গুটেনবের্গ প্রকল্প: সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সম্পাদনা সারাংশ নেই
সম্পাদনা সারাংশ নেই
সম্পাদনা সারাংশ নেই
 
== ইতিহাস ==
প্রোজেক্ট গুটেনবার্গ হচ্ছে পৃথিবীর প্রথম ই-বুক নির্মাতা। প্রোজেক্টেরগুটেনবার্গের যাত্রা শুরু হয় [[১৯৭১]] সলে [[মাইকেল এস. হার্ট]] নামে একজন জনদরদী ব্যক্তির প্রচেষ্টায়। তিনিই প্রথম ডিজিটাল বইয়ের প্রয়োজনীয়তা উপলব্ধীউপলব্ধি করেন এবং সারা বিশ্বের কপিরাইট মুক্ত বইগুলো ডিজিটালাইজেশন শুরু করেন। বইগুলো মুক্ত ফরম্যাটে এমনভাবে রুপান্তরিত করা হয় যাতে বিশ্বের সকল কম্পিউটারে তা পড়া যায়। এছাড়াও বইগুলো প্ল্যাম, অরগানাইজার ও স্মার্টফোন এমনকি জাভা এনাবল মোবাইলের জন্য বিশেষভাবে তৈরি ফরম্যাটেও পাওয়া যায়। সারা বিশ্বের ১০০০০ এরও বেশী সেচ্ছাসেবকের অবদানে গড়ে উঠেছে এই বিশাল সংগ্রহ। বিশ্বের যেকেউ অবদান রাখতে পারেন এখানে বই স্ক্যানিং, প্রুফ রিডিং ও সিডি-ডিভিডি বিতরণের মাধ্যমে। যেহেতু প্রোজেক্ট গুটেনবার্গ বইগুলো বিনামূল্যে বিতরণ করে তাই এই সংগ্রহের পুরোটাই কপিরাইট মুক্ত। অধিকাংশ বই-ই ১৯২৩ সালের আগে প্রকাশিত।
 
১৯৭১ সালে মাইকেল এস হার্ট যখন যুক্তরাষ্টের ইলিনয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র তখন তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যাটেরিয়ালস রিসার্স ল্যাবে আনলিমিটেড কম্পিউটার ব্যবহারের সুযোগ পান, সে সময় যার আর্থিক মূল্য বিবেচনা করা হয় প্রায় ১০০০০০ ডলারেরও বেশী। তিনি এই সুযোগ কাজে লাগান জনকল্যাণমুলক কিছু করার জন্য। তখন তাঁর লক্ষ্য ছিল ২০০০ সালের মধ্যে অন্তত ১০০০০ বইয়ের ডিজিটাল ভার্সন প্রকাশ করা যা জনসাধারণ বিনামূল্য বা নামমাত্র মূল্যে পাবে। যুক্তরাষ্টের স্বাধীনতার ঘোষণা পত্র ছিল প্রোজেক্টের প্রথম ডিজিটাল বই। প্রোজেক্টের নাম রাখা হয় ১৫ শতকের বিখ্যাত প্রকাশক জোহানস গুটেনবার্গের নামানুসারে যিনি বহনযোগ্য ছাপাখানার জন্য বিখ্যাত ছিলেন।
৭৩টি

সম্পাদনা