জিয়াউল হাসান একজন বাংলাদেশি সরকারি কর্মকর্তা যিনি পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের বর্তমান সচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।[১] এরপূর্বে তিনি স্পারসোর চেয়ারম্যান ছিলেন।

জিয়াউল হাসান
পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন সচিব
দায়িত্বাধীন
অধিকৃত কার্যালয়
১ জানুয়ারি ২০২০
পূর্বসূরীআবদুল্লাহ আল মোহসিন চৌধুরী
স্পারসোর চেয়ারম্যান
কাজের মেয়াদ
৬ মার্চ ২০১৮ – ৩১ ডিসেম্বর ২০১৯
ব্যক্তিগত বিবরণ
জাতীয়তাবাংলাদেশি
পেশাসরকারি কর্মকর্তা

শিক্ষা জীবনসম্পাদনা

জিয়াউল ১৯৮৭ সালে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে স্নাতক এবং ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে গভর্নেন্স এন্ড ডেভেলপমেন্ট বিষয়ে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন।[২] ২০১৬ সালে জাতীয় প্রতিরক্ষা কলেজ থেকে জাতীয় প্রতিরক্ষা কোর্স (এনডিসি) সম্পন্ন করেন।[২]

কর্মজীবনসম্পাদনা

কর্মজীবনের শুরুতে জিয়াউল ১৯৮৬ সালে ৬ষ্ঠ ব্যাচে বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসে প্রশাসন ক্যাডারে সহকারী কমিশনার পদে গোপালগঞ্জ কালেক্টরেটে যোগদান করেন। পরবর্তীতে তিনি দেশের বিভিন্ন স্থানে উপজেলা নির্বাহী অফিসার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা, বাংলাদেশ রেশম উন্নয়ন বোর্ডসহ বিভিন্ন সরকারি প্রতিষ্ঠানে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি [[জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ|জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের পরিচালক এবং বাংলাদেশ অর্থনৈতিক জোন কর্তপক্ষের মহাব্যবস্থাপক ছিলেন। ২০১৮ সালের ৬ মার্চ থেকে ২০১৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাংলাদেশ মহাকাশ গবেষণা ও দূর অনুধাবন প্রতিষ্ঠানের (স্পারসো) চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।[২] ২০২০ সালের ১ জানুয়ারি তিনি পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের সচিব হিসেবে নিয়োগ পান।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "দুই মন্ত্রণালয়ে নতুন সচিব, প্রধানমন্ত্রীর পিএস হলেন সালাহ উদ্দিন"যুগান্তর। সংগ্রহের তারিখ ৯ জানুয়ারি ২০২০ 
  2. "চেয়ারম্যান"স্পারসো। সংগ্রহের তারিখ ৯ জানুয়ারি ২০২০