জেমস আর. ব্যালেনটাইন

জেমস রবার্ট ব্যালেনটাই (ইংরেজি: James Robert Ballantyne; ১৮১৩–১৮৬৪) ছিলেন একজন স্কটিশ প্রাচ্যবিদ। ১৮৩২ থেকে ১৮৪৫ সাল পর্যন্ত তিনি ছিলেন এডিনবরার স্কটিশ ন্যাভাল অ্যান্ড মিলিটারি অ্যাকাডেমির একজন মাস্টার ছিলেন; ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির ভাবী আধিকারিকদের ফার্সি, হিন্দিআরবি পড়াতেন।[১] ১৮৪৫ সালে তিনি বারাণসীর সংস্কৃত কলেজের অধ্যক্ষ হন। ১৮৬১ সালে তিনি ইংল্যান্ডে ফিরে যান এবং ইন্ডিয়া অফিসে গ্রন্থাগারিক নির্বাচিত হন।[২]

জেমস আর. ব্যালেনটাইন, আনুমানিক ১৮৪৫, হিল ও অ্যাডামসন অঙ্কিত

ব্যালেনটাইন সংস্কৃত, হিন্দি (২য় সংস্করণ, ১৮৬৮) ও মারাঠি ব্যাকরণ প্রকাশ করেন। ১৮৪৯-৫২ সালে তিনি বরদরাজের লঘুকৌমুদী-র একটি সংস্করণ প্রকাশ করেন। ১৮৫৬ সালে তিনি পতঞ্জলির মহাভাষ্য গ্রন্থের প্রথম অংশ প্রকাশ করেন। শেষোক্ত গ্রন্থটির মাধ্যমে বৃহত্তর ইউরোপীয় পণ্ডিতসমাজে ভারতীয় ব্যাকরণ পদ্ধতির দরজা উন্মোচিত হয়।[৩]

গ্রন্থাবলি

সম্পাদনা
  • হিন্দুস্তানি গ্রামার অ্যান্ড এক্সারসাইজেস, ১৮৩৮
  • মারাঠি গ্রামার, ১৮৩৯
  • এলিমেন্টস অফ হিন্দু অ্যান্ড ব্রজ-ভাখা গ্রামার, ১৮৩৯
  • হিন্দুস্তানি সিলেকশনস, ১৮৪০
  • পকেট গাইড টু হিন্দুস্তানি কনভারসেশন, ৪র্থ সংস্করণ, ১৮৪১
  • পার্সিয়ান ক্যালিগ্রাফি, ২য় সংস্করণ, ১৮৪২
  • প্র্যাকটিক্যাল ওরিয়েন্টাল ইন্টারপ্রেটার, ১৮৪৩
  • ক্যাটিকিজম অফ সংস্কৃত গ্রামার, ২য় সংস্করণ, ১৮৪৫
  • আ সাইনপসিস অফ সায়েন্স ফ্রম দ্য স্ট্যান্ড-পয়েন্ট অফ দ্য ন্যায় ফিলোজফি, ১৮৫২
  • ক্রিশ্চিয়ানিটি কনট্রাস্টেড উইথ ইন্ডিয়ান ফিলোজফি, ১৮৫৯
  • ফার্স্ট লেসেনস ইন সংস্কৃত গ্রামার, ৩য় সংস্করণ, ১৮৬২

তথ্যসূত্র

সম্পাদনা
  1. "Curious Edinburgh:Scottish Naval and Military Academy"। সংগ্রহের তারিখ ১৩ অক্টোবর ২০১৯ 
  2.   Lane-Poole, Stanley (১৮৮৫)। "Ballantyne, James Robert"। Leslie StephenDictionary of National Biography3। London: Smith, Elder & Co। 
  3. Ballantyne, James Robert (১৮৫২)। A Synopsis of Science from the Stand-point of the Nyáya Philosophy