"নীহাররঞ্জন রায়" পাতাটির দুইটি সংশোধিত সংস্করণের মধ্যে পার্থক্য

সাধারণ সম্পাদনা
(সাধারণ সম্পাদনা)
| caption = নীহাররঞ্জন রায়
| birth_date = {{Birth date|1903|01|14}}
| birth_place = [[ময়মনসিংহ জেলা|ময়মনসিংহ]], [[বাংলা প্রদেশ]], [[ব্রিটিশ ভারত]]
| death_date = {{Death date and age|1981|08|30|1903|01|14|mf=yes}}
| death_place = [[কলকাতা]], [[পশ্চিম বাংলা]], [[ভারত]]
| spouse = [[মণিকা রায়]] <small>(১৯০৪ - ১৯৯১)</small>
| children = দুই পুত্র ও এক কন্যা
| relatives = চার পৌত্র-পৌত্রী ও দৌহিত্রী
 
== জন্ম ==
১৯০৩ সালের ১৪ই জানুয়ারী [[ময়মনসিংহ|ময়মনসিংহের]] [[কিশোরগঞ্জ জেলা|কিশোরগঞ্জে]] জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতার নাম মহেন্দ্রচন্দ্র রায়। তিনি মণিকা রায় নামীয় এক রমণীকে বিয়ে করেন। রায় দম্পতির সংসারে দুই পুত্র এবং এক কন্যা রয়েছে।<ref name="deys"/>
 
== শিক্ষাজীবন ==
প্রাথমিক শিক্ষা ময়মনসিংহে সম্পন্ন হয়। শ্রীহট্টের [[মুরারীচাঁদমুরারিচাঁদ কলেজ]] থেকে ইতিহাসে অনার্স সহ বি, .এ পাস করেন ১৯২৪ সালে। পরে [[কলিকাতা বিশ্ববিদ্যালয়]] থেকে ১৯২৬ সালে প্রাচীন ভারতের ইতিহাসের শিল্পকলা শাখায় এম .এ পাস করে রেকর্ড মার্ক -সহ প্রথম শ্রেণীতে প্রথম স্থান লাভ করেন। ১৯২৭ সালে [[কলিকাতা বিশ্ববিদ্যালয়]]-এবিশ্ববিদ্যালয়ে রিসার্চ ফেলো হিসাবে নিযুক্ত হয়ে গবাষণায় ব্রতী হন। বৃত্তি নিয়ে ১৯৩৫ সালে [[ইউরোপ]] যান এবং [[হল্যান্ড]]-এর [[লাইডেন বিশ্ববিদ্যালয়]] থেকে ডক্টরেট ডিগ্রী এবং লন্ডন থেকে [[গ্রন্থাগার]] পরিচালনা বিষয়ে ডিপ্লোমা নেন।
 
== কর্মজীবন ==
 
===অবৈতনিক কর্ম===
* সম্পাদক: এশিয়াটিক সোসাইটি, কলকাতা, ১৯৪৮-৫০।<ref>Chakrabarty, Ramakanta (ed.) (2008). ''Time Past and Time Present'', Kolkata: The Asiatic Society, p.28</ref>
* মূল সভাপতি: নিখিল ভারত বঙ্গ সাহিত্য সম্মেলন, লখনউ অধিবেশন, ১৯৫৩ ও জামশেদপুর অধিবেশন, ১৯৮০।
* সদস্য: উপদেষ্টা পরিষদ, ভারতীয় পুরাতত্ত্ব আধিকারিক।
* মূল সভাপতি: ভারতীয় পি-ই-এন কংগ্রেস, পাটিয়ালা, ১৯৬৯।
* সভাপতি: অল ইন্ডিয়া ওরিয়েন্টাল কনফারেন্স, শান্তিনিকেতন, ১৯৮০।
* রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর অধ্যাপক: কেরল বিশ্ববিদ্যালয়, ত্রিবান্দাম, ১৯৬৩; মহারাজা সয়াজীরাও বিশ্ববিদ্যালয়, বনোদাবরোদা, ১৯৬৬ ও পঞ্জাব বিশ্ববিদ্যালয়, চণ্ডীগড়, ১৯৭২।
 
== রাজনৈতিক জীবন ==
* [[সরোজিনী স্বর্ণপদক]], কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়, ১৯৬০।
* ১৯৬৯ সালে [[সাহিত্য অকাদেমি পুরস্কার]] লাভ করেন।
* তাঁর কর্ম কুশলতা ও সাংস্কৃতিক অবদানের স্বীকৃতিতে ভারত সরকার তাঁকে ১৯৬৯ সালে [[পদ্মভূষণ]] উপাধিতে ভূষিত করেন।<ref name=deys>Ray, Niharranjan (1993). ''Bangalir Itihas: Adiparba'', Kolkata: Dey's, ISBN 81-7079-270-3, pp.761-3</ref>
* বিমলাচরণ লাহা স্বর্ণপদক, এশিয়াটিক সোসাইটি, কলকাতা, ১৯৭০।
* প্রফুল্লকুমার সরকার (আনন্দ) পুরস্কার, কলকাতা, ১৯৮০।
৭৪,৫৪৩টি

সম্পাদনা