=Ocarina of Time Hits Virtual Console | website=1UP.com | url=http://www.1up.com/news/ocarina-time-hits-virtual-console |deadurl=yes | archiveurl=https://web.archive.org/web/20110629031529/http://www.1up.com/news/ocarina-time-hits-virtual-console | archivedate=June 29, 2011 | accessdate=November 30, 2017 | quote="the apex of 6-4bit[sic] gaming and oft-cited "Best Game Ever Made, The Legend of Zelda: Ocarina of Time, has touched down over the pond for play on the Wii Virtual Console in most PAL-enabled regions."}}</ref><ref>{{cite web| title=Legend of Zelda: Ocarina of Time | website=[[Metacritic]] | url=http://www.metacritic.com/game/nintendo-64/the-legend-of-zelda-ocarina-of-time | accessdate=February 3, 2010}} Metacritic here states that ''Ocarina of Time'' is "[c]onsidered by many to be the greatest single-player video game ever created in any genre..."</ref><ref name="best_games">{{cite web|url=http://www.filibustercartoons.com/games.htm |title=The Best Video Games in the History of Humanity |publisher=Filibustercartoons.com |accessdate=September 12, 2010}}</ref><ref>Ryan, Michael E. "'I Gotta Have This Game Machine!' (Cover Story)." Familypc 7.11 (2000): 112. MasterFILE Premier. Web. July 24, 2013. FamilyPC says "Considered by many to be the greatest video game ever […]</ref> ''টোয়াইলাইট প্রিন্সেস'' সামগ্রিক প্রশংসার মধ্য দিয়ে উন্মোচিত হয়েছিল, উয়ি কনসোলের তৃতীয় সর্বোচ্চমানের গেম।<ref name="Metacritic Wii all time" /> এটি একাধিক জনপ্রিয় গেমস-বিষয়ক প্রকাশনা কর্তৃক নিখুঁত স্কোর লাভ করেছে।<ref name="1UP">{{cite web|url=http://www.1up.com/reviews/legend-zelda|title=1up's Wii Review: Legend of Zelda: Twilight Princess|website=[[1UP.com]]|first=Jeremy|last=Parish|date=November 16, 2006|accessdate=January 31, 2007|deadurl=yes|archiveurl=https://archive.today/20070927213408/http://www.1up.com/do/reviewPage?cId=3155329&sec=REVIEWS|archivedate=September 27, 2007|df=mdy-all}}</ref><ref name="EGM">{{cite journal|first=Jeremy|last= Parish|title=The Legend of Zelda: Twilight Princess review| journal=[[Electronic Gaming Monthly]]|volume=211|pages=56–58|date=January 2007|ref=harv}}</ref><ref name="game informer">{{cite magazine|url=http://www.gameinformer.com/NR/exeres/E9CD9493-4C3A-4FB9-BF2E-7A1E9E157B9E.htm |title=The Legend of Zelda: Twilight Princess|accessdate=December 5, 2006|magazine=[[Game Informer]]|first=Andrew|last=Reiner|archiveurl=https://web.archive.org/web/20080801033641/http://www.gameinformer.com/NR/exeres/E9CD9493-4C3A-4FB9-BF2E-7A1E9E157B9E.htm|archivedate=August 1, 2008}}</ref><ref name="gamespy">{{cite web|url=http://wii.gamespy.com/wii/legend-of-zelda-wii/745573p1.html |title=The Legend of Zelda: Twilight Princess Review |first=Bryn |last=Williams |date=November 13, 2006 |accessdate=December 5, 2006 |publisher=[[GameSpy]] |deadurl=yes |archiveurl=https://web.archive.org/web/20061202120515/http://wii.gamespy.com/wii/legend-of-zelda-wii/745573p1.html |archivedate=December 2, 2006 }}</ref><ref name="GamesRadar Wii">{{cite web |url=http://www.gamesradar.com/wii/legend-of-zelda-twilight-princess/review/the-legend-of-zelda-twilight-princess/a-20061118134521822031/g-20060509134454277061|title=Legend of Zelda: Twilight Princess Review. Wii Reviews|accessdate=November 12, 2008}}</ref>
 
<!-- Mario critical reception -->
শিগেরু মিয়ামোতোর সম্মানে কম্পিউটারের জন্য তৈরি ''[[ডাইকাতানা]]'' গেমের মূল চরিত্রের নাম দেয়া হয়েছে হিরো মিয়ামোতো।<ref>{{cite web | url=http://dir.salon.com/story/tech/feature/2002/01/02/ion_storm/index.html?pn=5 | title=A Hardcore Elegy for Ion Storm | website=[[Salon (website)|Salon.com]] | page=5 | archiveurl=https://web.archive.org/web/20061206142311/http://dir.salon.com/story/tech/feature/2002/01/02/ion_storm/index.html?pn=5 | archivedate=December 6, 2006| accessdate=September 19, 2007}}</ref> [[পোকেমন (এনিমে)|পোকেমন]] সিরিজের গ্যারি ওক চরিত্রটি জাপানে শিগেরু নামে পরিচিত, এবং [[অ্যাশ কেচাম]]ের প্রতিদ্বন্দ্বী। প্রসঙ্গত, অ্যাশ কেচাম চরিত্রটি জাপানে সাতোশি নামে পরিচিত, এবং পোকেমনের স্রষ্টা [[সাতোশি তাজিরি]] মিয়ামোতোর থেকে প্রশিক্ষণ পেয়েছেন।
 
মিয়ামোতো হলেন ইন্টারঅ্যাক্টিভ শিল্প ও বিজ্ঞান একাডেমির হল অফ ফেমে স্থান লাভ করা প্রথম ব্যক্তি, যে সম্মাননা তিনি ১৯৯৮ সালে অর্জন করেন।<ref name="Game spot">{{cite web|date=May 12, 1998 |title=Miyamoto Will Enter Hall of Fame |website=GameSpot |url=http://www.gamespot.com/news/2463264.html |accessdate=June 30, 2009 |deadurl=yes |archiveurl=https://web.archive.org/web/20121106233011/http://www.gamespot.com/news/2463264.html |archivedate=November 6, 2012 }}</ref> ২০০৬ সালে মিয়ামোতো ফরাসী [[''অর্ডার অফ আর্টস অ্যান্ড লেটার্স'' <!-- ফরাসি Ordre des Arts et des Lettres]] এর প্রতিবর্ণীকরণ আকাঙ্খিত--> এর ''শেভালিয়াশেভালিয়ে'' (নাইট) পদবী লাভ করেন।<ref>{{cite web|url=http://www.gamasutra.com/view/feature/2606/from_paris_with_love_de_chevalier_.php|title=From Paris with Love: de Chevalier dans l'Ordre des Arts et des Lettres|author=François Bliss de la Boissière|date=March 15, 2006|accessdate=August 25, 2009}}</ref>
 
২০০৬ সালের ২৮ নভেম্বর [[টাইম (পত্রিকা)|টাইম]] ম্যাগাজিনের "সিক্সটি ইয়ার্স অফ এশিয়ান হিরোজ" এ মিয়ামোতোকে অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছিল।<ref name="time.com">{{cite news | url=http://www.time.com/time/asia/2006/heroes/bl_miyamoto.html | title=Shigeru Miyamoto: The video-game guru who made it O.K. to play | work=[[Time (magazine)|TIME Magazine]] | last=Wright | first=Will | authorlink=Will Wright (game designer) | accessdate=November 28, 2006 | date=November 13, 2006 | deadurl=bot: unknown | archiveurl=https://web.archive.org/web/20100614082307/http://www.time.com/time/asia/2006/heroes/bl_miyamoto.html | archivedate=June 14, 2010 | df=mdy-all }}</ref> পরবর্তীতে তিনি ২০০৭<ref>{{cite news |url=http://www.time.com/time/specials/2007/time100/article/0,28804,1595326_1615737_1615521,00.html |title=The TIME 100 (2007) – Shigeru Miyamoto |work=[[Time (magazine)|TIME Magazine]] | last=Wendel | first=Johnathan | authorlink=Fatal1ty |accessdate=May 3, 2007 | date=May 3, 2007}}</ref> ও ২০০৮<ref>{{cite news |url=http://www.time.com/time/specials/2007/article/0,28804,1725112_1726934_1726935,00.html |title=Who is Most Influential? – The 2008 TIME 100 Finalists |work=[[Time (magazine)|TIME Magazine]] | authorlink=Fatal1ty |accessdate=April 12, 2008 | date=April 1, 2008}}</ref> সালে পরপর টাইম ম্যাগাজিনের "বর্ষসেরা ১০০ ব্যক্তিত্ব" তালিকায় স্থান পেয়েছিলেন, এবং ২০০৮ এর তালিকায় প্রথম স্থানে ছিলেন। ২০০৭ সালের ৭ মার্চ মিয়ামোতো [[গেম ডেভলপার্স চয়েস অ্যাওয়ার্ডস]] এর আজীবন সম্মাননা পুরস্কার লাভ করেন।<ref>{{cite web | url=http://www.gamasutra.com/php-bin/news_index.php?story=12732 | last=Carless | first=Simon | date=February 12, 2007| title=2007 Game Developers Choice Awards To Honor Miyamoto, Pajitnov |website=[[Gamasutra]] |accessdate=February 12, 2007}}</ref> [[গেমট্রেইলার্স]] এবং [[আইজিএন]] যথাক্রমে "শ্রেষ্টশ্রেষ্ঠ দশ গেম স্রষ্টা" এবং "সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ ১০০ গেম স্রষ্টা" তালিকায় মিয়ামোতোকে প্রথম স্থানে রেখেছিল।<ref>{{cite web|url=http://www.gametrailers.com/video/top-ten-gt-countdown/44356|title=Top Ten Game Creators|publisher=Gametrailers.com|accessdate=February 28, 2010}}</ref><ref>{{cite web|url=http://games.ign.com/top-100-game-creators/1.html|title=Top 100 Game Creators of all Time|website=IGN|accessdate=February 28, 2010|deadurl=yes|archiveurl=https://web.archive.org/web/20100402015830/http://games.ign.com/top-100-game-creators/1.html|archivedate=April 2, 2010|df=mdy-all}}</ref>
 
গেম ডেভলাপরদের মধ্যে ''[[ডেভলপ (পত্রিকা)|ডেভলপ]]'' পত্রিকার পরিচালিত একটি জরিপে অংশগ্রহণকারীদের সর্বাধিক অংশ, ৩০%, <ref name="New Yorker" /> মিয়ামোতোকে নিজেদের "আল্টিমেট ডেভলপমেন্ট হিরো" হিসেবে বাছাই করেছিল।<ref>{{cite web|url=http://www.escapistmagazine.com/news/view/92401-Miyamoto-Is-Developers-Hero|title=Miyamoto Is Developers' Hero|website=The Escapist|author=Funk, John|accessdate=February 28, 2010}}</ref> মিয়ামোতো প্রচুর স্বনামধন্য প্রচারমাধ্যম ও প্রতিষ্ঠানে সাক্ষাতকার দিয়েছেন, যেমন [[সিএনএন]]ের টক এশিয়া।<ref>{{cite news|url=http://www.cnn.com/2007/WORLD/asiapcf/02/14/miyamoto.script/index.html|title=Shigeru Miyamoto Talk Asia Interview|publisher=CNN|author=Rao, Anjali|accessdate=February 28, 2010}}</ref> ২০১০ এর ১৯ মার্চ তাকে [[বাফটা]] ফেলো পদবী প্রদান করা হয়।<ref>{{cite news|url=https://www.telegraph.co.uk/technology/video-games/7306468/Shigeru-Miyamoto-honoured-by-Bafta.html|title=Shigeru Miyamoto honoured by Bafta|last=Beaumont|first=Claudine|date=February 24, 2010|work=[[The Daily Telegraph|London Telegraph]]|publisher=Telegraph Media Group|accessdate=March 23, 2010|location=London}}</ref> ২০১২ সালে মিয়ামোতো স্পেনের সর্বোচ্চ সম্মান [[প্রিন্সেস অফ আস্তুরিয়াস পুরস্কার|প্রিন্স অফ আস্তুরিয়াস]] পুরস্কার অর্জন করেন। তিনি ছিলেন এই সম্মান পাওয়া প্রথম ইন্টারঅ্যাকটিভ মাধ্যমের ব্যক্তিত্ব।<ref>{{cite web|url=http://www.fpa.es/en/press/news/shigeru-miyamoto-prince-of-asturias-award-for-communication-and-humanities/|title=Shigeru Miyamoto, Prince of Asturias Award for Communication and Humanities|date=May 23, 2012|publisher=Fundación Príncipe de Asturias|accessdate=May 23, 2012|deadurl=bot: unknown|archiveurl=https://web.archive.org/web/20120707055244/http://www.fpa.es/en/press/news/shigeru-miyamoto-prince-of-asturias-award-for-communication-and-humanities/|archivedate=July 7, 2012|df=mdy-all}}</ref><ref>{{cite web|url=http://www.gamesindustry.biz/articles/miyamoto-nominated-for-top-spanish-honour|title=Miyamoto nominated for top Spanish honour|first=Katherine|last=Brice|date=March 24, 2010|website=GamesIndustry.biz|publisher= Eurogamer Network|accessdate=June 21, 2010}}</ref>
৯৩৬টি

সম্পাদনা