দাকোপ উপজেলা

খুলনা জেলার একটি উপজেলা

দাকোপ উপজেলা পশুর নদীর পাড়ে অবস্থিত বাংলাদেশের খুলনা জেলার একটি প্রশাসনিক এলাকা। দাকোপের প্রশাসনিক অঞ্চল চালনায় অবস্থিত। দাকোপের সাথে খুলনার বটিয়াঘাটা উপজেলা, পাইকগাছা উপজেলা এবং বাগেরহাটের মোংলা উপজেলার সীমানা রয়েছে।

দাকোপ
উপজেলা
দাকোপ খুলনা বিভাগ-এ অবস্থিত
দাকোপ
দাকোপ
দাকোপ বাংলাদেশ-এ অবস্থিত
দাকোপ
দাকোপ
বাংলাদেশে দাকোপ উপজেলার অবস্থান
স্থানাঙ্ক: ২২°৩৪′১১″ উত্তর ৮৯°৩০′৩৯″ পূর্ব / ২২.৫৬৯৭২° উত্তর ৮৯.৫১০৮৩° পূর্ব / 22.56972; 89.51083 উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন
দেশবাংলাদেশ
বিভাগখুলনা বিভাগ
জেলাখুলনা জেলা
আয়তন
 • মোট৯৯১.৯৮ বর্গকিমি (৩৮৩.০১ বর্গমাইল)
জনসংখ্যা (২০১১)[১]
 • মোট১,৫৮,৩০৯
 • জনঘনত্ব১৬০/বর্গকিমি (৪১০/বর্গমাইল)
সাক্ষরতার হার
 • মোট৫৬%
সময় অঞ্চলবিএসটি (ইউটিসি+৬)
প্রশাসনিক
বিভাগের কোড
৪০ ৪৭ ১৭
ওয়েবসাইটপ্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইট উইকিউপাত্তে এটি সম্পাদনা করুন

অবস্থান ও আয়তনসম্পাদনা

দাকোপের ভৌগোলিক অবস্থান ২২°৩৪′২০″ উত্তর ৮৯°৩০′৪০″ পূর্ব / ২২.৫৭২২° উত্তর ৮৯.৫১১১° পূর্ব / 22.5722; 89.5111। দাকোপের মোট আয়তন ৯৯১.৫৮ কিমি²। উত্তরে বটিয়াঘাটা উপজেলা, পূর্বে বটিয়াঘাটারামপাল উপজেলা, দক্ষিণে সুন্দরবন এবং পশ্চিমে পাইকগাছা উপজেলা

ইতিহাসসম্পাদনা

১৯১৩ সালে দাকোপ থানার প্রশাসনিক কার্যক্রম শুরু হয় এবং ১৯৮৩ সালে উপজেলা হিসেবে ঘোষণা করা হয়। ৯টি ইউনিয়ন (লাউডোব,কৈলাশগঞ্জ,বানিশান্তা,বাজুয়া,দাকোপ, কামারখোলা, সুতারখালী,পানখালী,তিলডাঙ্গা),১টি পৌরসভা (চালনা), ২৬ মৌজা এবং শতাধিক গ্রাম নিয়ে দাকোপ থানা গঠিত। ১৯৭১ সালে দাকোপে অবস্থিত বাজুয়া উচ্চবিদ্যালয় প্রাঙ্গনে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী কর্তৃক গণহত্যা সংঘটিত হয়। শহীদদের স্মৃতির উদ্দেশ্যে উপজেলা পরিষদ ভবনের সামনে যুদ্ধ সৌধ স্মৃতি অম্লান নির্মাণ করা হয়েছে।

প্রশাসনিক এলাকাসম্পাদনা

দাকোপ উপজেলা ৯টি ইউনিয়ন এবং একটি পৌরসভা নিয়ে গঠিত, সেগুলি হল:

দাকোপ উপজেলার একমাত্র পৌরসভাটি হলো-চালনা পৌরসভা। ব্রিটিশ শাসনামলে চালনা বন্দর হিসেবে ব্যবহৃত হতো, পরবর্তীতে মোংলাকে বন্দর করা হয়।

জনসংখ্যার উপাত্তসম্পাদনা

জনসংখ্যা ১৫৭৪৮৯; পুরুষ ৮৩১৯৩, মহিলা ৭৪২৯৬। মুসলিম ৬৫৭৫৬, হিন্দু ৮৮৮৪২, বৌদ্ধ ২৭৬০ এবং অন্যান্য ১৩১।

স্বাস্থ্যসম্পাদনা

শিক্ষাসম্পাদনা

প্রাথমিক বিদ্যালয়সম্পাদনা

  • বটবুনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • গুনারী শীতল চন্দ্র প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • আড়াখালি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • বটবুনিয়া জে. এন. সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • হামিদা খাতুন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • সোনাপাখি প্রি-ক্যাডেট স্কুল
  • নতুনকুঁড়ি কিন্ডারগার্টেন
  • দক্ষিণ গুনারী উপেন নগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • কাচারীপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • কৈলাশগঞ্জ শ্যামাপদ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • প্রফুল্লচন্দ্র সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, বুড়ির ডাবর
  • সুতারখালি(২) সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
  • মাতৃমন্দির সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়

মাধ্যমিক বিদ্যালয়সম্পাদনা

  • গুনারী শীতল চন্দ্র মাধ্যমিক বিদ্যালয়
  • কৈলাশগঞ্জ মাধ্যমিক বিদ্যালয়
  • বটবুনিয়া কলেজিয়েট স্কুল
  • মোজামনগর মাধ্যমিক বিদ্যালয়
  • নলিয়ান মাধ্যমিক বিদ্যালয়
  • কালাবগী সুন্দারবন মাধ্যমিক বিদ্যালয়
  • জে পি মাধ্যমিক বিদ্যালয়
  • চালনা কে সি মাধ্যমিক বিদ্যালয়
  • বুড়ির ডাবর এস.ই.এস.ডি.পি. মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়

কলেজসম্পাদনা

  • চালনা কলেজ
  • চালনা এম এম কলেজ
  • বাজুয়া সুরেন্দ্রনাথ ডিগ্রি কলেজ
  • এল.বি.কে সরকারি ডিগ্রী কলেজ, বাজুয়া

কৃষিসম্পাদনা

অর্থনীতিসম্পাদনা

দাকোপ থানার অর্থনীতি কৃষি এবং চিংড়ি চাষের উপর নির্ভরশীল। এই থানার বিস্তৃত এলাকা জুড়ে চিংড়ি ঘেরগুলোতে বাগদা চিংড়ির চাষ হয়।

যোগাযোগসম্পাদনা

দর্শনীয় স্থান ও স্থাপনাসম্পাদনা

  1. সুন্দরবন

বিবিধসম্পাদনা

আরও দেখুনসম্পাদনা

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. বাংলাদেশ জাতীয় তথ্য বাতায়ন (জুন ২০১৪)। "এক নজরে দাকোপ"। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৫ জানুয়ারী ২০১৫ 

বহিঃসংযোগসম্পাদনা