"ফ্রেড রামসে" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

টেস্ট ক্রিকেট - অনুচ্ছেদ সৃষ্টি
(কাউন্টি ক্রিকেট - অনুচ্ছেদ সৃষ্টি)
(টেস্ট ক্রিকেট - অনুচ্ছেদ সৃষ্টি)
}}
 
'''ফ্রেডরিক এডওয়ার্ড রামসে''' ({{lang-en|Fred Rumsey}}; [[জন্ম]]: [[৪ ডিসেম্বর]], [[১৯৩৫]]) লন্ডনের স্টেপনি এলাকায় জন্মগ্রহণকারী প্রথিতযশা ও সাবেক ইংরেজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার।<ref name="Cap">{{cite book |title=If The Cap Fits |last=Bateman |first=Colin |authorlink= |coauthors= |year=1993 |publisher=Tony Williams Publications |location= |isbn=1-869833-21-X |page= 143 |url=}}</ref> [[ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল|ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের]] অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯৬৪ থেকে ১৯৬৫ সময়কালে সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্যে ইংল্যান্ড দলের পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছিলেন। ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর কাউন্টি ক্রিকেটে ওরচেস্টাশায়ারওরচেস্টারশায়ার, [[সমারসেট কাউন্টি ক্রিকেট ক্লাব|সমারসেট]] ও ডার্বিশায়ার দলের প্রতিনিধিত্ব করেছেন। দলে তিনি মূলতঃ বামহাতি ফাস্ট বোলিং করতেন। এছাড়াও, নিচেরসারিতে ডানহাতে ব্যাটিং করতেন '''ফ্রেড রামসে'''।
 
== কাউন্টি ক্রিকেট ==
ছয় মৌসুম সমারসেটের প্রতিনিধিত্ব করেছেন ফ্রেড রামসে। এ সময়কালে ২০.১৪ গড়ে ৫৪৭টি [[প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেট|প্রথম-শ্রেণীর]] উইকেটের সন্ধান পান। তন্মধ্যে, ১৯৬৩, ১৯৬৫ ও ১৯৬৬ সালে শত উইকেট লাভের মাইলফলক স্পর্শ করেছিলেন তিনি। ১৯৬৫ সালে ব্যক্তিগত সেরা ক্রীড়াশৈলী প্রদর্শনে সক্ষমতা দেখান তিনি। [[Hampshire County Cricket Club|হ্যাম্পশায়ারের]] বিপক্ষে নিম্নমুখী রানের খেলায় ৮/২৬ বোলিং পরিসংখ্যান গড়েছিলেন। ঐ খেলায় ৩৩ উইকেট পতনে মাত্র ২৮৩ রান সংগৃহীত হয়েছিল। ঐ [[মৌসুম (ক্রীড়া)|মৌসুমে]] মাত্র ১৬.১৮ গড়ে ১১৯টি প্রথম-শ্রেণীর উইকেট পেয়েছিলেন ফ্রেড রামসে। সাতবার [[ইনিংস|ইনিংসে]] পাঁচ বা ততোধিক উইকেট পেয়েছিলেন। সমারসেটের ইতিহাসে অন্যতম দ্রুতগতিসম্পন্ন বোলার হিসেবে ফ্রেড রামসে আবির্ভূত হন।
 
== টেস্ট ক্রিকেট ==
১৯৬৭ সালে প্রফেশনাল ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশন (পিসিএ) প্রতিষ্ঠা করেছিলেন তিনি।<ref>''[[John Arlott|Arlott]] on Cricket'', edited by [[David Rayvern Allen]], Fontana/Collins, 1985 edition, {{ISBN|0-00-637007-1}}, p217.</ref>
সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে মাত্র ৫ টেস্টে অংশ নেয়ার সুযোগ পেয়েছিলেন। ১৯৬০-এর দশকের মাঝামাঝি সময়ে অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচটি টেস্টে অংশগ্রহণ করেছিলেন।
 
২৩ জুলাই, ১৯৬৪ তারিখে সফরকারী [[অস্ট্রেলিয়া জাতীয় ক্রিকেট দল|অস্ট্রেলিয়ার]] বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে ফ্রেড রামসে’র। ম্যানচেস্টারের [[Old Trafford (cricket)|ওল্ড ট্রাফোর্ডে]] [[টেস্ট ক্রিকেট|টেস্ট ক্রিকেটে]] অভিষেক খেলায় [[বব সিম্পসন|বব সিম্পসনের]] ৩১১ রানের কল্যাণে পাহাড়সম ৬৫৬/৮ তুলে সফরকারীরা। ৩৫.৫ ওভার বোলিং করে ২/৯৯ পান যা কিছুটা স্বস্তিদায়ক ছিল। অবশ্য স্বাগতিক ইংরেজ দলও ৬০০ রানের কোটা স্পর্শ করতে পেরেছিল। [[দি ওভাল|ওভালের]] পঞ্চম টেস্টে তাঁকে মূল একাদশে রাখা হয়নি।
 
১৯৬৫ সালে [[নিউজিল্যান্ড জাতীয় ক্রিকেট দল|নিউজিল্যান্ড দল]] ইংল্যান্ড গমন করে। তিন টেস্টে গড়া সিরিজের প্রত্যেকটিতেই তাঁর অংশগ্রহণ ছিল। লর্ডসের দ্বিতীয় টেস্টে ব্যক্তিগত সেরা ৪/২৫ লাভ করেন। সমগ্র সিরিজে ২৫.৪৪ গড়ে নয় উইকেট দখল করেছিলেন তিনি। জুলাইয়ের শেষদিকে [[দক্ষিণ আফ্রিকা জাতীয় ক্রিকেট দল|দক্ষিণ আফ্রিকার]] বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টেস্টেও তাঁকে দলে রাখা হয়েছিল। খেলায় ছয় উইকেট দখল করলেও এটিই তাঁর ইংল্যান্ডের পক্ষে সর্বশেষ টেস্টে অংশগ্রহণ ছিল।<ref name="Cap"/>
 
১৯৬৭ সালে [[প্রফেশনাল ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশন]] (পিসিএ) প্রতিষ্ঠা করেছিলেন তিনি।<ref>''[[John Arlott|Arlott]] on Cricket'', edited by [[David Rayvern Allen]], Fontana/Collins, 1985 edition, {{ISBN|0-00-637007-1}}, p217.</ref>
 
== তথ্যসূত্র ==
৭৭,২৭৪টি

সম্পাদনা