"শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

URLPHP-এর সম্পাদিত সংস্করণ হতে NahidSultan-এর সম্পাদিত সর্বশেষ সংস্করণে ফেরত
(URLPHP-এর সম্পাদিত সংস্করণ হতে NahidSultan-এর সম্পাদিত সর্বশেষ সংস্করণে ফেরত)
[[চিত্র:শাবিপ্রবি ১কিলোমিটার.jpeg|right|thumb|236x236px|'এক কিলো'; শাবিপ্রবির প্রবেশমুখের ১ কিলোমিটার রাস্তা]]
শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, প্রকৌশল সাস্ত্রে বিশেষ অবদান প্রদানকারী ও বাংলাদেশে নেত্তৃত্ব স্থানীয় এ বিশ্ববিদ্যালয় টি ২৫ শে আগষ্ট ১৯৮৬ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় এবং ১৯৯১ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি তিনটি বিভাগ নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কার্যক্রম শুরু হয়। এর ক্যাম্পাসটি সিলেট শহর হতে প্রায় ৫ কিলোমিটার দূরে কুমারগায়ে অবস্থিত। বিশ্ববিদ্যালয়ে ৬টি অনুষদের অধীনে ২৫ টি ডিপার্টমেন্ট রয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম ও দ্বিতীয় সমবর্তন অনুষ্ঠিত হয় যথাক্রমে ২৯ এপ্রিল ১৯৯৮ এবং ৬ ডিসেম্বর ২০০৭ সালে।<ref>[http://www.sust.edu/~convocation2007/index.html ~::Convocation 2007, Shah Jalal University of Science & Technology, Sylhet::~<!-- Bot generated title -->]</ref>
এছাড়া ওয়েবমেট্রিক্স র‍্যাংকিং এ এই বিশ্ববিদ্যালয়ের খুবই ভাল অবস্থান দখল করে আছে। এই র‍্যাংকিং গবেষনা, ফলাফল এবং প্রভাবের উপর ভিত্তি করে করা হয়।
 
== একাডেমিক কার্যক্রম ==
 
 
[[;ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড টি টেকনোলজি (Food Engineering and Tea Technology)]]:
শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় এর অন্যতম বিভাগ। এ বিভাগের শিক্ষার্থীরা যাতে খাদ্যপ্রকৌশল ও চা প্রযুক্তি এ উভয় শাখায়ই দক্ষতা লাভ করতে পারে। যদিও ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড টি টেকনোলজি বিষয়টি বাংলাদেশ-এ নতুন।
 
[[;পরিসংখ্যান ও পরিবেশ প্রকৌশল বিভাগ]]:
পরিসংখ্যন বিভাগের যাত্রা শুরু হয় ১৯৯১ সাল থেকে। পরিসংখ্যান বিভাগের প্রতিষ্ঠাতা এই বিভাগের প্রবীন শিক্ষক প্রফেসর এমাদ উদ্দিন আহমদ। পরিসংখ্যান বিভাগে প্রায় ২৭ জন ফেকাল্টি সদস্য এবং ছাত্র-ছাত্রির সংখ্যা প্রায় ৩৫০ জন। এই বিভাগে ৮জন অধ্যাপক ,৫ জন সহযোগী অধ্যাপক , ১০ জন সহকারী অধ্যাপক এবং ৪ জন লেকচারার রয়েছেন ।
 
 
== আবাসিক হলসমূহ ==
শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে বর্তমানে পাঁচটি ছাত্রাবাস রয়েছে। এছাড়া শিক্ষকদের জন্য রয়েছে ডরমেটরি এবং আবাসিক সুবিধা। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম ছাত্রাবাস শাহপরান হল। প্রতিটি হলের তত্বাবধানে রয়েছেন একজন প্রভোস্ট। সাধারণত সিনিয়র শিক্ষদের মধ্য হতে প্রভোস্ট নির্বাচন করা হয়। এটি দেশের সর্বপ্রথম বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে শিক্ষার্থী এবং স্টাফদের জন্য বিনামূল্যে সম্পূর্ণ ক্যাম্পাসে [[ওয়াই ফাই]] চালু করে।<ref name="thedailystar.net" />
 
সাস্টের পাঁচটি শিক্ষার্থীদের আবাসিক হল হচ্ছে :
৪,১৬৫টি

সম্পাদনা