পটিয়া সরকারি কলেজ

পটিয়া সরকারি কলেজ দক্ষিণ চট্টগ্রামের একটি শীর্ষস্থানীয় এবং ঐতিহ্যবাহী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এটি চট্টগ্রাম জেলার পটিয়া উপজেলার জিরো পয়েন্টে অবস্থিত। এই কলেজ বাংলাদেশ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত।

পটিয়া সরকারি কলেজ
Patiyagovtcollegelogo Fahad.jpg
নীতিবাক্যআলো আরো আলো
ধরনসরকারি কলেজ
স্থাপিত১৯৬২
অধ্যক্ষপ্রফেসর মোহাম্মদ মোজাম্মেল হক
শিক্ষায়তনিক কর্মকর্তা
৪১
শিক্ষার্থী৫০০০
অবস্থান, ,
২২°১৭′৩২″ উত্তর ৯১°৫৮′৫৪″ পূর্ব / ২২.২৯২২৫০° উত্তর ৯১.৯৮১৭৫৪° পূর্ব / 22.292250; 91.981754স্থানাঙ্ক: ২২°১৭′৩২″ উত্তর ৯১°৫৮′৫৪″ পূর্ব / ২২.২৯২২৫০° উত্তর ৯১.৯৮১৭৫৪° পূর্ব / 22.292250; 91.981754
শিক্ষাঙ্গনকলেজ রোড, পটিয়া, চট্টগ্রাম
রঙসমূহ         
ওয়েবসাইটpatiyagovtcollege.gov.bd

অবস্থানসম্পাদনা

অত্র কলেজটি চট্টগ্রাম জেলা পটিয়া থানার পাশে অবস্থিত। এর উত্তর পাশে রয়েছে উপমহাদেশের বিখ্যাত ইসলামি বিশ্ববিদ্যালয় আল জামিয়া আল ইসলামিয়া পাটিয়া

প্রতিষ্ঠার পটভূমিসম্পাদনা

পটিয়া উপজেলায় জিরো পয়েন্টে আরাকান সড়ক সংলগ্ন স্থানে ২.৫ একর জমির উপর কলেজের অবস্থান। পটিয়া ও আনোয়ারা থানার বিশিষ্ট বিদ্যানুরাগী ব্যক্তিদের নিয়ে ১৯৬২ সনে পটিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসকে কেন্দ্র করে পটিয়া কলেজের আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হয়।

১৯৬৩ সনে পটিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের দানকৃত ২.৫ একর জায়গায় কলেজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করা হয় এবং আগস্ট মাসের প্রথম সপ্তাহে ড. আতাউল হাকিম আনুষ্ঠানিকভাবে কলেজের ক্লাস উদ্বোধন করেন। ১৯৬৭ সালের ২৩ জুলাই কলেজের বিজ্ঞান ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হয়। ১৯৭১ সনে স্বাধীনতার মহান মুক্তিযুদ্ধে অত্র কলেজ গুরুত্বপূণ ভুমিকা পালন করে। ১৯৭১ সন পর্যন্ত বাবু শান্তিময় খাস্তগীর ও ‍হামিদুর রহমান সাহেবের আন্তরিক সহযোগিতায় আরও ৪.৭৬ একর জমি লাভ করে কলেজের কলেবর বৃদ্ধি হয়। ১৯৭৮ সনে পটিয়া কলেজকে জাতীয়করণ করার ঘোষণা দেয়া হয় ও ১ মার্চ ১৯৮০ সনে কলেজটি জাতীয়করণ করা হয়।

অবকাঠামোসম্পাদনা

কলেজের অভ্যন্তরেই বিশাল আকৃতির পুকুর অবস্থিত।

বিভাগ সমূহসম্পাদনা

ডিগ্রী পাস কোর্স ছাড়াও বর্তমানে ব্যবস্থাপনা, হিসাববিজ্ঞান, গণিত, পদার্থবিজ্ঞান, রসায়ন, অর্থনীতি, রাষ্ট্রবিজ্ঞান, ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি, দর্শন, বাংলা ও ইংরেজি-এ ১১টি বিষয়ে অনার্স কোর্সের কার্যক্রম চলছে এবং আরো বিষয়ে অনার্স কোর্স চালু প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

সম্প্রতি ব্যবস্থাপনা, হিসাববিজ্ঞান বিষয় নিয়ে মাস্টার্স কোর্স চালু হয়েছে।

কলেজ ভবনসম্পাদনা

বতমানে কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক, ডিগ্রী ও অনার্স শ্রেণীর ৫০০০ ছাত্র-ছাত্রীর জন্য ২টি বৃহদাকার ত্রিতল ভবন রয়েছে যার একটিতে বিজ্ঞানাগার সহ ১৮টি শ্রেণীকক্ষ ও অপরটিতে ৯টি শ্রেণীকক্ষ রয়েছে। তাছাড়াও লাইব্রেরীসহ ৬ কক্ষ বিশিষ্ট আরো একটি দিতল প্রশাসনিক ভবন ও ছাত্র/ছাত্রীদের পৃথক কমনরুম রয়েছে।

  1. প্রশাসনিক ভবন
  2. একাডেমিক ভবন
  3. বিজ্ঞান ভবন
  4. মানবিক ও ব্যবসায় শিক্ষা ভবন
  5. লাইব্রেরী ভবন
  6. কেন্দ্রীয় মসজিদ

পাঠাগারসম্পাদনা

২ কক্ষ বিশিষ্ট পটিয়া সরকারি কলেজ লাইব্রেরীর বইয়ের সংখ্যা প্রায় ৭৬২ টি’র মত।

অন্যান্য সুযোগ সুবিধাসমূহসম্পাদনা

  • মসজিদ
  • ছাত্র ও ছাত্রীদের জন্য আলাদা মিলনায়তন

কৃতি শিক্ষার্থীসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা