প্রধান মেনু খুলুন

জ্যাক সন্ডার্স

অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটার

জন ভিক্টর সন্ডার্স (ইংরেজি: Jack Saunders; জন্ম: ২১ মার্চ, ১৮৭৬ - মৃত্যু: ২১ ডিসেম্বর, ১৯২৭) ভিক্টোরিয়া রাজ্যের মেলবোর্নে জন্মগ্রহণকারী বিশিষ্ট অস্ট্রেলীয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ছিলেন। অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য ছিলেন তিনি। ১৯০২ থেকে ১৯০৮ সময়কালে অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেছিলেন।

জ্যাক সন্ডার্স
জ্যাক সন্ডার্স.jpg
আনুমানিক ১৯০০ সালের অঙ্কিত চিত্রে জ্যাক সন্ডার্স
ব্যক্তিগত তথ্য
জন্ম(১৮৭৬-০৩-২১)২১ মার্চ ১৮৭৬
মেলবোর্ন, ভিক্টোরিয়া, অস্ট্রেলিয়া
মৃত্যু২১ ডিসেম্বর ১৯২৭(1927-12-21) (বয়স ৫১)
মেলবোর্ন, ভিক্টোরিয়া, অস্ট্রেলিয়া
ব্যাটিংয়ের ধরনবামহাতি
বোলিংয়ের ধরনবামহাতি মিডিয়াম
স্লো লেফট-আর্ম অর্থোডক্স
ভূমিকাবোলার
আন্তর্জাতিক তথ্য
জাতীয় পার্শ্ব
টেস্ট অভিষেক
(ক্যাপ ৮৩)
১৪ ফেব্রুয়ারি ১৯০২ বনাম ইংল্যান্ড
শেষ টেস্ট২১ ফেব্রুয়ারি ১৯০৮ বনাম ইংল্যান্ড
খেলোয়াড়ী জীবনের পরিসংখ্যান
প্রতিযোগিতা টেস্ট এফসি
ম্যাচ সংখ্যা ১৪ ১০৭
রানের সংখ্যা ৩৯ ৫৮৬
ব্যাটিং গড় ২.২৯ ৪.৭৬
১০০/৫০ ০/০ ০/০
সর্বোচ্চ রান ১১* ২৯*
বল করেছে ৩৫৬৫ ২৪১১৬
উইকেট ৭৯ ৫৫৩
বোলিং গড় ২২.৭৩ ২১.৮১
ইনিংসে ৫ উইকেট ৪৮
ম্যাচে ১০ উইকেট
সেরা বোলিং ৭/৩৪ ৮/১০৬
ক্যাচ/স্ট্যাম্পিং ৫/০ ৭১/০
উৎস: ইএসপিএনক্রিকইনফো.কম, ১৯ অক্টোবর ২০১৬

ঘরোয়া প্রথম-শ্রেণীর ক্রিকেটে ভিক্টোরিয়া ক্রিকেট দলের প্রতিনিধিত্ব করেছেন জ্যাক সন্ডার্স[১] দলে তিনি মূলতঃ বামহাতি মিডিয়াম কিংবা স্লো লেফট আর্ম অর্থোডক্স বোলিংয়ে পারদর্শিতা দেখিয়েছেন।

খেলোয়াড়ী জীবনসম্পাদনা

১৯০২ থেকে ১৯০৮ সময়কালে অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে ১৪ টেস্টে অংশ নিয়েছিলেন। ১৪-১৮ ফেব্রুয়ারি, ১৯০২ তারিখে অনুষ্ঠিত সিডনি টেস্টে সফরকারী ইংল্যান্ডের বিপক্ষে তার টেস্ট অভিষেক ঘটে।[২] ঐ টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে পাঁচ-উইকেট লাভ করেন তিনি। এরপর থেকেই সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে ৭৯ উইকেট লাভের দিকে ধাবিত হন।[৩]

১৯০২ সালে জো ডার্লিংয়ের অধিনায়কত্বে ইংল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকা সফর করেন। বামহাতি ধীরগতি বোলার হিসেবে ব্যাপক সফলতা পান। এছাড়াও শুষ্ক মৌসুমে সফলতার মুখ দেখেছেন। সমগ্র খেলোয়াড়ী জীবনে সকল স্তরের ক্রিকেটে ১৭-এর কিঞ্চিৎ বেশি রান দিয়ে ১২৭ উইকেট তুলে নেন।

চারটি টেস্ট খেলায় ২৬-এর বেশি রান খরচায় আঠারোজনকে প্যাভিলিয়নে ফেরৎ পাঠান। শেফিল্ডে অনুষ্ঠিত টেস্টে অস্ট্রেলিয়া ১৪৩ রানের জয় পায়। প্রথম ইনিংসে ৫০ রানের বিনিময়ে পাঁচ-উইকেট পেলেও দ্বিতীয় ইনিংসে ১২ ওভারে ৬৮ রান দিয়ে কোন উইকেট লাভে ব্যর্থ হন। ম্যানচেস্টারে ৩ রানের জয়ী খেলায় সন্ডার্স অবিষ্মরণীয় ভূমিকা রাখেন। রোডসের সাথে টেট শেষ উইকেটে জুটি গড়লে তিনি তাকে বোল্ড করেন।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২৫.৩২ রান গড়ে ৬৪ উইকেট পান। অন্যদিকে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ১৫ উইকেট পান ১১.৭৩ গড়ে। জোহেন্সবার্গে নিজস্ব সেরা ৭/৩৪ লাভ করেন।

অবসরসম্পাদনা

ভিক্টোরিয়ার পক্ষে সর্বশেষ খেলায় অংশ নেয়ার পর নিউজিল্যান্ডে বসতি গড়েন। সেখানে তিনি ওয়েলিংটনের প্রতিনিধিত্ব করেন। ৫১ বছর বয়সে ২১ ডিসেম্বর, ১৯২৭ তারিখে ভিক্টোরিয়ার মেলবোর্নে অস্ত্রোপাচারকালে জ্যাক সন্ডার্সের দেহাবসান ঘটে।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "CricketArchive Player Oracle" (ইংরেজি ভাষায়)। CricketArchive। সংগ্রহের তারিখ ২১ জুলাই ২০১৭ 
  2. "4th Test: Australia v England at Sydney, Feb 14-18, 1902" (ইংরেজি ভাষায়)। ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২০১১-১২-১৮ 
  3. "Player Profile: Jack Saunders" (ইংরেজি ভাষায়)। ESPNcricinfo। সংগ্রহের তারিখ ২ জুন ২০১৪ 

আরও দেখুনসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা