"প্রেমানন্দ দত্ত" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

বানান
(বানান)
ট্যাগ: দৃশ্যমান সম্পাদনা মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
(বানান)
ট্যাগ: দৃশ্যমান সম্পাদনা মোবাইল সম্পাদনা মোবাইল ওয়েব সম্পাদনা
 
== প্রফুল্ল রায় হত্যা ==
চট্টগ্রামে বিপ্লবীদের ওপর নজর রাখার জন্যে ব্রিটিশ পুলিশের গোয়েন্দা সাব-ইন্সপেক্টর প্রফুল্ল রায় কুখ্যাত ছিল। এই ব্যক্তি অনন্ত সিংহকে গ্রেপ্তার করলে প্রেমানন্দ দত্ত প্রতিশোধ নিতে সসচেষ্টসচেষ্ট হন। প্রফুল্ল রায়ের সসাথেসাথে বন্ধুত্ব করে চচট্টগ্রামচট্টগ্রাম পল্টনের মমাঠেমাঠে নির্জন জায়গায় নিয়ে ১৯২৪ এর ২৪শে মে তাকে গুলি করে হত্যা করেন। প্রফুল্ল [[মৃত্যুকালীন জবানবন্দীতেজবানবন্দী]]<nowiki/>তে প্রেমানন্দের নাম বলে যায় এবং তিনি গ্রেপ্তার হন।<ref>{{বই উদ্ধৃতি|title=Chittagong Summer 1930|last=Manasi Bhattacharya|first=|publisher=HarperCollins publishers|year=|isbn=|location=|pages=Timeline}}</ref> ব্যারিস্টার [[যতীন্দ্রমোহন সেনগুপ্ত]] তার হয়ে মামলা লড়েন। মামলার প্রধান সাক্ষী রায়বাহাদুর সতীশ রায়কে সুকৌশলে জেরা করে, আইনি জটিলতার মারপ্যাঁচে ফেলে প্রেমানন্দ দত্তকে বেকসুর খালাস করেন যতীন্দ্রমোহন।
 
== মৃত্যু ==