প্রধান মেনু খুলুন

জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ (気象庁? কিশোও-চোও) হল জাপানের ভূমি, পরিকাঠামো, পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রকের একটি নিয়োগ।[৪] এই সংস্থাটির কাজ জাপানি জনসাধারণকে আবহবিজ্ঞান, জলবিজ্ঞান, ভূকম্পবিজ্ঞান ও আগ্নেয়গিরি সংক্রান্ত তথ্যাদির দৈনিক বৈজ্ঞানিক পর্যবেক্ষণ ও তা থেকে লব্ধ ফলাফল সম্পর্কে অবগত রাখা। টোকিওর চিয়্যোদা ওয়ার্ডে এর সদর দপ্তর অবস্থিত।

জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ
কিশোও-চোও (気象庁)
Kisyoucho-building-200512.jpg
টোকিও-তে কিশোও-চোও সদর দপ্তর ভবন
সংস্থার রূপরেখা
গঠিত১ জুলাই ১৯৫৬; ৬৩ বছর আগে (1956-07-01)
পূর্ব সংস্থা
  • টোকিও আবহবিদ্যা মানমন্দির
  • কেন্দ্রীয় আবহবিদ্যা মানমন্দির
অধিক্ষেত্রজাপান সরকার
সদর দপ্তর1-3-4 ওওতেমাচি, চিয়্যোদা-কু, টোকিও
৩৫°৪১′২২.৫″ উত্তর ১৩৯°৪৫′৪২.১″ পূর্ব / ৩৫.৬৮৯৫৮৩° উত্তর ১৩৯.৭৬১৬৯৪° পূর্ব / 35.689583; 139.761694স্থানাঙ্ক: ৩৫°৪১′২২.৫″ উত্তর ১৩৯°৪৫′৪২.১″ পূর্ব / ৩৫.৬৮৯৫৮৩° উত্তর ১৩৯.৭৬১৬৯৪° পূর্ব / 35.689583; 139.761694
কর্মী5,539 (2010)[১]
বার্ষিক বাজেট¥62.0 billion (2010-11)[২]
¥59.0 billion (2011-12)[৩]
¥58.9 billion (est. 2012)[৩]
সংস্থা নির্বাহীগণ
  • তোশিহিকো হাশিদা, ডিরেক্টর জেনারেল
  • কোওইচি সেকিগুচি, ডেপুটি ডিরেক্টর জেনারেল
মূল সংস্থাভূমি, পরিকাঠামো, পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রক
ওয়েবসাইটwww.jma.go.jp

জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ জনসাধারণকে আবহাওয়ার পূর্বাভাস সম্পর্কে জানায়, সেইসঙ্গে উড়োজাহাজ ও জলযান চালকদেরকেও ওয়াকিবহাল রাখে। সংস্থাটির অন্যান্য দায়িত্বের মধ্যে পড়ে অগ্ন্যুৎপাতের পূর্বাভাস দেওয়া এবং দেশব্যাপী আগাম ভূমিকম্প সতর্কবার্তা ব্যবস্থার মারফত ভূমিকম্পের সম্ভাবনা শনাক্ত করা। এছাড়া জেএমএ হল বিশ্ব আবহাওয়া সংস্থার দ্বারা প্রত্যয়িত অন্যতম বিশেষ আঞ্চলিক আবহবিজ্ঞান কেন্দ্র। উত্তর-পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে বিভিন্ন ঘূর্ণিঝড় বা সাইক্লোনের নামকরণ ও আগাম সতর্কবার্তা জারি করার দায়িত্ব বর্তায় এই সংস্থার উপর। এই অঞ্চলের মধ্যে রয়েছে সেলিবিস সাগর, সুলু সাগর, দক্ষিণ চীন সাগর, পূর্ব চীন সাগর, পীত সাগর, জাপান সাগরওখট্‌স্ক সাগর

ইতিহাসসম্পাদনা

  • ২৬শে আগস্ট, ১৮৭২ - হোক্কাইদোর হাকোদাতে শহরে প্রথম আবহাওয়া দপ্তর স্থাপিত হয়। এটি বর্তমান হাকোদাতে আবহাওয়া কেন্দ্রের (函館海洋気象台 হাকোদাতে কাইয়ো কিশোও-দাই) পূর্বসূরী।[১]
  • জুন ১৮৭৫ - জাপানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের ভূগোল ব্যুরোর সার্ভে বিভাগের মধ্যে প্রথম টোকিও আবহবিজ্ঞান মানমন্দির (東京気象台 টোকিও কিশোও-দাই) প্রতিষ্ঠিত হয়।[৫]
  • ১লা জানুয়ারি, ১৮৮৭ - টোকিও আবহবিজ্ঞান মানমন্দিরের নাম পালটে রাখা হয় কেন্দ্রীয় আবহবিজ্ঞান মানমন্দির (中央気象台 চুউও কিশোও-দাই) এবং এর নিয়ন্ত্রণ সরাসরি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের হাতে চলে যায়।
  • এপ্রিল ১৮৯৫ - কেন্দ্রীয় আবহবিজ্ঞান মানমন্দিরের কর্তৃত্ব চলে যায় শিক্ষা মন্ত্রকের হাতে।
  • ১লা জানুয়ারি, ১৯২৩ - প্রধান কার্যালয়টি স্থানান্তরিত হয় কোওজিমাচি জেলার মোতোয়ে মাচি শহরে, রাজপ্রাসাদের একটি পরিখার পাশে।[৬]
  • নভেম্বর ১৯৪৩ - মানমন্দিরের কর্তৃত্ব যায় পরিবহন ও যোগাযোগ মন্ত্রকের হাতে।
  • মে ১৯৪৫ - মানমন্দিরটি পরিবহন মন্ত্রকের অধীনে যায়।
  • ১লা জুলাই, ১৯৫৬ - কেন্দ্রীয় আবহবিজ্ঞান মানমন্দির পরিবহন মন্ত্রএর একটি নিয়োগে পরিণত হয় এবং এর নামকরণ হয় জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ (気象庁কিশোও চোও)।
  • মার্চ ১৯৬৪ - নিয়োগের সদর দপ্তর তার বর্তমান অবস্থান চিয়্যোদা ওয়ার্ডের ওওতেমাচি-তে সরে যায়।
  • ৬ই জানুয়ারি, ২০০১ - জাপান সরকারের সংস্কারের ফলে জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ নতুন ভূমি, পরিকাঠামো, পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রকের অধীনে যায়।
  • ২০১৩ - ঘোষণা করা হয় যে, নিয়োগের সদর দপ্তর মিনাতোর তোরানোমোনে স্থানান্তরিত হবে।[৬]

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

  1. "ja:総合パンフレット「気象庁」" (PDF) (জাপানি ভাষায়)। জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ। জানুয়ারি ২০১১। ২০১২-০৩-৩১ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৪-০১ 
  2. ২৩ তম হেইসেই বর্ষে জাপান আবহাওয়া সংস্থা সম্পর্ক বাজেট সিদ্ধান্তের ওভারভিউ "ja:平成23年度 気象庁関係予算決定概要" |ইউআরএল= এর মান পরীক্ষা করুন (সাহায্য) (PDF) (জাপানি ভাষায়)। জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ। ২০১০-১২-২৪। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৪-০১ 
  3. ২৪ তম হেইসেই বর্ষে জাপান আবহাওয়া সংস্থা সম্পর্ক বাজেট সিদ্ধান্তের ওভারভিউ "ja:平成24年度 気象庁関係予算決定概要" |ইউআরএল= এর মান পরীক্ষা করুন (সাহায্য) (PDF) (জাপানি ভাষায়)। জাপান আবহবিদ্যা নিয়োগ। ২০১১-১২-২৪। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৪-০১ 
  4. "国土交通省設置法 (e-Gov)" (জাপানি ভাষায়)। 総務省। ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ মার্চ ৩১, ২০১২ 
  5. Kan'ichi Koinuma (মার্চ ১৯৬৯)। "ja:内務省における気象観測の開始の経緯と気象台の名称" (PDF) (জাপানি ভাষায়)। Meteorological Society of Japan। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৩-৩০ 
  6. "ja:気象庁庁舎移転後の新しい露場を選定" (PDF) (জাপানি ভাষায়)। Japan Meteorological Agency। সেপ্টেম্বর ২০০৮। ২০১২-০৫-১৪ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০১২-০৩-৩০