"বিক্রম (অভিনেতা)" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সম্পাদনা সারাংশ নেই
| caption = ২০১৪ সালে বিক্রম
| birth_name = কেনেডি জন ভিক্টর
| alias = বিক্রম, কেনি, ছিয়াঁচিয়াঁ বিক্রম
| birth_date = {{জন্ম তারিখ ও বয়স|1966|04|17|df=y}}<ref>[http://www.sify.com/movies/surprise-b-day-cake-for-vikram-on-sketch-set-news-tamil-rerkcviaiejij.html Surprise b`day cake for Vikram on `Sketch` set]. Sify.com (17 April 2017). Retrieved on 17 September 2018.</ref><ref>Vasudevan, K.V. (23 April 2016) [http://www.thehindu.com/features/cinema/actor-vikram-turned-50-last-wee/article8513713.ece Actor vikram turned 50 last week]. The Hindu. Retrieved on 17 September 2018.</ref>
| birth_place = [[মাদ্রাজ]], [[মাদ্রাজ স্টেট]] (এখন [[চেন্নাই]], [[তামিলনাড়ু]]) [[ভারত]]
}}
 
'''কেনেডি জন ভিক্টর''' (জন্ম ১৭ এপ্রিল ১৯৬৬) যিনি তার স্টেজনেইম '''বিক্রম''' অথবা '''ছিয়াঁচিয়াঁ বিক্রম''' নামে বেশি পরিচিত, একজন ভারতীয় অভিনেতা এবং গায়ক, যিনি সাধারণত [[তামিল ভাষার চলচ্চিত্র|তামিল ভাষার চলচ্চিত্রে]] অভিনয় করেন। তিনি সাতটি ফিল্মফেয়ার এ্যাওয়ার্ডের সঙ্গে সঙ্গে একটি ন্যাশনাল ফিল্ম এ্যাওয়ার্ড এবং তামিলনাড়ু স্টেট ফিল্ম এ্যাওয়ার্ডও জিতেছেন, অন্যান্য স্বীকৃতি এবং সম্মাননাসহ তিনি ২০১১ সালের মে মাসে পিপলস ইউনিভার্সিটি অব মিলান দ্বারা অনারারী ডক্টরেট উপাধি পান।
 
তার অভিনীতি প্রথম চলচ্চিত্র ছিলো ''এন কাদাল কানমানি'' (১৯৯০), এরপর তিনি ছোটো বাজেটের কিছু তামিল, তেলুগু এবং মালয়লাম ভাষার চলচ্চিত্রে কাজ করলেও সেগুলো কারো নজরে আসেনি। ১৯৯৯ সালের তামিল চলচ্চিত্র ''সেতু'' যেটি বালা পরিচালনা করেছিলেন বিক্রমের চলচ্চিত্র ক্যারিয়ারে মাইলফলক হিসেবে কাজ করে, চলচ্চিত্রটিতে বিক্রম একজন ভদ্র মাস্তান চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন যে একটি সহজ-সরল মেয়ের প্রেমে পড়ে। ২০০০ এর দশকের শুরুর দিকে বিক্রম বেশ কয়েকটি 'মশলা চলচ্চিত্রে' অভিনয় করেন যেমনঃ ''ঢিল'' (২০০১), ''জেমিনি'' (২০০২), ''ঢুল'' (২০০৩) এবং ''স্যামী'' (২০০৩) বাণিজ্যিকভাবে সফল হয়েছিলো। ঐ সময়ে বিক্রম কিছু ব্যতিক্রমধর্মী চরিত্রেও অভিনয় করেছিলেন এবং তার অভিনয়ের জন্য চলচ্চিত্রসমালোচকদের প্রশংসা পেয়েছিলেন; ''কশি'' চলচ্চিত্রে একজন অন্ধ গ্রাম্যর চরিত্র এবং ''সামুরাই'' চলচ্চিত্রে রবিনহুড এর মত শারীরিক গঠনে দেখা গিয়েছিলো তাকে। বালার চলচ্চিত্র ''পিতামাগান'' এ বিক্রমের 'গ্রেভডিগার উইথ অটিজম স্পেকট্রাম ডিজঅর্ডার্স' এর পারফর্ম্যান্স তাকে ন্যাশনাল ফিল্ম এ্যাওয়ার্ড ফর বেস্ট এ্যাক্টর পুরস্কার এনে দেয়, তার চরিত্রটি পুরো চলচ্চিত্রে মাত্র কয়েকটি লাইন সংলাপ বলেছিলো।<ref name="pithwin">{{cite web|author=Kumar, Ashok |date=20 August 2004 |title=Vikram, the Victor |work=The Hindu |accessdate=31 July 2011 |url=http://www.hindu.com/thehindu/fr/2004/08/20/stories/2004082001760100.htm |deadurl=no |archiveurl=https://web.archive.org/web/20150201091647/http://www.thehindu.com/thehindu/fr/2004/08/20/stories/2004082001760100.htm |archivedate= 1 February 2015 |df= }}</ref> '[[ডিসোসিয়েটিভ আইডেন্টিটি ডিসঅর্ডার|মাল্টিপল পার্সোনালিটি ডিসঅর্ডার]]' যুক্ত একজন আদর্শবাদী আইনজীবীর চরিত্রে তিনি ''[[আন্নিয়ান]]'' চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন, শঙ্করের পরিচালনা করা ২০০৫ সালের এই চলচ্চিত্রটির জন্য বিক্রম প্রশংসিত হয়েছিলেন, আবার ২০০৯ সালের ''কন্দস্বামী'' চলচ্চিত্রে একজন সুপারহিরোর ভূমিকায় অবতীর্ণ হন তিনি। মণি রত্নম পরিচালিত চলচ্চিত্র ''রাবণন'' চলচ্চিত্রে বিক্রম বীরাইয়া নামের এক ট্রাইবাল লিডার এর চরিত্রে অভিনয় করেন যেই চরিত্রটি রামায়ণের রাবণ চরিত্র দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়েছিলো; এই চলচ্চিত্রটি বিক্রমকে আরো প্রশংসিত এবং মেধাবী শিল্পীর মর্যাদা এনে দেয়, বিক্রম এরপর মানসিক সমস্যাগ্রস্ত প্রাপ্তবয়স্ক কিন্তু ছয় বছর বয়স্ক একজন বালকের চিন্তাভাবনাধারণকারী ''দেইভা তিরুমাগাল'' (২০১১) তে অভিনয় করেও প্রশংসিত হন। তিনি শঙ্করের ''আই'' (২০১৫) চলচ্চিত্রে একজন বডি-বিল্ডার হিসেবে নিজেকে তৈরি করেছিলেন এবং ৩৫ কেজি ওজন কমিয়েছিলেন, চলচ্চিত্রটি ছিলো রোম্যান্টিক থ্রিলার, এই চলচ্চিত্রেও বিক্রম তার অভিনয়ের জন্য সাধুবাদ লাভ করেন। চলচ্চিত্রটি তামিল ভাষার অন্যতম সর্বোচ্চ আয়কারী চলচ্চিত্র হিসেবে পরিগণিত হয়ে যায়।<ref>{{cite web|date=4 March 2015 |title=Vikram's 'I' Box Office: Shankar's Film Completes 50-Day Milestone in Theatres |work=International Business Times |url=http://www.ibtimes.co.in/vikrams-i-box-office-shankars-film-completes-50-day-milestone-theatres-625176 |deadurl=no |archiveurl=https://web.archive.org/web/20150402130922/http://www.ibtimes.co.in/vikrams-i-box-office-shankars-film-completes-50-day-milestone-theatres-625176 |archivedate= 2 April 2015 |df= }}</ref><ref name="ihindu">{{cite web|author=Rangan, Baradwaj |date=14 January 2015 |title=I: A terrific performance let down by an uninspired, exhausting movie |work=The Hindu |accessdate=18 January 2015 |url=http://www.thehindu.com/features/cinema/cinema-reviews/i-movie-review-by-baradwaj-rangan/article6789179.ece |deadurl=no |archiveurl=https://web.archive.org/web/20150201141639/http://www.thehindu.com/features/cinema/cinema-reviews/i-movie-review-by-baradwaj-rangan/article6789179.ece |archivedate= 1 February 2015 |df= }}</ref>
২,৫৬০টি

সম্পাদনা