লূত (ইসলাম): সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

 
== কুরআনের বর্ণনানুসারে লূত(আঃ) এবং তার সম্প্রদায়ের কাহিনী ==
পবিত্র কুরআনে ১৫,২৬,২৯ এবং ৬৬ নম্বর [[সূরা|সূরাসমূহের]] বিভিন্ন অংশে লূত(আঃ) এর কাহিনী বর্ননা করেন| লূত(আঃ) এর জাতি পার্থিব উন্নতির চরম উৎকর্ষে পৌছে যাওয়ার কারণে বিলাসিতার অতিশয্যে সীমালঙ্ঘনের দিক দিয়ে তাদের পূর্বের গযবপ্রাপ্ত জাতিগুলোকেও ছাড়িয়ে গিয়েছিল| লূত(আঃ) এর জাতি ব্যভিচার ও অজাচার তো করতোই, তার উপর সমকামিতার মত চরম সীমালঙ্ঘনও তারাই প্রথম শুরু করে, যা তাদের পূর্বে কেউ কখনো করে নি; উপরন্তু, তারা এর ফলে বিন্দুমাত্র অনুতপ্ত না হয়ে গর্বভরে তা সমাজে প্রকাশ করে বেড়াত এবং প্রকাশ্যে ও নির্লজ্জভাবে এসব নিষিদ্ধ কাজগুলো করত| আল্লাহ তাআলা তাই লূত(আঃ)কে তার জাতির জন্যে সতর্ককারী নবী মনোনীত করলেন এবং আল্লাহকে ভয় করে তাদের এসব কাজ থেকে বিরত থাকতে বলার নির্দেশ দিলেন| লুত(আঃ) দীর্ঘ সময় ধরে সতর্ক করার পরও যখন তাদের পরিবর্তন হল না তখন আল্লাহ তাআলা চুড়ান্ত বিপর্যয়ের মাধ্যমে সমগ্র এলাকা উলটিয়ে দেন, আকাশ থেকে একাধারে বৃষ্টি ও পাথর বর্ষণ করে সমগ্র জাতিকে সমুলে নিশ্চিহ্ন করে দেন|দেন। বর্ণিত আছে, বর্তমান [[মৃত সাগর]] বা ডেড সি হল লুত (আঃ) এর জাতির সেই বাসস্থান যেখানে তাদের ধ্বংস করা হয়েছিলো|
 
==তথ্যসূত্র==
১৪,৯০৫টি

সম্পাদনা