প্রমথেশ চন্দ্র বরুয়া: সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সংশোধন, বানান সংশোধন
(বট বানান ঠিক করছে, কোনো সমস্যায় তানভিরের আলাপ পাতায় বার্তা রাখুন)
(সংশোধন, বানান সংশোধন)
| image = Pramathesh Barua and Jamuna Barua in Devdas, 1935.jpg
| imagesize =
| caption = দেবদাস চলচিত্রেচলচ্চিত্ৰে প্রমথেশ বরুয়াবড়ুয়া ও যমুনা বরুয়াবড়ুয়া
| birthname = প্রমথেশ চন্দ্র বরুয়া
| birth_date = ২৪ অক্টোবর, ১৯০৩
| birth_place = [[গৌরীপুর]], [[অসম]], [[ভারত]]
| death_date = ২৯ নভেম্বর, ১৯৫১
| death_place = [[কলকতাকলকাতা]], [[পশ্চিম বঙ্গপশ্চিমবঙ্গ]], [[ভারত]]
| othername =
| occupation = অভিনেতা, পরিচালক, চিত্রনাট্য লেখক
| awards =
}}
'''প্রমথেশ চন্দ্র বরুয়া''' ( {{lang-en|Pramathesh Chandra (P.C.) Barua}}; [[অসমীয়া ভাষা|অসমীয়া:প্ৰমথেশ চন্দ্ৰ বৰুৱা]] ) ভারতের একজন বিখ্যাত অভিনেতা, চলচ্চিত্র পরিচালক ও চিত্রনাট্য লেখক ছিলেন। আসামের গৌরীপুরে জন্মগ্রহনজন্মগ্রহণ করা প্রমথেশ বরুয়াবড়ুয়া বাংলা ও হিন্দী চলচিত্রচলচ্চিত্ৰ জগতের একজন বিখ্যাত চলচিত্র নির্মাতা ছিলেন। '''অপরাধী''' চলচ্চিত্রে তিনি সর্বপ্রথম কৃত্রিম আলোর ব্যবহার করেন এবং এটাই ভারতীয় চলচ্চিত্র শিল্পে প্রথম কৃত্রিম আলোর ব্যবহার। তিনিতাঁর অপরাধী চলচিত্রেচলচ্চিত্রে ব্যাবহারব্যবহার করা “কৃত্রিম আলো” ভারতীয় চলচিত্রেচলচ্চিত্র জগতে প্রথম কৃত্রিম ব্যাবস্থাব্যবস্থা ছিল। ভারতীয়দের মধ্যে সর্বপ্রথম তিনি দেবদাস চলচ্চিত্রে ফ্লাস ব্যাক মন্তাজ, টেলিপ্যাথি শট এবং সাবজেকটিভ ক্যামেরার প্রথম ব্যবহার করেন।<ref>http://calcuttaweb.com/cinema/pramatheshbarua.shtml</ref>
 
==শিক্ষা==
প্রমথেশ বরুয়ারবড়ুয়ার জন্ম অসমের গোয়ালপারা[[গোয়ালপাড়া জেলারজেলা]]র গৌরীপুরে হয়েছিল। পিতার নাম প্রভাত চন্দ্র বরুয়া ও মাতার নাম সরোজবালা বরুয়া।<ref>http://web.archive.org/web/20080502101907/http://www.bfjaawards.com/archives/articles/198801.htm</ref> তিনি ছেলেবেলায় গৌরীপুরে ইউনাইটেড ক্লাব নামক একটি সাংস্কৃতিক সংঘের স্থাপনা করে নাটক করিতেন। প্রমথেশ বরুয়া গৌরীপুর বিদ্যালয়ে শিক্ষা সম্পূর্নসম্পূর্ণ করার পর কলকাতার হেয়ার বিদ্যালয়ে নামভর্তীভর্তি করেছিলন।হয়েছিলন। ১৯২১ সনে তিনি কলকাতার বিরেন্দ্রনাথবীরেন্দ্রনাথ মিত্রের কন্যা মাধুরীলতাকে বিবাহ করেছিলেন। ১৯২৮ প্রমথেশ বরুয়া কলকাতার প্রেসিডেন্সী কলেজ থেকে পদার্থ বিজ্ঞানে স্নাতক ডিগ্রী লাভ করেছিলেন। তিনি ইউরোপ ভ্রমণ করার সময় চলচিত্রচলচ্চিত্র জগতের প্রতি তাঁর আগ্রহ জন্মেছিল। ১৯২৬ সনে মাতৃবিয়োগের পর তিনি অসমে ফিরে আসেন ও পিতার সহিত জমিদারী কার্যে মনোনিবেশ করেন। কিছুদিন পর তিনি কলকতারকলকাতার জন্য রওনা হন এবং ঘড়েরঘরের সদস্যেরসদস্যদের আপত্তি থাকা সত্বেও তিনি চলচিত্রচলচ্চিত্র জগতে জড়িত হন। তিনি অমলা বালা বরুয়া ও যমুনা বরুয়াকে বিবাহ করেছিলেন। প্রথমেশ বরুয়া মোট ৬টি সন্তানের পিতৃপিতা ছিলেন।
 
==জীবনী এবং চলচ্চিত্রে অবদান==
১৯২০ সালে কলকাতা [[হেয়ার স্কুল]] থেকে প্রবেশিকা পাশ। ১৯২৪-এ প্রেসিডেন্সি কলেজ থেকে বিএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ। ১৯২৮-এ মনোনীত সদস্য হিসেবে আসাম আইনসভায় যোগদান। ১৯৩০-এ উক্ত আইনসভার সদস্য নির্বাচিত।তিনি মোট ১৪টি বাংলা ও সাতটি হিন্দি ছবি পরিচালনা করেন।<ref name="ReferenceA">[[সেলিনা হোসেন]] ও নুরুল ইসলাম সম্পাদিত; বাংলা একাডেমী চরিতাভিধান; ফেব্রুয়ারি, ১৯৯৭; পৃষ্ঠা- ২৩১।</ref> প্রমথেশ চন্দ্র বরুয়া কলকাতার ধীরেন[[ধীরেন্দ্রনাথ নাথগাঙ্গুলী]]র গাঙ্গুলির দা'দ্য ব্রিটিশ ডমিনিয়ান ফিল্ম লিমিটেডেলিমিটেড'এ ধন নিবেশমনোনিবেশ করেছিলেন ও তিনি এই প্রতিষ্ঠানে অভিনয় করেছিলেন।তিনি দ্বিতীয়বার ইউরোপ ভ্রমনের জন্য গিয়েছিলেন ও লন্ডন থেকে চলচিত্র নির্মানের জন্য প্রশিক্ষন নিয়েছিলেন ও পেরিসেপ্যারিসে লাইট বয় হিসেবে কাজ করে চলচিত্রচলচ্চিত্র নির্মানের কার্য আয়ত্ত করেছিলেন। পেরিসপ্যারিস থেকে চলচিত্রচলচ্চিত্র নির্মানের সামগ্রী ক্রয় করে তিনি ভারতে বরুয়াবড়ুয়া পিক্চার্স নামক ষ্টুডিও স্থাপন করেছিলেন। ১৯৩১ সনে এই ষ্টুডিওর প্রথম চলচিত্রচলচ্চিত্র 'অপরাধী' মুক্তি পেয়েছিল। কালিপ্রসাদকালীপ্রসাদ ঘোষ পরিচালিত ভাগ্যলক্ষী[[ভাগ্যলক্ষ্মী]] চলচিত্রেচলচ্চিত্ৰে তিনি খলনায়করেরখলনায়কের চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। থীরেন[[ধীরেন্দ্রনাথ নাথ গাঙ্গুলিগাঙ্গুলী]], প্রমথেশ বরুয়াবড়ুয়া[[দেবকী বসু]] একত্রিত হয়ে [[নিউ থিয়েটারথিয়েটর্স]] নামক চলচিত্রচলচ্চিত্র প্রয়োজনা প্রতিষ্ঠানে যোগদান করেছিলেন। এই থিয়েটারের অন্তঃভুক্ত থাকার সময় তিনি দেবদাস চলচিত্র নির্মাননির্মাণ করেছিলেন। [[শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়]] রচিত উপন্যাসে আধারিত এই চলচিত্রচলচ্চিত্র প্রথমে বাংলা ভাষায় নির্মাননির্মাণ করা হয়েছিল এবং ১৯৬৩১৯৩৫ সনে তিনি হিন্দী ভাষায় দেবদাস চলচিত্রচলচ্চিত্র নির্মান করেছিলেন। তিনি হিন্দী চলচিত্রচলচ্চিত্র মন্জিল, মুক্তি, অধিকার ও রজত জয়ন্তীতে পরিচলনা করেছিলেন।
 
==মৃত্যু==
অত্যধিক সুরাপানের ফলে প্রথমেশ বরুয়ারবড়ুয়ার স্বাস্থস্বাস্থ্য ধীরে ধীরে নষ্ট হতে থাকে; ফলে ১৯৫১ সনের ৩১৩১শে নভেম্বর তারিখে প্রমথেশ বরুয়ারবড়ুয়ার মৃত্যু হয়। কলকাতার কেওরালতা[[ক্যাওড়াতলা]] সমাধিক্ষেত্রেমহাশ্মশানে প্রথমেশ বরুয়ার অন্তিম কার্য সমাপ্ত করা হয়।
==প্রমথেশ বরুয়ার চলচিত্র==
;পরিচালনা
*মঞ্জিল(১৯৩৬) .... মহিম
*দেবদাস (১৯৩৫) .... দেবদাস
*রূপ লেখা (১৯৩৪) .... অরুপঅরূপ
*বেঙ্গল ১৯৮৩ (১৯৩২)
*অপরাধী (১৯৩১)
*চরিত্ৰহীন (১৯৩১)
*টাকাইটাকায় কি না হয় (১৯৩১)
</div>
 
৪,২২৫টি

সম্পাদনা