নরনারায়ণ সেতু

নরনারায়ণ সেতু অসমের বঙাইগাও জেলার যোগীঘোপায় অবস্থিত। এইটি দোতালা বিশিষ্ট সেতু। নরনারায়ণ সেতুতে রেল ও গাড়ি চলার সুবিধা আছে। ১৯৮৩ সনের ১১ নভেম্বর প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী পঞ্চরত্ন ও যোগীঘোপাকে সংযুক্ত করার উদ্যেশে নরনারায়ণ সেতুর আধারশিলা স্থাপন করেছিলেন। এই সেতু নির্মাণের পর অসম ও মেঘালয়ের মধ্যে দ্রুত বাণিজ্যিক ব্যবস্থা গঢ়ে উঠেছে। নরনারায়ন সেতু রেলপথে গুয়াহাটিকে সম্পূর্ণ ভারতের সহিত সংযুক্ত করেছে। ১৯৮৭ সনের ডিসেম্বর মাসে এই সেতু নির্মাণের সন্মতি পেয়েছিল তার ১১ বৎসর পর ১৯৯৮ সনের ১৫ এপ্রিল তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী অনুষ্ঠানিক ভাবে নরনারায়ণ সেতুর উদ্ধোধন করেছিলেন।

নরনারায়ণ সেতু
Pancharatna bridge.jpg
নরনারায়ণ সেতু
স্থানাঙ্ক ২৬°১৩′ উত্তর ৯০°৩৪′ পূর্ব / ২৬.২১° উত্তর ৯০.৫৬° পূর্ব / 26.21; 90.56
অতিক্রম করেব্রহ্মপুত্র নদী
স্থানযোগীঘোপা
রক্ষণাবেক্ষকঅসম সরকার
বৈশিষ্ট্য
মোট দৈর্ঘ্য২.৫ কিঃমিঃ (১.৬ মাইল)
প্রস্থ১১.৫০ মিটার
ইতিহাস
নকশাকারট্রাস ব্রজ
নির্মাণ শুরু১৯৮৭ সনের ডিচেম্বর মাস
নির্মাণ ব্যয়৩৬৮ কোটি টকা
উদ্বোধন হয়১৯৯৮ সনের ১৫ এপ্রিল
চালু১৯৯৮
অবস্থান

নরনারায়ণ সেতুর দৈর্ঘ্য প্রায় ২.২৮ কিলোমিটার ও প্রস্থ ১১.৫০ মিটার এবং গভীরতা ১৮.৫০ মিটার। এই সেতু নির্মাণের মোট ব্যয় ছিল ৩৬৮ কোটি ভারতীয় টাকা।[১][২]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "Naranarayan Setu In India"India9। India9। সংগ্রহের তারিখ ১০ এপ্রিল ২০১১ 
  2. "Model project on Construction of Naranarayan Setu over river Brahmaputra at Jogihopa" (PDF)। ১৪ এপ্রিল ২০১৪ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৮ মে ২০১৩