"শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার স্টেডিয়াম" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

(→‎ফুটবল প্রতিযোগিতা: বানান সংশোধন)
|embedded=|website=|publictransit=
}}
'''শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার স্টেডিয়াম''' ২০১৩ সালে নির্মিত<ref name=":1" /> বাংলাদেশের একটি জেলা পর্যায়ের স্টেডিয়াম। স্টেডিয়ামটি [[গাজীপুর জেলা|গাজীপুর]] জেলার [[গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন|গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের]] [[টঙ্গী]]র মাছিমপুরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে টঙ্গী ডাকঘরের উত্তরে এবং [[টেলিফোন শিল্প সংস্থা|বাংলাদেশ টেলিফোন শিল্প সংস্থা]]র দক্ষিণ সীমায় অবস্থিত। স্টেডিয়ামটি গাজীপুর জেলার দ্বিতীয় স্টেডিয়াম। অন্য স্টেডিয়ামটি [[গাজীপুর সদর উপজেলা]]য় অবস্থিত [[শহীদ বরকত স্টেডিয়াম]]। স্টেডিয়ামটিশহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার স্টেডিয়াম বাংলাদেশের প্রখ্যাত রাজনীতিবিদ প্রয়াত [[আহসানউল্লাহ মাস্টার|আহসান উল্লাহ মাস্টার]] এর নামে নামকরণ করা হয়েছে<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.banglanews24.com/sports/news/bd/155897.details|শিরোনাম=ক্রীড়া ব্যক্তিত্বদের নামে স্টেডিয়াম|ওয়েবসাইট=banglanews24.com|ভাষা=bn|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref><ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.dailysangram.com/?post=103109-বিশিষ্ট-ব্যক্তিদের-নামে-স্টেডিয়াম|শিরোনাম=বিশিষ্ট ব্যক্তিদের নামে স্টেডিয়াম|ওয়েবসাইট=দৈনিক সংগ্রাম|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref><ref name=":0">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://bangla.bdnews24.com/sport/article571164.bdnews|শিরোনাম=প্রয়াত ফুটবলার মারীর নামে রাঙ্গামাটি স্টেডিয়াম|ওয়েবসাইট=bangla.bdnews24.com|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref>। বাংলাদেশের অন্যান্য সকল ক্রীড়া ভেন্যুর মতই এই স্টেডিয়ামটি [[জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ|জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের]] অধিভুক্ত ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার তত্বাবধায়নে রয়েছে। বর্তমানে তীরন্দাজি খেলা, প্রশিক্ষণ ও অনুশীলনের জন্য এই ভেন্যুটি [[বাংলাদেশ আর্চারি ফেডারেশন]] একক ব্যবহার করছে<ref name=":2">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://archive1.ittefaq.com.bd/print-edition/others/2016/11/04/153884.html|শিরোনাম=গাজীপুরে স্টেডিয়াম উন্নয়নে শম্বুকগতি |ওয়েবসাইট=archive1.ittefaq.com.bd|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref> তবে এই ভেন্যু ফুটবল প্রতিযোগিতার জন্যও ব্যবহারব্যবহৃত হয়েছে<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.bhorerkagoj.com/print-edition/2016/03/28/82020.php|শিরোনাম=টঙ্গীতে শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার স্মৃতি ফুটবল|ওয়েবসাইট=www.bhorerkagoj.com|সংগ্রহের-তারিখ=2019-07-23}}</ref>। স্টেডিয়ামটি তীরন্দাজি খেলার ঘরোয়া<ref name=":4">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.thedailystar.net/sports/news/national-archery-begins-today-1675171|শিরোনাম=National archery begins today|তারিখ=2018-12-18|ওয়েবসাইট=The Daily Star|ভাষা=en|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref> ও আন্তর্জাতিক<ref name=":5">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://www.theindependentbd.com/printversion/details/188515|শিরোনাম=3rd ISSF Archery kicks off Feb 23|ওয়েবসাইট= theindependentbd.com|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref><ref name=":6">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.dhakatribune.com/sport/2019/02/23/world-ranking-archery-gets-underway|শিরোনাম=World Ranking Archery gets underway|তারিখ=2019-02-23|ওয়েবসাইট=Dhaka Tribune|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref> আয়োজন ও প্রশিক্ষণের<ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.thedailystar.net/sports/stiff-competition-selection-1514584|শিরোনাম=Stiff competition for selection|তারিখ=2018-01-04|ওয়েবসাইট=The Daily Star|ভাষা=en|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref><ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.thedailystar.net/sports/news/archery-camp-starts-today-1656280|শিরোনাম=Archery camp starts today|তারিখ=2018-11-05|ওয়েবসাইট=The Daily Star|ভাষা=en|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref> জন্য বহুল ব্যবহারব্যবহৃত হয়।
 
== ইতিহাস ==
স্টেডিয়ামের মাঠটি টেলিফোন শিল্প সংস্থার অংশ ছিল। প্রধানমন্ত্রী, ২৫ ডিসেম্বর, ২০০৮ সালে এই মাঠটিকে স্টেডিয়ামে রুপান্তরের প্রতিশ্রুতি দেন<ref name=":3">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://moysports.portal.gov.bd/sites/default/files/files/moysports.portal.gov.bd/page/db1d60e5_65eb_40ca_891f_35f7ef4d1499/%E0%A6%95%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A4%E0%A7%83%E0%A6%95%20%E0%A6%AA%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%A4%E0%A6%BF%E0%A6%B6%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A7%81%E0%A6%A4%E0%A6%BF%E0%A6%A8%E0%A6%BF%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B6%E0%A6%A8%E0%A6%BE%20%E0%A6%AC%E0%A6%BE%E0%A6%B8%E0%A7%8D%E0%A6%A4%E0%A6%AC%E0%A6%BE%E0%A7%9F%E0%A6%A8_%E0%A7%A8%E0%A7%A7%E0%A7%A6%E0%A7%A9%E0%A7%A8%E0%A7%A6%E0%A7%A7%E0%A7%AC.pdf|শিরোনাম=মাননীয় প্রধান মন্ত্রী কর্তৃক প্রদত্ত প্রতিশ্রুতি/ নির্দেশনা বাস্তবায়ন অগ্রগতি|শেষাংশ=|প্রথমাংশ=|তারিখ=২১ মার্চ ২০১৬|ওয়েবসাইট=যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রনালয়, বাংলাদেশ|আর্কাইভের-ইউআরএল=|আর্কাইভের-তারিখ=|সংগ্রহের-তারিখ=২৪ জুন ২০১৯}}</ref>। ০৫ ডিসেম্বর, ২০১২ তারিখে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের কার্য নির্বাহীকার্যনির্বাহী সভায় এই স্টেডিয়ামটি আহসান উল্লাহ মাস্টারের নামে নির্মাণের সিদ্ধান্ত হয়, এবং নির্মাণ ব্যয় হিসেবে আট কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়<ref name=":0" />। ৩১ অক্টোবর, ২০১৩ তারিখে স্টেডিয়ামটি উদ্বোধন করা হয়<ref name=":1">{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=http://valuka.com/News/NewsDetail/9314|শিরোনাম=বৃহস্পতিবার গাজীপুরে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা|ওয়েবসাইট=valuka.com|ভাষা=|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref><ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.banglanews24.com/national/news/bd/235388.details|শিরোনাম=মঞ্চে প্রধানমন্ত্রী|ওয়েবসাইট=banglanews24.com|ভাষা=bn|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref><ref>{{ওয়েব উদ্ধৃতি|ইউআরএল=https://www.prothomalo.com/bangladesh/article/83143/%25E0%25A6%25AD%25E0%25A6%25BF%25E0%25A6%25A4%25E0%25A7%258D%25E0%25A6%25A4%25E0%25A6%25BF%25E0%25A6%25AA%25E0%25A7%258D%25E0%25A6%25B0%25E0%25A6%25B8%25E0%25A7%258D%25E0%25A6%25A4%25E0%25A6%25B0-%25E0%25A6%2586%25E0%25A6%25B0-%25E0%25A6%2589%25E0%25A6%25A6%25E0%25A7%258D%25E0%25A6%25AC%25E0%25A7%258B%25E0%25A6%25A7%25E0%25A6%25A8%25E0|শিরোনাম=ভিত্তিপ্রস্তর আর উদ্বোধনের হিড়িক|ওয়েবসাইট=প্রথম আলো|ভাষা=bn|সংগ্রহের-তারিখ=2019-06-24}}</ref>। জুন, ২০১৪ তে প্রাথমিক নির্মাণ কাজ সম্পন্ন হয়<ref name=":3" />। ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ তারিখে স্টেডিয়ামটিকে আন্তর্জাতিক মানে উন্নীত করার ঘোষণা দেয়া হয়<ref name=":2" />।
 
== কাঠামো ও গঠন ==
১,৩২১টি

সম্পাদনা