"প্রেরিত শিষ্য যোহনের নিকট প্রকাশিত বাক্য" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সম্পাদনা সারাংশ নেই
''প্রকাশিত বাক্য'' পুস্তকের গ্রন্থকার নিজের নাম "যোহন" বলে উল্লেখ করেছেন। তবে তাঁর সঠিক পরিচয় গবেষকদের মধ্যে একটি বিতর্কের বিষয় হয়ে রয়ে গিয়েছে। [[জাস্টিন মারট্যার]], [[আইরেনিয়াস]], সার্ডিসের বিশপ [[মেলিটো]], [[আলেকজান্দ্রিয়ার ক্লিমেন্ট]] এবং [[মিউর্যােটরিয়ান পুথি|মিউর্যাপটরিয়ান পুথির]] রচয়িতা ''প্রকাশিত বাক্য'' পুস্তকের "যোহন"কে [[প্রেরিত যোহন]] বলে চিহ্নিত করেন।<ref>{{cite book|last1=Carson|first1=Don|title=An Introduction to the New Testament|date=2005|publisher=Zondervan|location=Grand Rapids, Michigan|isbn=0-310-51940-3|page=465ff|edition=2nd}}</ref> আধুনিক গবেষকেরা সাধারণভাবে ভিন্নমত পোষণ করেন।{{sfn|Collins|1984|p=28}} অনেকেই মনে করেন, এই পুস্তকের রচয়িতা একজন [[খ্রিস্টান]] নবি (ভবিষ্যদ্বক্তা){{sfn|Bauckham|1992|p=2}} কোনও কোনও আধুনিক গবেষক এই পুস্তকের রচয়িতাকে এক অনুমিত চরিত্র মনে করেন। তাঁরা এই চরিত্রটির নাম দিয়েছেন "[[প্যাটমোসের জন]]"। একাধিক প্রথাগত সূত্র থেকে জানা যায়, সম্রাট [[ডোমিশিয়ান|ডোমিশিয়ানের]] রাজত্বকালে (৮১-৯৬ খ্রিস্টাব্দ) এই গ্রন্থটি রচিত হয়েছিল। এই ধারণার সপক্ষে যথেষ্ট প্রমাণও পাওয়া গিয়েছে।{{sfn|Stuckenbruck|2003|p=1535-1536}}
 
''প্রকাশিত বাক্য'' পুস্তকটি তিনটি সাহিত্য বর্গের অন্তর্গত: [[চিঠি|পত্রমূলক]], [[রহস্যোদ্ঘাটনমূলক সাহিত্য|রহস্যোদ্ঘাটনমূলক]] ও [[ভবিষ্যদ্বাণীমূলক]]।{{sfn|Stuckenbruck|2003|p=1536}} এই পুস্তকের শুরুতে দেখা যায় [[ইজিয়ানএজিয়ান সাগর|ইজিয়ানেরএজিয়ানের]] [[প্যাটমোস]] দ্বীপ থেকে যোহন "[[এশিয়া (রোমান প্রদেশ)|এশিয়ার]] [[এশিয়ার সপ্ত মণ্ডলী|সপ্ত মণ্ডলী"র]] উদ্দেশ্যে একটি পত্র রচনা করছেন। এরপর তিনি [[দৃষ্টি (আধ্যাত্মিকতা)|ভাবদৃষ্টিতে]] দেখা একাধিক ঘটনার বিবরণ দিয়েছেন। এই বিবরণের মধ্যে রয়েছে [[ব্যাবিলনের মহাগণিকা]] ও [[পশু (প্রকাশিত বাক্য)|পশু]] এবং পরিশেষে [[যিশু|যিশুর]] [[দ্বিতীয় আগমন]]।
 
এই পুস্তকের অস্পষ্ট ও অত্যধিক কল্পনামূলক বিবরণগুলিএ একাধিক খ্রিস্টীয় ব্যাখ্যা রয়েছে: [[ইতিহাসবাদ (খ্রিস্টধর্ম)|ইতিহাসবাদী]] ব্যাখ্যা অনুসারে, ভাবদৃষ্টিতে দেখা এই ঘটনাগুলি হল ইতিহাসের একটি প্রসারিত দৃষ্টিভঙ্গি; [[প্রিটারিস্ট]] ব্যাখ্যা অনুসারে, এই ঘটনাগুলি প্রধানত [[প্রেরিতদের যুগ|প্রেরিতদের যুগের (খ্রিস্টীয় ১ম শতাব্দ)]] বা অনন্তপক্ষে [[রোমান সাম্রাজ্য|রোমান সাম্রাজ্যের]] পতনের ইঙ্গিতবাহী; [[ভবিষ্যৎবাদ (খ্রিস্টধর্ম)|ভবিষ্যৎবাদীরা]] মনে করেন, এই পুস্তকে উল্লিখিত ঘটনাগুলি ভবিষ্যতের ঘটনার বিবরণ; এবং [[আদর্শবাদ (খ্রিস্টীয় পুনরুত্থানবাদ)|আদর্শবাদী ও প্রতীকবাদী]] ব্যাখ্যা অনুসারে, এই ঘটনাগুলি প্রকৃত ঘটনা বা ঐতিহাসিক ব্যক্তিত্বের বিবরণ নয়, বরং এগুলি আধ্যাত্মিক পথ এবং সৎ ও অসতের দ্বন্দ্বের একটি [[রূপক]]।