"ফুটবল ক্লাব বার্সেলোনা" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

Iqbal diu-এর সম্পাদিত সংস্করণ হতে Musabbir Islam-এর সম্পাদিত সর্বশেষ সংস্করণে ফেরত
(→‎সমর্থন: ফেসবুক ফ্যান সম্পর্কিত তথ্য সংযুক্ত করা হয়েছে)
(Iqbal diu-এর সম্পাদিত সংস্করণ হতে Musabbir Islam-এর সম্পাদিত সর্বশেষ সংস্করণে ফেরত)
 
স্পেনের মোট জনসংখ্যার প্রায় ২৫% বার্সেলোনার সমর্থক এবং [[রিয়াল মাদ্রিদ ফুটবল ক্লাব|রিয়াল মাদ্রিদের]] সমর্থক প্রায় ৩২%।<ref>{{cite web|url=http://www.cis.es/cis/export/sites/default/-Archivos/Marginales/2700_2719/2705/Es2705mar_A.pdf|title=Ficha Técnica|trans_title=প্রায়োগিক|publisher=Centro de Investigaciones Sociológicas|format=PDF|date =মে ২০০৭|accessdate=২৭ জানুয়ারি ২০১৩|language=স্পেনীয়}}</ref> সমগ্র ইউরোপ জুড়ে, বার্সেলোনা সবচেয়ে জনপ্রিয় দ্বিতীয়-পছন্দের ক্লাব।<ref>Chadwick, Simon; Arthur, Dave. pp. 4–5.</ref> ২০০৩–০৪ মৌসুমে ক্লাবের সদস্য সংখ্যা ছিল ১০০,০০০। ২০০৯ সালে যা বেড়ে দাড়ায় ১৭০,০০০-এ।<ref name=socis>{{cite web|url=http://www.sport.es/es/noticias/barca/20090919/barcelona-tiene-170000-socios/813866.shtml|title=El FC Barcelona ya tiene 170.000 socios|publisher=SPORT.es|language=Spanish|date=১৯ সেপ্টেম্বর ২০০৯|first=Víctor|last=Aznar|accessdate=২৭ জানুয়ারি ২০১৩}}</ref> সদস্যদের পাশাপাশি বার্সেলোনার কিছু নিবন্ধিত ফ্যান ক্লাব রয়েছে। জুন ২০১০ অনুযায়ী, বার্সেলোনার মোট নিবন্ধিত ফ্যান ক্লাবের সংখ্যা ১,৩৩৫। ফ্যান ক্লাবগুলো তাদের এলাকায় বার্সেলোনার প্রচারনা চালায় এবং বার্সেলোনা ভ্রমনের সময় লাভজনক প্রস্তাবনা পেয়ে থাকে।<ref>{{cite web|url=http://www.fcbarcelona.com/web/english/penyes/llistat_penyes/llistat_penyes.html|title=Penyes|publisher=এফসি বার্সেলোনা|accessdate=২৭ জানুয়ারি ২০১৩}}</ref> ক্লাবের সমর্থকদের মধ্যে অসংখ্য বিশিষ্ট ব্যক্তি ছিলেন। যাদের মধ্যে ধর্মজাজক জন পল-২ এবং স্পেনের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী জোসে লুইস রোদ্রিগুয়েজ জাপাতেরো উল্লেখযোগ্য।<ref>{{Cite news|url=http://pqasb.pqarchiver.com/washingtonpost/access/377088531.html?dids=377088531:377088531&FMT=ABS&FMTS=ABS:FT&type=current&date=Jul+29%2C+2003&author=Steven+Goff&pub=The+Washington+Post&desc=Barça+Isn%27t+Lounging+Around%3B+Storied+Catalonian+Club+Plots+Its+Return+to+the+Top|title=Barça Isn't Lounging Around; Storied Catalonian Club Plots Its Return to the Top|first=Steven|last=Goff|work=The Washington Post|date=২৯ জুলাই ২০০৩}}</ref><ref>{{Cite news|url=http://nation.ittefaq.com/issues/2008/07/02/news0376.htm|agency=Associated Press|title=Spain's football team welcomed by royals|work=The New Nation|accessdate=১০ আগস্ট ২০১০}}</ref> ইউরোপীয় ফুটবলে বার্সেলোনার দ্বিতীয় সর্বোচ্চ গড় উপস্থিতি রয়েছে। গড় উপস্থিতির দিক থেকে প্রথম স্থানে রয়েছে [[বরুসিয়া ডর্টমুন্ড]]।<ref>{{cite web|url=http://soccernet.espn.go.com/stats/attendance/_/league/ger.1/year/2010/german-bundesliga?cc=5901|title=German Bundesliga Stats: Team Attendance – 2010–11|publisher=ESPN Soccernet|date=১৯ মে ২০১১}}</ref><ref>{{cite web|url=http://arxiu.fcbarcelona.cat/web/english/noticies/club/temporada10-11/05/17/n110517117527.html|title=Camp Nou league attendances rise by 2.7%|publisher=এফসি বার্সেলোনা|date=১৯ মে ২০১১|accessdate=২৭ জানুয়ারি ২০১৩}}</ref>
বাংলাদেশে এবং ভারতের কলকাতায় বার্সেলোনার প্রচুর ভক্ত রয়েছে । বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ রক্ষাকারী সাইট যেমন ফেসবুকে এর প্রমান পাওয়া যায় । বাংলায় অনেক বার্সেলোনা ফ্যান পেজ রয়েছে । যার মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় [https://www.facebook.com/bdfcb ফুটবলটা বার্সেলোনাই খেলে, তাই আমরা বার্সা সমর্থক] । ১৮ হাজার ফ্যান সম্বলিত এই ফেসবুক পেজটি মূলত বাংলাদেশ থেকে পরিচালিত হয় । তবে ভারতের কলকাতার কিছু এডমিন ও রয়েছে এই পেজে ।
 
==দলীয় প্রতিদ্বন্দ্বীতা==
৩,২৫১টি

সম্পাদনা