বিরজিস কদর (হিন্দি: बिरजिस क़द्र ২০ আগস্ট ১৮৪৫– ১৪ আগস্ট ১৮৯৩) ছিলেন ওয়াজেদ আলি শাহর পুত্র এবং আওধের শেষ নবাব।[১][২]

নবাব বিরজিস কদর
ওয়ালি (রাজকীয় উপাধি)
আওধের বাদশাহ
বিরজিস কদর
अवध ध्वज.gif আওধের ৬ষ্ঠ বাদশাহ
রাজত্ব১০ মে ১৮৫৭ – ৮ জুলাই ১৮৫৯
পূর্বসূরিওয়াজেদ আলি শাহ
উত্তরসূরিপদ বিলুপ্ত
জন্ম(১৮৪৫-০৮-২০)২০ আগস্ট ১৮৪৫
কায়সার বাগ, লখনৌ, ভারত
মৃত্যু১৪ আগস্ট ১৮৯৩(1893-08-14) (বয়স ৪৭)
কলকাতা, ভারত
রাজবংশআওধ
পিতাওয়াজেদ আলি শাহ
মাতাবেগম হজরত মহল
ধর্মইসলাম

সিপাহী বিদ্রোহের সময় বিরজিস কদর ব্রিটিশদের বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছিলেন।

ব্রিটিশদের হাত থেকে বাঁচার জন্য বিরজিস কদর কাঠমান্ডুতে আশ্রয় নিয়েছিলেন। দামি রত্নের বিনিময়ে জং বাহাদুর রানা তাকে আশ্রয় দেন। কলকাতা ফেরার পূর্বে ইনি ১৮ বছর কাঠমান্ডুতে ছিলেন। তিনি একজন কবিও ছিলেন। কাঠমান্ডুতে তিনি অনেক তারাহি মাহফিল ই মুশাইরা বা কবিতা আসরের আয়োজন করেছেন। তৎকালীন লেখক খাজা নাইমউদ্দিন বাদাখশি এসব লিপিবদ্ধ করেছিলেন। ১৯৯৫ সালে অধ্যাপক আবদুর রউফ ও আদিল সরওয়ার নেপালি কাঠমান্ডু থেকে তার মজলিস ই মুশাইরা উদ্ধার করেন এবং তা নেপাল মে উর্দু শাইরি নামে প্রকাশিত হয়।

পূর্বসূরী
আবুল মনসুর মীর্জা মুহাম্মদ ওয়াজেদ আলি শাহ
পাদশাহ-ই-আওধ, শাহ-ই-জামান
১৮৫৭
উত্তরসূরী
বিলুপ্ত

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Indian Princely States A-J"worldstatesmen.org। সংগ্রহের তারিখ ১৯ জুলাই ২০১৫ 
  2. "Indian states before 1947 A-J"rulers.org। সংগ্রহের তারিখ ১৯ জুলাই ২০১৫ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা