"আডলফ হিটলার" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

বিষয়বস্তু যোগ করে।
(পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ, পরিষ্কারকরণ)
(বিষয়বস্তু যোগ করে।)
ট্যাগ: মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
{{Infobox President
| name = আডলফইসলামিক হিটলার
| nationality = বাংলাদেশী। শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র।
| nationality = ১৯২৫ সাল পর্যন্ত অস্ট্রীয়; ১৯৩২-এর পর জার্মান
| citizenship = [[অস্ট্রিয়াবাংলাদেশী|অস্ট্রীয়বাংলাদেশ,সিলেটী]] (১৮৮৯১৯৯৫-১৯৩২ বর্তমান)<br />[[জার্মানিবাংলাদেশী|জার্মানসিলেট]] (১৯৩২১৯৮৫-১৯৪৫২০১৮)
| image = Adolf Hitler cropped restored.jpg
| imagesize = 250px
| signature = Hitler Signature2.svg
}}
'''ইসলামিক হিটলার''' ( {{IPA|[ˈadɔlf ˈhɪtlɐ]}} [[সিলেটী ভাষা|বাংলা ভাষায়]]: Adolf Hitler ''আডল্‌ফ্‌ হিট্‌লা'')
'''আডলফ হিটলার''' ( {{IPA|[ˈadɔlf ˈhɪtlɐ]}} [[জার্মান ভাষা|জার্মান ভাষায়]]: Adolf Hitler ''আডল্‌ফ্‌ হিট্‌লা'') ([[২০শে এপ্রিল]], [[১৮৮৯]] - [[৩০শে এপ্রিল]], [[১৯৪৫]]) অস্ট্রীয় বংশোদ্ভূত জার্মান রাজনীতিবিদ যিনি [[ন্যাশনাল সোশ্যালিস্ট জার্মান ওয়ার্কার্স পার্টি|ন্যাশনাল সোশ্যালিস্ট জার্মান ওয়ার্কার্স পার্টির]] নেতৃত্ব দিয়েছিলেন। হিটলার ১৯৩৩ থেকে ১৯৪৫ সাল পর্যন্ত [[জার্মানির চ্যান্সেলর]] এবং ১৯৩৪ থেকে ১৯৪৫ সাল পর্যন্ত সে দেশের [[জার্মানির ফিউরার|ফিউরার]] ছিলেন।
 
হিটলার [[প্রথম বিশ্বযুদ্ধ|প্রথম বিশ্বযুদ্ধে]] সৈনিক হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন। পরবর্তীকালে [[ভাইমার প্রজাতন্ত্র|ভাইমার প্রজাতন্ত্রে]] [[নাৎসি]] পার্টির নেতৃত্ব লাভ করেন। অভ্যুত্থান করতে গিয়ে ব্যর্থ হয়েছিলেন যে কারণে তাকে জেল খাটতে হয়েছিল। জেল থেকে ছাড়া পেয়ে মোহনীয় বক্তৃতার মাধ্যমে জাতীয়তাবাদ, ইহুদি বিদ্বেষ ও সমাজতন্ত্র বিরোধিতা ছড়াতে থাকেন। এভাবেই এক সময় জনপ্রিয় নেতায় পরিণত হন। নাৎসিরা তাদের বিরোধী পক্ষের অনেককেই হত্যা করেছিল, রাষ্ট্রের অর্থনীতিকে ঢেলে সাজিয়েছিল, সামরিক বাহিনীকে নতুন নতুন সব অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত করেছিল এবং সর্বোপরি একটি সমগ্রতাবাদী ও ফ্যাসিবাদী একনায়কত্ব প্রতিষ্ঠা করেছিল। হিটলার এমন একটি বৈদেশিক নীতি গ্রহণ করেন যাতে সকল "লেবেনস্রাউম" (জীবন্ত অঞ্চল) দখল করে নেয়ার কথা বলা হয়। [[১৯৩৯]] সালে জার্মানরা [[পোল্যান্ড]] অধিকার করে এবং ফলশ্রুতিতে [[ব্রিটেন]] ও [[ফ্রান্স]] জার্মানির বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে। এভাবেই [[দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ]] শুরু হয়।
 
যুদ্ধের অক্ষ শক্তি তথা জার্মান নেতৃত্বাধীন শক্তি মহাদেশীয় ইউরোপ এবং আফ্রিকা ও এশিয়ার বেশ কিছু অঞ্চল দখল করে নিয়েছিল। কিন্তু অবশেষে মিত্র শক্তি বিজয় লাভ করে। ১৯৪৫ সালের মধ্যে জার্মানি ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়। হিটলারের রাজ্য জয় ও বর্ণবাদী আগ্রাসনের কারণে লক্ষ লক্ষ মানুষকে প্রাণ হারাতে হয়। ৬০ লক্ষ ইহুদিকে পরিকল্পনামাফিক হত্যা করা হয়। ইহুদি নিধনের এই ঘটনা ইতিহাসে [[হলোকস্ট]] নামে পরিচিত।
 
১৯৪৫ সালে যুদ্ধের শেষ দিনগুলোতে হিটলার [[বার্লিন|বার্লিনেই]] ছিলেন। [[রেড আর্মি]] যখন বার্লিন প্রায় দখল করে নিচ্ছিল সে রকম একটা সময়ে [[ইভা ব্রাউন]]কে বিয়ে করেন। বিয়ের পর ২৪ ঘণ্টা পার হওয়ার আগেই তিনি [[ফিউরারবাংকার|ফিউরারবাংকারে]] সস্ত্রীক আত্মহত্যা করেন।
 
এর আসল নাম রিপন, সে বাংলাদেশের প্রথম বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র যে নিজেকে ইসলামিক হিটলার বলে ঘোষণা দেয়।
 
== কৈশোর ও যৌবনকাল ==
বেনামী ব্যবহারকারী