"ফরজ" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

১,৮৫৪ বাইট যোগ হয়েছে ,  ৩ বছর পূর্বে
শ্রেণীবিভাগ যোগ
({{উৎসহীন}} ও {{ছোট নিবন্ধ}} ট্যাগ যোগ করা হয়েছে (টুইংকল))
(শ্রেণীবিভাগ যোগ)
{{উৎসহীন|date=জানুয়ারি ২০১৮}}
{{ছোট নিবন্ধ|date=জানুয়ারি ২০১৮}}
{{উসুল আল ফিকহ}}
{{Usul al-fiqh}}
'''ফরজ''' ({{lang-ar|الفرض}}) / ({{lang-ar|الفريضة}}) একটি [[ইসলাম|ইসলামী]] শব্দ যা অবশ্য কর্তব্য কোন ধর্মীয় আচারকে নির্দেশ করে। পারসি, তুর্কি, উর্দু, হিন্দি ভাষায়ও ফরজ একই অর্থে ব্যবহৃত হয়। [[ইসলাম]] ধর্মে ফরজ বলতে বুঝায় আল্লাহ রাব্বুল আলামীন তার বান্দার উপর যেসব কাজ অাবশ্যক করেছেন। যে সকল মুসলমান এই আবশ্যক কাজগুলো পালন করবেন তারা মুক্তি ও সওয়াব অর্জন করবেন।
 
==শ্রেণীবিভাগ==
[[ইসলাম]] ধর্মে ফরজ বলতে বুঝায় আল্লাহ রাব্বুল আলামীন তার বান্দার উপর যা আবশ্যক করেন
ফিকাহ ফরজকে দুই শ্রেণিতে ভাগ করেছে।
* '''ফরজ-এ-আইন''' - সকল মুসলমানকে ব্যক্তিক পর্যায় থেকে এই কাজগুলো পালন করতে হবে। যেমন - প্রতিদিনের [[নামাজ]], রমজান মাসের [[রোজা]] ও জীবনে অন্তত একবার [[হজ্জ]] আদায়।
* ''ফরজ-এ-কিফায়াহ''' - কোন সম্প্রদায় বা উম্মাহর উপর আরোপিত কর্তব্য। যেমন - জানাজার নামাজ, সম্প্রদায়ের সকল সদস্যকে অংশগ্রহণ করতে হয় না বরং সেখান থেকে যথেষ্ট পরিমাণ মানুষ অংশগ্রহণ করলেই চলে।<ref>{{সংবাদ উদ্ধৃতি|শেষাংশ1=সাত্তার|প্রথমাংশ1=মাওলানা শাহ আবদুস|শিরোনাম=সর্বশ্রেষ্ঠ ইবাদত সালাত|ইউআরএল=http://www.kalerkantho.com/home/printnews/237813/2012-03-16|সংগ্রহের-তারিখ=২৪ মে ২০১৮|কর্ম=[[দৈনিক কালের কণ্ঠ]]}}</ref>
 
==আরও দেখুন==
[[বিষয়শ্রেণী:ইসলাম]]
* [[ওয়াজিব]]
* [[সুন্নত]]
* [[মুস্তাহাব]]
* [[মাকরুহ]]
 
[[বিষয়শ্রেণী:ইসলামইসলামী পরিভাষা]]